শেয়ারদর অস্বাভাবিক, ৬ কোম্পানির বিরুদ্ধে বিএসইসি’র তদন্ত কমিটি

শেয়ারবাজার রিপোর্ট: অস্বাভাবিক মূল্যবৃদ্ধি এবং মালিকপক্ষ ও ইনসাইডারদের শেয়ার কেনাবেচার অভিযোগে তালিকাভুক্ত ছয় কোম্পানির বিরুদ্ধে তদন্ত কমিটি করেছে শেয়ারবাজার নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)।

গতকাল সোমবার এ কমিটি করা হয়েছে। কোম্পানিগুলো হলো- মুন্নু সিরামিক, মুন্নু জুট স্টাফেলার্স, স্টাইল ক্র্যাফট, আলিফ ইন্ডাস্ট্রিজ, পপুলার লাইফ ইন্স্যুরেন্স ও রেনউয়িক যজ্ঞেশ্বর।

বিএসইসি’র নির্বাহী পরিচালক ও মুখপাত্র সাইফুর রহমান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, কমিশনের তিন কর্মকর্তা উপপরিচালক ওহিদুল ইসলাম, সহকারী পরিচালক আবদুস সেলিম ও ওয়ারিসুল হাসান রিফাতকে নিয়ে এ কমিটি করা হয়েছে। কমিটিকে আগামী ৩০ কার্যদিবসের মধ্যে প্রতিবেদন দিতে বলা হয়েছে।

মুন্নু সিরামিক :গত বছরের আগস্ট থেকে অস্বাভাবিক হারে বাড়ছে মুন্নু গ্রুপের মুন্নু সিরামিকের শেয়ারদর। গত বছরের আগস্টের দ্বিতীয় সপ্তাহেও শেয়ারটি ৪০ টাকা দরে কেনাবেচা হয়। মাত্র তিন সপ্তাহে শেয়ারটির দর তিনগুণ বেড়ে গত ৬ অক্টোবর ১২০ টাকায় ওঠে। গত ৮ এপ্রিল শেয়ারটি সর্বোচ্চ ১৬২ টাকায় কেনাবেচা হয়। অবশ্য কয়েকদিন ধরে দর কমেছে।
গ্যাস সংকট নিরসনের পর কোম্পানিটি উৎপাদন ও বিপণন বৃদ্ধির প্রেক্ষাপটে এর মুনাফায় বড় উল্লম্ম্ফন হয়েছে। এ বিষয়ে আগাম তথ্য ফাঁসই শেয়ারদর বৃদ্ধিতে বড় ভূমিকা রাখছে বলে জানা গেছে।

মুন্নু স্টাফেলার্স :প্রায় একই রকম কারণে মুন্নু জুট স্টাফেলার্সেরও অস্বাভাবিক দরবৃদ্ধি হয়েছে।

পর্যালোচনায় দেখা গেছে, গত বছরের জুলাইয়ের মাঝামাঝি থেকে মুন্নু স্টাফেলার্সের শেয়ারদর ক্রমাগত বাড়ছে। ওই সময়ে শেয়ারটি ৫০০ টাকা দরে কেনাবেচা হতো। গতকাল শেয়ারটি রেকর্ড এক হাজার ৬৮৫ টাকা ৬০ পয়সা দরে কেনাবেচা হয়েছে।

স্টাইল ক্র্যাফট :মূলধন বাড়াতে আবারও বড় অঙ্কের বোনাস লভ্যাংশ ঘোষণা দেবে কোম্পানি- এমন গুজবে স্টাইল ক্র্যাফটের শেয়ারদর গত এক মাসে এক হাজার ৩৫০ টাকা থেকে বেড়ে এক হাজার ৯১৫ টাকায় উন্নীত হয়েছে। সর্বশেষ এক হাজার ৮৯০ টাকায় কেনাবেচা হয়েছে, যা রোববারের তুলনায় সোয়া ৪ শতাংশ বেশি।

আলিফ ইন্ডাস্ট্রিজ :ওটিসি বাজার থেকে মূল বাজারে ফিরে আসা আলিফ ইন্ডাস্ট্রিজের শেয়ার নিয়েও কারসাজি হয়েছে। গত বছরের ২৮ ডিসেম্বর তালিকাভুক্তির প্রথম দিনে শেয়ারটি সর্বোচ্চ ১৫৭ টাকায় কেনাবেচা হয়েছিল। অবশ্য এর পর গত মার্চ পর্যন্ত কোম্পানিটি ক্রমাগত দর হারায়। এর মধ্যে গত ২৮ মার্চ শেয়ারটি সর্বনিম্ন ৮১ টাকায় কেনাবেচা হয়েছে। এর পর তিন সপ্তাহ ধরে শেয়ারটির দর বাড়ছে। এ সময়ে আলিফ ইন্ডাস্ট্রিজের দর ৩৮ শতাংশ বেড়ে ১১১ টাকা ছাড়িয়েছে।

পপুলার লাইফ :তিন মাস আগেও পপুলার লাইফ ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার ৬৫ টাকা দরে কেনাবেচা হয়েছিল। গতকাল শেয়ারটি সর্বশেষ ১১৮ টাকা দরে কেনাবেচা হয়েছে। অবশ্য গত ১৬ এপ্রিল শেয়ারটি সর্বোচ্চ ১৪০ টাকায় কেনাবেচা হয়েছিল। অর্থাৎ তিন মাসে শেয়ারটির দর প্রায় সোয়া দুইগুণে উন্নীত হয়েছে। এর মধ্যে গত ২০ মার্চ থেকে ১৬ এপ্রিলের মধ্যে শেয়ারটির দর ৭৯ টাকা থেকে ১৪০ টাকায় ওঠে।

রেনউয়িক যজ্ঞেশ্বর : গত তিন সপ্তাহে রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন কোম্পানি রেনউয়িক যজ্ঞেশ্বরের শেয়ারদর ৪০ শতাংশ বেড়ে ৭৮৯ টাকা ছাড়িয়েছে। চলতি এপ্রিলের শুরুতেও শেয়ারটি কেনাবেচা হয় ৫৬৫ টাকা দরে।

 

শেয়ারবাজারনিউজ/আ

আপনার মন্তব্য

*

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Top