গ্যাসের দাম বাড়াতে শুনানি শুরু: সঞ্চালন চার্জ বাড়াতে প্রস্তাব দিয়েছে মূল্যায়ন কমিটি

শেয়ারবাজার রিপোর্ট: গ্যাসের ইউনিট প্রতি সঞ্চালন চার্জ ০.৩৮৮১ টাকা বাড়ানোর সুপারিশ করেছে বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশন (বিইআরসি)।

আজ সোমবার মূল্য সমন্বয় প্রস্তাবের ওপর শুনানিতে এই সুপারিশ করে কমিশনের মূল্যায়ন কমিটি। কাওরান বাজারে টিসিবি অডিটরিয়ামে এই শুনানি অনুষ্ঠিত হয়।

গ্যাসের দাম বাড়ানোর শুনানির প্রথম দিন গ্যাস ট্রান্সমিশন কোম্পানি লিমিটেড (জিটিসিএল) সঞ্চালন ব্যয় বাড়ানোর ওপর শুনানি করে। শুনানিতে জিটিসিএল সঞ্চালন চার্জ ০.৫৫৫৯ টাকা ইউনিট প্রতি বাড়ানোর প্রস্তাব করেছে। এটি তাদের সংশোধিত প্রস্তাব। এর আগে তারা ০.৪৪৭৬ টাকা বাড়ানোর প্রস্তাব করেছিল। বর্তমানে প্রতি ঘনমিটারে জিটিসিএলের সঞ্চালন চার্জ রয়েছে ০.২৫৪ টাকা।

শুনানিতে কমিশনের চেয়ারম্যান মনোয়ার ইসলামসহ অন্য সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন। এছাড়াও ভোক্তা অধিকার অ্যাসোসিয়েশন (ক্যাব) এর জ্বালানি উপদেষ্টা শামসুল আলম, বুয়েটের অধ্যাপক নুরুল ইসলাম, ঢাবির অধ্যাপক বদরুল ইমাম বক্তব্য রাখুন।

গ্যাসের দাম ও সঞ্চালন চার্জ বাড়ানোর বিষয়ে শুরু হওয়া গণশুনানি চলবে ২১ জুন পর্যন্ত।

আগামী বুধবার (১৩ জুন) তিতাস গ্যাস ট্রান্সমিশন অ্যান্ড ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানির গ্যাসের সঞ্চালন লাইন ও গ্রাহক পর্যায়ে গ্যাসের দাম বাড়ানোর ওপর শুনানি করবে কমিশন। এরপর বৃহস্পতিবার (১৪ জুন) বাখরাবাদ গ্যাস ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি লিমিটেডের প্রস্তাবিত দামের ওপর শুনানি হবে।

ঈদুল ফিতরের আগে আর শুনানি হবে না। ঈদের পর আগামী ১৮ জুন জালালাবাদ গ্যাস ট্রান্সমিশন অ্যান্ড ডিস্ট্রিবিউশন সিস্টেম লিমিটেডের প্রস্তাবিত দামের ওপর, ১৯ জুন কর্ণফুলী গ্যাস ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি লিমিটেডের প্রস্তাবিত দাম, ২০ জুন পশ্চিমাঞ্চর গ্যাস কোম্পানি লিমিটেডের এবং ২১ জুন সুন্দরবর গ্যাস কোম্পানি লিমিটেডের প্রস্তাবিত দামের ওপর গণশুনানি করবে কমিশন।

গত মার্চে গ্যাস বিতরণ কোম্পানিগুলো গড়ে ৭৫ শতাংশ দাম বাড়ানোর প্রস্তাব পাঠায়। তবে আবাসিক ও বাণিজ্যিক গ্যাসের দাম বাড়ানোর প্রস্তাব দেয়নি তারা।

বিইআরসি জানায়, বিদ্যুৎকেন্দ্রে ব্যবহৃত গ্যাসের দাম প্রতি ইউনিট ৩ টাকা ১৬ পয়সা থেকে ৯ টাকা ৪৮ পয়সা বাড়ানোর প্রস্তাব করা হয়েছে। সার কারখানায় ব্যবহৃত গ্যাসের ইউনিট প্রতি দাম ২ টাকা ৭১ পয়সা থেকে ১২ টাকা ৮০ পয়সা, আর শিল্প-কলকারখানায় ৭ টাকা ৭৬ পয়সা থেকে ১৪ টাকা ৯০ পয়সা, সিএনজির দাম প্রতি ইউনিট ৪০ টাকা থেকে ৪৮ টাকা বাড়ানোর আবেদন করা হয়েছে।

এছাড়া ক্যাপটিভ পাওয়ারে ব্যবহৃত গ্যাসের দাম প্রতি ইউনিটে ৯ টাকা ৬২ পয়সা থেকে ১৬ টাকা এবং চা বাগানে প্রতি ইউনিট ৭ টাকা ৪২ পয়সা থেকে ১২ টাকা ৮০ পয়সা করার প্রস্তাব দিয়েছে কোম্পানিগুলো।

এর আগে গত বছরের ফেব্রুয়ারিতে সর্বশেষ গ্যাসের দাম বাড়ানো হয়। দুই ধাপে গড়ে ২২ দশমিক ৭৩ শতাংশ গ্যাসের দাম বাড়ায় বিইআরসি। প্রথম ধাপে ১ মার্চ এবং দ্বিতীয় ধাপে ১ জুন নতুন দাম থেকে কার্যকর হয়।

 

শেয়ারবাজারনিউজ/আ

আপনার মন্তব্য

*

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Top