আস্থায় ফিরছে পুঁজিবাজার

শেয়ারবাজার রিপোর্ট: সাপ্তাহিক ব্যবধানে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) লেনদেন বেড়েছে ৩৩.২৯ শতাংশ। গত সপ্তাহে সাড়ে ৩ হাজার কোটি টাকা হওয়া সামনের বাজারকে আরো গতিশীল হওয়ার ইঙ্গিত দিচ্ছে। বিনিয়োগকারীরা আস্থা ফিরে পাচ্ছেন।

যদিও সাপ্তাহিক ব্যবধানে দেশের প্রধান পুঁজিবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) সূচকের পতন ঘটেছে পাশাপাশি প্রায় সব ধরনের সূচক কমেছে। সপ্তাহজুড়ে লেনদেন হওয়া ৫ কার্যদিবসের মধ্যে ৩দিনই কমেছে সূচক। বাকি দুই কার্যদিবস বাড়লেও এর মাত্রা ছিলো সামান্য। এরই ধারাবাহিকতায় দেশের উভয় শেয়ারবাজারে প্রায় সব ধরনের সূচক কমেছে। এদিকে সূচকের পাশাপাশি কমেছে কোম্পানির শেয়ার দর। তবে গত সপ্তাহে লেনদেনের পরিমান কিছুটা বেড়েছে। আলোচিত সপ্তাহটিতে ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে ৩ হাজার ৫৪১ কোটি ৯৯ লাখ ৮ হাজার ৭১৬ টাকা।

সাপ্তাহিক বাজার বিশ্লেষণে দেখা গেছে, সপ্তাহশেষে ডিএসই ব্রড ইনডেক্স বা ডিএসইএক্স সূচক কমেছে ০.৬৭ শতাংশ বা ৩৬.৩০ পয়েন্ট। সপ্তাহের ব্যবধানে ডিএসই-৩০ সূচক কমেছে ১.১০ শতাংশ বা ২১.৮৬ পয়েন্ট। অপরদিকে শরীয়াহ বা ডিএসইএস সূচক বেড়েছে ০.০৩ শতাংশ বা ০.৩৪ পয়েন্ট। আর সপ্তাহজুড়ে ডিএসইতে তালিকাভুক্ত মোট ৩৪৩টি কোম্পানি ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের শেয়ার লেনদেন হয়েছে। এর মধ্যে দর বেড়েছে ১২৬টি কোম্পানির। আর দর কমেছে ১৯৬টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ২০টির। আর লেনদেন হয়নি ১টি কোম্পানির শেয়ার। এগুলোর ওপর ভর করে গত সপ্তাহে লেনদেন মোট ৩ হাজার ৫৪১ কোটি ৯৯ লাখ ৮ হাজার ৭১৬ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়। তবে এর আগের সপ্তাহে লেনদেন হয় ২ হাজার ৬৫৭ কোটি ৪১ লাখ ৮ হাজার ৭৪৩ টাকার। সেই হিসাবে সমাপ্ত সপ্তাহে লেনদেন বেড়েছে ৮৮৪ কোটি ৫৭ লাখ ৯৯ হাজার ৯৭৩ টাকা ৩৩.২৯ শতাংশ।

আর সমাপ্ত সপ্তাহে ‘এ’ ক্যাটাগরির কোম্পানির শেয়ার লেনদেন হয়েছে ৮৯.৭২ শতাংশ। ‘বি’ ক্যাটাগরির কোম্পানির লেনদেন হয়েছে ৪.৮৫ শতাংশ। ‘এন’ ক্যাটাগরির কোম্পানির লেনদেন হয়েছে ৪.২২ শতাংশ। ‘জেড’ ক্যাটাগরির লেনদেন হয়েছে ১.২১ শতাংশ।

সপ্তাহশেষে চট্টগ্রাম স্টক এক্সেচঞ্জের (সিএসই) সার্বিক সূচক সিএসসিএক্স ১৪৬.৮৭ পয়েন্ট বা ১.৪৬ শতাংশ কমে সপ্তাহ শেষে দাঁড়িয়েছে ১০ হাজার ৯ পয়েন্টে। আর সপ্তাহজুড়ে সিএসইতে হাত বদল হওয়ার ২৯২টি কোম্পানি ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের শেয়ার লেনদেন হয়েছে। এর মধ্যে দর বেড়েছে ৯১টি কোম্পানির। আর দর কমেছে ১৭৯টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ২২টির। এগুলোর ওপর ভর করে বিদায়ী সপ্তাহে ৪৩৬ কোটি ৫৯ লাখ ৬ হাজার ২২৬ টাকার শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে।

শেয়ারবাজারনিউজ/মু

আপনার মন্তব্য

*

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Top