জাঙ্ক শেয়ারে পুঁজি হারানোর শঙ্কায় বিনিয়োগকারীরা

শেয়ারবাজার রিপোর্ট: ভালো মৌলভিত্তির কোম্পানিগুলোর শেয়ার দর তলানিতে থাকলেও মাথা চাড়া দিয়ে রয়েছে জাঙ্ক শেয়ার। অনুমোদিত মূলধন বাড়ানোর সিদ্ধান্তে বড় ধরণের স্টক ডিভিডেন্ড আসবে, মালিকানা পরিবর্তন হবে ইত্যাদি গুজব ছড়িয়ে বর্তমানে জাঙ্ক শেয়ারগুলো আকাশচুম্বী অবস্থায় রয়েছে। মুন্নু জুট স্ট্যাফলার্স, মুন্নু সিরামিকস, ফার্মা এইড, বিডি অটোকার্স, মডার্ন ডাইং, ইমাম বাটন, লিবরা ইনফিউনের মতো কিছু কোম্পানির মাত্রাতিরিক্ত ঝুঁকিপূর্ণ তালিকায় থাকা সত্ত্বেও এগুলোর দর কৃত্রিমভাবে বাড়ানো হচ্ছে। এ ব্যাপারে নিয়ন্ত্রক সংস্থাও নিরব ভূমিকা পালন করছে।

কিন্তু এসব জাঙ্ক শেয়ারের কবলে পড়ে পুঁজি হারানো শঙ্কায় রয়েছেন বিনিয়োগকারীরা। কারণ কারসাজি চক্র এসব শেয়ার সাধারণ বিনিয়োগকারীদের ধরিয়ে দিয়েই নিজেরা খালাস হয়ে যাবেন। খবর পাওয়া গেছে, এসব শেয়ারে কারসাজি করার পেছনে কিছু সিকিউরিটিজ হাউজ, মার্চেন্ট ব্যাংকের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাও জড়িত।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, আগে ২০০-২৫০ কোটি টাকা লেনদেনের লেবেলে যখন পুঁজিবাজার ছিলো তখন ছোটো খাটো দু-একটি জাঙ্ক শেয়ার বাড়তো। কিন্তু এখন ৭০০ কোটি টাকা ট্রেডে এভাবে জাঙ্ক শেয়ার দর বৃদ্ধি পাওয়া অশনি সংকেত।

জানা যায়, মুন্নু সিরামিকসের শেয়ার দর গত তিন মাস আগে ছিলো ১৪০ টাকা। সেখানে বর্তমানে ৩০০ টাকার ওপরে লেনদেন হচ্ছে। মুন্নু জুট স্ট্যাফলার্স এর শেয়ার দর ৮০০ টাকা থেকে সাড়ে ৩ হাজার টাকায় চলে যাচ্ছে। বিডি অটোকার্স এর শেয়ার দর ১০০ টাকা থেকে ৪০০ টাকার দিকে অগ্রসর হচ্ছে। মডার্ন ডাইং , ফার্মা এইড, ইমাম বাটন, লিবরা ইনফিউনের মতো স্বল্প মূলধনী জাঙ্ক শেয়ারগুলো মাথা চাড়া উঠেছে।

এতে বিনিয়োগকারী ও অনেক হাউজও ক্ষতির মুখে পড়ার আশঙ্কা বিরাজ করছে। ভালো শেয়ারগুলোর দর না বাড়ায় এভারেজ অনেক লস হবে প্রতিটি হাউজের। এদিকে এগুলোর দর বাড়িয়ে বিনিয়োগকারীদের ফোকাস এদিকে রেখে অন্যদিকে ভালো মৌলভিত্তির শেয়ার নিজেদের কাছে গুছিয়ে নিচ্ছে এক শ্রেণীর বিনিয়োগকারী।

বাজার সংশ্লিষ্টরা বলছেন, এগুলোর শেয়ার দর এতো বেড়েছে যে যেকোনো সময় নিয়ন্ত্রক সংস্থার তদন্ত কমিটি বসবে। তখন পাবলিকের লোকসান ছাড়া কোনো গতি থাকবে না। তাই এসব জাঙ্ক শেয়ার থেকে দূরে থাকার পরামর্শ দিচ্ছেন বিশেষজ্ঞরা।

 

শেয়ারবাজারনিউজ/ম.সা

 

আপনার মন্তব্য

*

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Top