৬ শতাংশ সুদে সরকারি আমানত পাবে বেসরকারি ব্যাংক

শেয়ারবাজার রিপোর্ট: রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংক ও প্রতিষ্ঠানগুলো বেসরকারি ব্যাংকে আমানত রাখবে ৬ শতাংশ সুদে। সোমবার ২ জুলাই তফসিলি ব্যাংকগুলোর ব্যবস্থাপনা পরিচালকদের (এমডি) নিয়ে বৈঠক করে বাংলাদেশ ব্যাংকের পক্ষ থেকে এ তথ্য জানানো হয়েছে। বৈঠকে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের গভর্নর ফজলে কবিরের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত বৈঠকে সব ব্যাংকের এমডি, বাংলাদেশ ব্যাংকের ডেপুটি গভর্নরসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

বৈঠক শেষে বাংলাদেশ ব্যাংকের ডেপুটি গভর্নর আবু হেনা মোহা. রাজী হাসান সাংবাদিকদের বলেন, ঋণের এক অংকের সুদহার কার্যকর করতে কারো কোনো দ্বিমত নেই। এ ব্যাপারে সবাই ঐক্যবদ্ধ। কিছু ব্যাংক পরিচালনা পর্ষদের সভায় এরই মধ্যে চূড়ান্ত করেছে। আর যেসব ব্যাংক এখনো চূড়ান্ত করেনি, তারাও চলতি সপ্তাহেই পরিচালনা পর্ষদের সভায় এটি চূড়ান্ত করবে।

বৈঠক শেষে রাষ্ট্রায়ত্ত সোনালী ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো. ওবায়েদ উল্লাহ আল মাসুদ সাংবাদিকদের বলেন, রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংকগুলো থেকে বেসরকারি ব্যাংক ৬ শতাংশ হারে আমানত পাবে। এ ব্যাপারে সোমবার সভায় সিদ্ধান্ত হয়েছে।

সূত্রমতে, ঋণের সুদহারের নৈরাজ্য সামাল দিতে বেসরকারি ব্যাংকগুলো স্বল্প সুদে সরকারি আমানতের নিশ্চয়তা চাচ্ছিল। গত ২৫ জুন ব্যাংক নির্বাহীদের সংগঠন অ্যাসোসিয়েশন অব ব্যাংকার্স বাংলাদেশের (এবিবি) নেতারা গভর্নরের সঙ্গে বৈঠক করে এ ব্যাপারে নিশ্চয়তা চান। এরপর গভর্নর রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংকগুলোর পরিচালনা পর্ষদের চেয়ারম্যানদের সঙ্গে বিষয়টি নিয়ে কথা বলেন। এর পরই রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংকগুলোর প্রধান নির্বাহীরা ৬ শতাংশ সুদে বেসরকারি ব্যাংকে আমানত রাখতে সায় দিলেন।

বৈঠক শেষে এবিবি চেয়ারম্যান সৈয়দ মাহবুবুর রহমান সাংবাদিকদের বলেন, বাংলাদেশ ব্যাংক চায় ঋণের সুদহার এক অংকে নেমে আসুক। এটি কীভাবে কার্যকর করব, সে সিদ্ধান্ত আমাদের নিতে বলেছে। তবে এটি কার্যকর করতে গিয়ে যাতে কোনো নৈরাজ্য বা অসুস্থ প্রতিযোগিতা তৈরি না হয়, সেদিকে সজাগ থাকতে বলেছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। এটি সুন্দরভাবে দায়িত্ব নিয়ে কার্যকর করতে হবে।

তিনি বলেন, বাংলাদেশ ব্যাংক নীতিসহায়তা দিতে প্রস্তুত। এজন্য যদি ঋণ আমানতের নির্ধারিত হারে কিছুটা ছাড় যদি দিতে হয় বাংলাদেশ ব্যাংক দেবে, যাতে কোনো ব্যাংককে শাস্তি বা জরিমানা না করা হয়। কেন্দ্রীয় ব্যাংক এটি বিবেচনার আশ্বাস দিয়েছে।

 

 

শেয়ারবাজারনিউজ/ম.সা

আপনার মন্তব্য

Top