আস্থার সংকটে শেয়ারবাজার ছাড়ছেন বিদেশীরা

শেয়ারবাজার রিপোর্ট: দেশের আসন্ন জাতীয় নির্বাচন ও ডলারের বিপরীতে টাকার মূল্যমান কমে যাওয়ায় শেয়ারবাজারে থেকে বিদেশী বিনিয়োগকারীদের আস্থা দিনে দিনে কমে যাচ্ছে। শেয়ারবাজারে বিদেশীদের গত ৫ মাস ধরে শেয়ার ক্রয়ের চেয়ে শেয়ার বিক্রয় করতে বেশি দেখা গেছে। অর্থাৎ বলতে গেলে আস্থার সংকটে শেয়ারবাজার ছেড়ে বেড়িয়ে যাচ্ছে বিদেশীরা। ঢাকা স্টক একচেঞ্জে (ডিএসই) গত ৪ মাসের ন্যায় আগষ্ট মাসেও বিদেশি বিনিয়োগকারীরা শেয়ার ক্রয়ের চেয়ে বিক্রয় করছেন বেশি। এর ফলে গত মাসে বিদেশিদের শেয়ার লেনদেন কমেছে প্রায় ৫০০ কোটি টাকা।

ডিএসই’র তথ্যানুযায়ী, আগষ্ট মাসে বিদেশিদের মোট লেনদেন হয়েছে ৩৫৭ কোটি ৭৮ লাখ ৩০ হাজার ৬০৭ টাকা। এর আগের মাসে অর্থাৎ জুলাই মাসে লেনদেন হয়েছিলো ৮৫৬ কোটি ৭৯ লাখ ২ হাজার ২৬৪ টাকা। সে হিসেবে জুলাই মাসের তুলনায় আগষ্টে বিদেশি লেনদেন কমেছে ৪৯৯ কোটি ৭১ হাজার ৬৫৭ টাকা।

গত মাসে বিদেশিরা শেয়ার কিনেছেন ১৭৬ কোটি ১ লাখ ৮০ হাজার ১৮৪ টাকার। তার বিপরীতে বিক্রি করেছেন ১৮১ কোটি ৭৬ লাখ ৫০ হাজার ৪২৩ টাকার শেয়ার। এর আগের মাস জুলাইয়ে বিদেশিরা শেয়ার কিনেছেন ৪১২ কোটি ৪ লাখ ১৯ হাজার ৪৫১ টাকার আর বিক্রি করেছেন ৪৪৪ কোটি ৭৪ লাখ ৮২ হাজার ৮১৩ টাকার শেয়ার।

শেয়ার কেনার চেয়ে বিক্রি বেড়ে যাওয়ায় চলতি বছরের জুলাই চেয়ে আগষ্ট মাসে বিনিয়োগকারীদের নিট বিনিয়োগ ২৬ কোটি ৯৫ লাখ ৯৩ হাজার ১২৩ টাকা কমে দাঁড়িয়েছে ৫ কোটি ৭৪ লাখ ৭০ হাজার ২৩৯ টাকায়। এর আগের মাস জুলাইয়ে নিট বিনিয়োগ হয়েছিলো ৩২ কোটি ৭০ লাখ ৬৩ হাজার ৩৬২ টাকা।

শুধু জুলাই মাস নয়, গত ৪ মাস ধরেই বিদেশিদের লেনদেন ধারাবাহিকভাবে কমছে। গত এপ্রিল মাসের চেয়েও লেনদেন কমেছে চলতি বছরের আগষ্ট মাসে। এপ্রিল মাসে বিদেশিদের মোট লেনদেন হয়েছিলো যেখানে ১ হাজার ৩০ কোটি ৭৪ লাখ ৫১ হাজার ৩৪৪ টাকা। সেখানে আগষ্ট মাসে এসে বিদেশি বিনিয়োগ দাঁড়িয়েছে ৩৫৭ কোটি ৭৮ লাখ ৩০ হাজার ৬০৭ টাকায়। সে হিসেবে গত ৫ মাসের তুলানায় বিদেশি বিনিয়োগ কমেছে ৬৭২ কোটি ৯৬ লাখ ২০ হাজার ৭৩৭ টাকা। আর এর বড় কারণ হিসেবে দেশের জাতীয় নির্বাচন ও ডলারের বিপরীতে টাকার মূল্যমান কমে যাওয়া বিষয়কে বিদেশিদের শেয়ার বিক্রির অন্যতম প্রধান কারণ বলে মনে করছেন বিভিন্ন বাজার সংশ্লিষ্টরা।

তারা বলেন, বিদেশি বিনিয়োগকারীরা খুবই সচেতন। বিদেশিরা সব সময় ঝামেলা এড়িয়ে চলেন। বাজারে বিনিয়োগের আগে তারা অনেক দিক বিশ্লেষণ করে বিনিয়োগ করেন। বর্তমানে দেশের পরিস্থিতি ও বাংলাদেশ ব্যাংকের গৃহীত বিভিন্ন পদক্ষেপের উপর নজর রেখে বিদেশিরা বিনিয়োগ করছেন।

তারা আরো বলেন, ডলারের ক্রমবর্ধমান বিনিময় হার বিদেশিদের সাম্প্রতিক বিনিয়োগ প্রত্যাহারের একটি বড় কারণ। বিদেশিরা আগে এক ডলার বেচে ৮০ টাকায় শেয়ার কিনেছিলেন। এখন তাদের এক ডলার কিনতে খরচ হচ্ছে ৮৪ টাকা থেকে ৮৪.৫০ টাকায়। ফলে বিনিময় হারেই তাদের লোকসান হচ্ছে। এছাড়াও আগামী নির্বাচনকে সামনে রেখে দেশের রাজনৈতিক অবস্থা বিবেচনা করে বিনিয়োগ করছেন বিদেশিরা। কেউ কেউ বাজার থেকে চলে যাচ্ছেন। তবে তারা আশা করছেন নির্বাচনের পর নতুন বিনিয়োগ বাড়বে।

শেয়ারবাজারনিউজ/এম.আর

আপনার মন্তব্য

*

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Top