আজ: রবিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১ইং, ৪ঠা আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১০ই সফর, ১৪৪৩ হিজরি

সর্বশেষ আপডেট:

২৮ নভেম্বর ২০১৮, বুধবার |



kidarkar

মনোনয়নপত্র জমা বিকাল ৫টা পর্যন্ত, মানতে হবে যেসব নির্দেশনা

শেয়ারবাজার ডেস্ক: একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে প্রার্থীদের মনোনয়নপত্র সারা দেশে ৩০০ রিটার্নিং ও ৫৮১ সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তার দফতরে আজ বুধবার বিকাল ৫টা পর্যন্ত মনোনয়নপত্র জমা দেয়া যাবে। এ নির্বাচনে কেউ প্রার্থী হতে চাইলে তাকে বিকেল ৫টার মধ্যে সংশ্লিষ্ট রিটার্নিং বা সহকারী রিটার্নিং অফিসারের কাছে মনোনয়নপত্র জমা দিতে হবে। কারণ আজকেই মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ দিন।

এদিন কেউ চাইলে এ সময়ের মধ্যে তার মনোনয়নপত্র অনলাইনের মাধ্যমেও জমা দিতে পারবেন বলে জানিয়েছেন নির্বাচন কমিশনের (ইসি) যুগ্ম-সচিব (জনসংযোগ) এসএম আসাদুজ্জামান।

মনোনয়নপত্র দাখিলের বিষয়ে ইসি সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ জানান, মনোনয়নপত্র দাখিলের সময় শোডাউন কিংবা মিছিল করা যাবে না। এ সময় প্রার্থীর সঙ্গে রিটার্নিং, সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তার কার্যালয়ে সর্বোচ্চ ৫ থেকে ৭ জন যেতে পারবেন। এর বেশি গেলে তা নির্বাচনী আচরণ বিধি লঙ্ঘন হবে।

পাশাপাশি বর্তমন এমপি-মন্ত্রীদের গাড়ির পতাকা নিয়ে যাওযা যাবে না। ব্যক্তিগত গাড়ি নিয়ে যেতে হবে। এমনকি গাড়িতে সংসদ সদস্য লেখা স্টিকারও রাখা যাবে না বলেও জানান সচিব।

এরই মধ্যে কয়েক দিন ধরেই ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন আসনের প্রার্থীরা নমিনেশন পেপার সংগ্রহ ও জমা দিচ্ছেন। মঙ্গলবার (২৭ নভেম্বর) গোপালগঞ্জ-৩ ও রংপুর-৬ আসনে আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মনোনয়নপত্র জমা দেয়া হয়।

জানা গেছে, মঙ্গলবার ঢাকার দুই রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছে জমা পড়েছে ৪১টি। বাকিরা আজ শেষ দিনেই জমা দেবেন।

এদিকে, মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ দিনকে সামনে রেখে প্রার্থীদের জন্য কিছু করণীয় সম্পর্কে নির্দেশনা জারি করেছে ইসি।

ইসির নিদের্শনায় বলা হয়েছে, মনোনয়নপত্র সংগ্রহ ও জমা দেয়ার সময় প্রার্থী বা তার পক্ষে শোডাউন করা যাবে না। প্রার্থী বা তার পক্ষে ৫ জনের বেশি লোক রিটার্নিং অফিসারের কার্যালয়ে ভিড় করতে পারবেন না। নির্বাচন সামনে রেখে কোনো প্রার্থী জনসভা, মিছিল, মিটিং করতে পারবেন না।

ইসির নিদের্শনায় আরও বলা হয়, কেবল পথসভা করতে পারবেন। প্রার্থীদের পোস্টার হতে হবে সাদা-কালো। প্রতিটি পোস্টারের নিচে পোস্টারের সংখ্যা, প্রেসের ঠিকানা, প্রকাশকের নাম দেয়া বাধ্যতামূলক। না হলে সেসব পোস্টার নির্বাচন কমিশনের কাছে অবৈধ বলে বিবেচিত হবে। পোস্টারের সাইজ হতে পারবে সর্বোচ্চ ২৩ ইঞ্চি বাই ১৮ ইঞ্চি।

নিদের্শনায় আরও বলা, সংশ্লিষ্ট নির্বাচনী এলাকার ভোটার নন, এমন কাউকে পোলিং এজেন্ট করা যাবে না। নির্বাচনের ২৪ ঘণ্টা আগে পোলিং এজেন্টদের দুই কপি ছবি এবং নামের তালিকা রিটার্নিং অফিসারের কাছে জমা দিতে হবে। প্রার্থী হতে ২০ হাজার টাকা জামানত দিতে হবে। নগদ টাকায় জামানত নেয়া হবে না। পে-অর্ডার বা ট্রেজারি চালানের মাধ্যমে রিটার্নিং অফিসারের অনুকূলে এ টাকা জমা দিতে হবে।

আসন্ন এ নির্বাচনে মনোনয়নপত্র জমা দেয়ার সময় হলফনামা আকারে ৮টি তথ্য দিতে হবে। ব্যয়ের উৎসের বিবরণী, আয়কর রিটার্নের কপি জমা দিতে হবে। মনোনয়ন ফরমে কোনো ভুল হলে প্রার্থিতা বাতিল হবে। তাই সম্ভাব্য প্রার্থীকে সতর্কতার সঙ্গে মনোনয়নপত্র পূরণ করতে হবে। মনোনয়ন দাখিলের আগে প্রার্থীকে অবশ্যই যেকোনো তফসিলি ব্যাংকে নতুন হিসাব খুলতে হবে। নির্বাচনের সমুদয় ব্যয় এ একাউন্ট থেকেই করতে হবে। এই একাউন্টের নম্বর, ব্যাংক ও শাখার নাম মনোনয়নপত্রে উল্লেখ করতে হবে।

বলা হয়েছে, নির্বাচনের ফলের গেজেট প্রকাশের ৩০ দিনের মধ্যে প্রার্থীদের নির্বাচনী ব্যয়ের হিসাব রিটার্নিং অফিসার এবং কমিশনে জমা দিতে হবে। এ ছাড়া ব্যক্তিগত খরচের হিসাব ফল প্রকাশের ৭ দিনের মধ্যে কমিশনে জমা দিতে হবে। প্রতীক বরাদ্দের আগে কোনো প্রচার কাজ চালানো যাবে না।

অন্যদিকে, কোন প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বাতিল বা গ্রহণের বিরুদ্ধে আপিল করা যাবে। লিখিত ছাড়া কোন এজেন্টের অভিযোগ আমলে নেবে না কমিশন। কোন ভোটার ব্যালট পেপার ব্যালট বাক্সে না ফেলে বাইরে নিয়ে এলে কমিশন তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেবে।

এ ছাড়া, অন্য কোনোভাবে কোনো ব্যালট পেপার বাইরে চলে এলে ওই ব্যালট পেপার যে প্রদর্শন করবেন কমিশন তার বিরুদ্ধেই ব্যবস্থা নেবে।

তফসিল অনুযায়ী ২৮ নভেম্বর মনোনয়নপত্র জমা দেয়ার শেষ দিন। ২ ডিসেম্বর হবে মনোনয়ন বাছাই। প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ সময় ৯ ডিসেম্বর। ভোটগ্রহণ ৩০ ডিসেম্বর।

শেয়ারবাজারনিউজ/মু

আপনার মতামত দিন

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.