হচ্ছে ‘নাশকতা প্রতিরোধ কমিটি’: নাসিম

images নাসিমশেয়ারবাজার রিপোর্ট: অবরোধের নামে সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডে জড়িতদের আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর হাতে তুলে দিতে সারা দেশে পাড়া-মহল্লায় ‘নাশকতা প্রতিরোধ কমিটি’ করার ঘোষণা দিয়েছে কেন্দ্রীয় ১৪ দল। মঙ্গলবার দুপুরে রাজধানীর ধানমন্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার রাজনৈতিক কার্যালয়ে বৈঠক শেষে এক সংবাদ সম্মেলনে এ ঘোষণা দেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও কেন্দ্রীয় ১৪ দলের মুখপাত্র মোহাম্মদ নাসিম। খবর বাসস।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রীর ঘোষণা অনুযায়ী রাজধানী ঢাকাসহ সারা দেশে সন্ত্রাস প্রতিরোধ কমিটি গঠন করা হবে। এই কমিটি জনগণকে সকল নৈরাজ্যকারীদের বিরুদ্ধে সচেতন করতে উদ্বুদ্ধ করবে। কমিটির সদস্যরা আইন শৃঙ্খলা বাহিনীকে সহযোগিতা করবে। সকল সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড মোকাবিলায় আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে আরও কঠোর হওয়ার আহ্বান জানিয়ে  নাসিম বলেন, নৈরাজ্য সৃষ্টিকারীদের এক বিন্দু ছাড় দেওয়া যাবে না। সন্ত্রাসীদের ছাড় দেবার কোন প্রশ্নই আসে না। অবরোধের নামে চোরাগোপ্তা হামলার জন্য বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে দায়ী করে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, ‘চোরাগোপ্তা হামলার জন্য উনি দায়ী। তার নির্দেশেই এই হামলা চালাচ্ছে জামায়াত-শিবিরের সন্ত্রাসীরা। এই সন্ত্রাসীদের টাকা দিয়ে মাঠে নামানো হয়েছে। তিনি জীবন্ত মানুষকে পুড়িয়ে মারছেন।’

অবরোধ-হরতালের মতো ধ্বংসাত্বক কর্মসূচি দিয়ে যারা দেশের ক্ষতি করছে তাদের কোনো গণতান্ত্রিক অধিকার থাকতে পারে না জানিয়ে নাসিম বলেন, বিএনপিকে বলব, সন্ত্রাস বাদ দেন। মিথ্যাচারের ভাঙা ক্যাসেট বাজানো বাদ দেন। আমরা প্রশাসনকে আরও কঠোর হতে বলব। সন্ত্রাসীদের আরও কঠোরভাবে মোকাবিলা করতে হবে। তিনি বলেন, দেশ স্বাভাবিক রয়েছে, কিন্তু মানুষের মধ্যে কিছুটা আতঙ্ক বিরাজ করছে। সন্ত্রাসীদের কোনো দল নেই। খালেদার সৈনিকরা তো মাঠে নেই। কিন্তু তার সন্ত্রাসীরা মাঠে রয়েছে। এর আগে কমিউনিস্ট কেন্দ্রের আহবায়ক ডা. ওয়াজেদুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত বৈঠকে ১৪ দলের নেতারা অংশ নেন।

আপনার মন্তব্য

Top