মিক্সড অ্যালবামে গান নিয়ে আসছেন চার ইউটিউবার

শেয়ারবাজার ডেস্ক: সাম্প্রতিক সময়ে সংগীতাঙ্গনে যেমন এসেছে বিরাট পরিবর্তন তেমনি গান শোনার মাধ্যমেও এসেছে আমুল পরিবর্তন। অনেকেই যেটাকে বলছেন ‘ডিজিটাল গানের যুগ’। কিন্তু একটা সময় ক্যাসেট প্লেয়ারে কিংবা সিডি প্লেয়ারে গান শোনার বিষয়টি শ্রোতাদের মনে এক অন্যরকম দাগ কেটে ছিল। যুগের পরিবর্তনে ক্যাসেট প্লেয়ারের পরে এলো সিডি প্লেয়ারের যুগ। কালের গর্ভে হারিয়ে যায় ক্যাসেট। বছর কয়েক চলার পর সেই সিডি প্লেয়ারের যুগটাও জায়গা করে নিল ইতিহাসের পাতায়। যুগের সাথে তাল মিলিয়ে শুরু হলো অনলাইনে গানের প্রকাশনা।

বর্তমানে ক্যাসেট বা সিডিকে ছাড়িয়ে এক বিশাল জায়গা করে নিয়েছে অনলাইনের যুগ। এই যুগে আর ফিতা কিংবা সিডিতে গান প্রকাশ হয় না, হয় অনলাইনে। ইউটিউব, ওয়েবসাইট কিংবা ফেসবুকের মাধ্যমে শ্রোতারা যেকোনো সময় যে কোন স্থান থেকে খুব সহজেই উপভোগ করতে পারছেন সেইসব গান। সেইসাথে মুঠোফোনের অ্যাপ্লিকেশন এর কারণে আরও বদলে যাচ্ছে শ্রোতাদের গান শোনার অভ্যাস।

এই অনলাইনের যুগে আসছে ঈদে এবার ঈদে প্রকাশ হতে যাচ্ছে গানের নতুন একটি অ্যালবাম। অ্যালবামের নাম ‘দ্য ইন্ডাস্ট্রি ভলিউম টু’। এই অ্যালবামে জনপ্রিয় অনেক শিল্পীদের গান থাকছে। তাদের পাশাপাশি এই অ্যালবামে গান নিয়ে আসছেন চার বন্ধু তামিম মৃধা,সালমান মুক্তাদির, সৌভিক আহমেদ এবং সৌমিক আহমেদ। বন্ধু পরিচয়ের বাইরেও তাদের একাধিক পরিচয় রয়েছে। তারা চারজনই একাধারে ইউটিউবার, গায়ক,মডেল ও অভিনেতা। ঈদকে সামনে রেখে তারা নতুন একটি গান নিয়ে হাজির হচ্ছেন শ্রোতাদের সামনে। গানের শিরোনাম ‘অন্য কেউ’। সবার সম্মিলিত প্রয়াসেই গানের কথা,সুর ও সঙ্গীতায়োজন করেন সালমান মুক্তাদির। আর সেই গানে একসাথে কন্ঠ দিয়েছেন চার বন্ধু তামিম,সালমান,সৌভিক এবং সৌমিক।

গেল দশ বছর আগে উচ্চমাধ্যমিকে পড়ার সময় তারা এই গানের ডেমো কাজটি করেছিলেন। পড়ে অনেকটা সময় পার হয়ে গেলেও গানটিকে নতুন করে প্রকাশ করা হয়ে উঠেনি। আর তাই এবার নতুন করে এই গানটিতে গেল বৃহস্পতিবার কন্ঠ দেন এই চার ইউটিউবার।

গানটি প্রসঙ্গে তামিম মৃধা বলেন, দশ কিংবা এগারো বছর আগের একটা গান ‘অন্য কেউ’। আমরা স্কুলে পড়ার সময় সবাই মিলে গানটি করেছিলাম কিন্তু তখন এটাকে প্রকাশ করার মত সুযোগ ছিল না। এরপর আমরা যখন ইউটিউবিং শুরু করলাম তখনও করবো করবো বলে করা হয়নি। এবার সবকিছু ব্যাটে বলে মিলে গেল তাই ‘দ্য ইন্ডাস্ট্রি ভলিউম টু’ অ্যালবামে গানটি দিয়েছি। নতুন করে গানটি রেকর্ড করেছি। শৈশব পেড়িয়ে কৈশোরের মধুময় স্মৃতি নিয়েই গানটি লেখা। আমরা সবাই খুবই এক্সাইটেড গানটি নিয়ে। কারণ এই গানটা আমাদের সবার খুবই পছন্দের।

সৌভিক আহমেদ বলেন, আমরা যখন স্কুল লাইফে ছিলাম তখন গানটি করা কিন্তু সেটি আর প্রকাশ করা হয়নি। এখন যেহেতু ‘দ্য ইন্ডাস্ট্রি’ এর ভলিউম টু আসছে তাই এটার মাধ্যমে গানটাকে আমরা প্রকাশ করতে যাচ্ছি। খুবই সুন্দর একটা রোমান্টিক গান। সেই সময়টাকে ঘিরে কৈশোর নিয়েই গানটি করা। আশা করছি ভালো কিছু একটা হতে যাচ্ছে।

সৌমিক আহমেদ বলেন, স্কুল লাইফ থেকেই আমরা গান করতাম কিন্তু সেটি আন্ডারগ্রাউন্ডে। আমাদের চারজনের একটা ব্যান্ড ছিল যেটা থেকে আমরা ছোটখাটো কনসার্টে গান করতাম। তখন অনেকগুলো গানের মধ্যে আমাদের সবার এই গানটা খুব পছন্দের ছিল। তখন আমরা এই গানটা করেছিলাম ডেমো আকারে। সেটিকেই এখন নতুন করে আমরা রেকর্ড করেছি। অ্যালবামে প্রকাশ করতে যাচ্ছি। আমরা যখন ইউটিউবিং শুরু করলাম তখনও অনেকবার ভেবেছি যে গানটি ভিডিও করে ছাড়বো কিন্তু সেটা হয়নি। আমরা কখনও সিরিয়াস গান করিনি, এটা সিরিয়াস মুডের একড়া গান ছিল। আর ইউটিউবের জন্য তো আমরা বাস্তব জীবন থেকে বিভিন্ন বিষয় নিয়ে গান করেছি।

গানের অডিও ঈদের আগেই প্রকাশ করা হবে তবে এটির মিউজিক ভিডিও নির্মিত হতে পারে বলে জানান তামিম মৃধা। আর অ্যালবামটি কোন লেবেল থেকে প্রকাশ করা হবে তা শিগগিরই জানিয়ে দেওয়া হবে।

উল্লেখ্য,বাংলাদেশের প্রথম ইউটিউবার সালমান মুক্তাদির। তার ‘সালমান-দ্য ব্রাউন ফিশ’ চ্যানেল দিয়েই চার বন্ধুর ইউটিউবের শুরু হয়। এরপর তামিম এবং সৌভিক মিলে ‘গান ফ্রেন্ডজ’ চ্যানেল খুলেন। সেখান থেকেই তারা নিয়মিত গান ও নানান ভিডিও প্রকাশ করতেন। আর এর পাশাপাশি মডেলিং ও অভিনয় নিয়ে নিজেদের ব্যস্ততা তো রয়েছেই।

শেয়ারবাজারনিউজ/মু

আপনার মন্তব্য

Top