পরিচালকদের সম্মিলিতভাবে ৩০ শতাংশ শেয়ার ধারণ: ৪২ কোম্পানিকে ২ মাসের আল্টিমেটাম বিএসইসির

শেয়ারবাজার রিপোর্ট: শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত ৪২ কোম্পানির উদ্যোক্তা ও পরিচালকদের সম্মিলিতভাবে ৩০ শতাংশ (পরিশোধিত মূলধনের) শেয়ার ধারণের জন্য আগামী ৬০ দিনের (২ মাস) আল্টিমেটাম দিয়েছে নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)। বিএসইসি সূত্রে এ তথ্য জানা যায়।

সূত্র মতে, নির্ধারিত এ সময়ের মধ্যে কোম্পানিগুলো ৩০ শতাংশ শেয়ার ধারণের ঘাটতি পূরণে ব্যর্থ হলো, তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

বুধবার (২৯জুলাই) ৩০ শতাংশ শেয়ার ধারণে ব্যর্থ ৪২ কোম্পোনিকে আল্টিমেটাম দিয়ে চিঠি দেওয়া হয়েছে।

নির্দেশনা অনুযায়ী, আগামী ১৫ দিনের মধ্যে শেয়ার ধারণের কার্যক্রম শুরু করার ঘোষণা দিতে হবে। আর ৬০ দিনের মধ্যে ওই কোম্পানির উদ্যোক্তা ও পরিচালকদের সম্মিলিতভাবে ৩০ শতাংশ শেয়ার ধারণ সম্পন্ন করতে হবে।

২০১১ সালের ২২ ডিসেম্বর বাজার ও বিনিয়োগকারীদের স্বার্থ বিবেচনা করে তালিকাভুক্ত কোম্পানির প্রত্যেক পরিচালককে ন্যূনতম ২ শতাংশ ও সম্মিলিতভাবে ৩০ শতাংশ শেয়ার ধারণ বাধ্যতামূলক করে নির্দেশনা দেয় তত্কালীন কমিশন।

বিএসইসির আইনের ‘২সিসি’ ধারার ক্ষমতাবলে সম্মিলিতভাবে ৩০ শতাংশ শেয়ার ধারণের এ নির্দেশনা জারি করা হয়। তবে শুরুতে এই নির্দেশনাটি নিয়ে কয়েকটি কোম্পানির পরিচালক হাইকোর্টে রিট করেছিলেন। তবে বিনিয়োগকারীদের স্বার্থ বিবেচনা করে বিএসইসির নির্দেশনাটির পক্ষে রায় দেন হাইকোর্ট।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক বিএসইসির এক ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা শেয়ারবাজার নিউজকে বলেন, পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত যেসব কোম্পানির উদ্যোক্তা ও পরিচালকদের সম্মিলিতভাবে ৩০ শতাংশ শেয়ারও নেই তাদেরকে ৬০ দিন সময় দেয়া হচ্ছে। এ সময়ের মধ্যে তারা নির্ধারিত শেয়ার ধারণে ব্যর্থ হলে, আইনানুযায়ী ব্যবস্থা নেয়া হবে।

শেয়ারবাজার নিউজ/এন

আপনার মন্তব্য

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Top