কৃষি ঋণ বিভাগ খোলার নির্দেশ কেন্দ্রীয় ব্যাংকের

bangladeshbankশেয়ারবাজার রিপোর্ট: দেশের সব তফসিলি ও বিশেষায়ত্ব ব্যাংকের প্রধান কার্যালয়ে আলাদা কৃষি ঋণ বিভাগ খোলার নির্দেশ দিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক। এর জন্য প্রয়োজনীয় জনবল নিয়োগ দেয়ার নির্দেশনাও দেয়া হয়েছে। পাশাপাশি দেশে কার্যরত ব্যাংকগুলোর শাখাগুলোতেও কৃষি ঋণ সংক্রান্ত দায়িত্বপালনের জন্য অন্তত একজন কর্মকর্তা নিয়োগ দিতে হবে।

আজ ব্যাংকগুলোর প্রধান নির্বাহীদের কাছে পাঠানো এক সার্কুলারে আগামি ২০ জুলাইয়ের মধ্যে এ বিভাগ খোলা সংক্রান্ত যাবতীয় কাজ শেষ করে কেন্দ্রীয় ব্যাংককে জানাতে বলা হয়েছে।

‘পৃথক কৃষি ঋণ বিভাগ/সেল গঠন’ সংক্রান্ত ওই সার্কুলারে বলা হয়, অর্থনীতিতে কৃষির অবদান বিবেচনায় কৃষি ঋণ বিতরণ, আদায় এবং সংশ্লিষ্ট কার্যক্রমের নিবিড় পর্যবেক্ষণ ও তদারকি জোরদার করা প্রয়োজন। এ লক্ষ্যে পৃথক সেল গঠনের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।
এজন্য ব্যাংকের প্রধান কার্যালয়ে কৃষি ঋণ সংশ্লিষ্ট কাজের জন্য পৃথক কৃষি ঋণ বিভাগ/সেল গঠনপূর্বক প্রয়োজনীয় লোকবল পদায়ন এবং শাখা পর্যায়ে ন্যূনতম একজন কর্মকর্তাকে কৃষি ঋণ সংশ্লিষ্ট কাজের জন্য সুনির্দিষ্টভাবে দায়িত্ব দিতে হবে।
রাষ্ট্রায়ত্ত তিন ব্যাংক সোনালী, জনতা এবং অগ্রণী ব্যাংকে এ ধরনের আলাদা বিভাগ আছে। কৃষি ব্যাংক এবং রাজশাহী কৃষি উন্নয়ন ব্যাংক কৃষি নিয়েই তাদের কার্যক্রম পরিচালনা করে থাকে।

সার্কুলারে আগামী ৭ জুলাইয়ের মধ্যে কৃষি সেল বা বিভাগ খোলা সংক্রান্ত কার্যক্রম সম্পন্ন করে বাংলাদেশ ব্যাংকের কৃষি ঋণ ও আর্থিক সেবাভুক্তি বিভাগকে অবহিত করতে বলা হয়েছে।
ওই বিভাগ/কর্মকর্তা কৃষি ঋণ সংশ্লিষ্ট কাজ (যেমন- গ্রাহক নির্বাচন, ঋণ প্রস্তাব তৈরিকরণ, মূল্যায়ন, মঞ্জুরি, তদারকি করা, ঋণ বিতরণ, আদায়, জেলা/উপজেলা কৃষি ঋণ কমিটির সভা ও অন্যান্য সভায় অংশগ্রহণ, কৃষকের সঙ্গে সভায় অংশগ্রহণ, ঋণ খেলাপি হওয়ার পূর্বেই তদারকি জোরদারকরণ) ইত্যাদি কার্যক্রমে সক্রিয়ভাবে অংশগ্রহণ করবে।

বর্তমানে দেশে ৩৯টি বেসরকারি ও ৯টি বিদেশি ব্যাংক কার্যক্রম পরিচালনা করছে।

বিদায়ী ২০১৪-১৫ অর্থবছরে ১৫ হাজার ৫৫০ কোটি টাকা কৃষি ঋণ বিতরণের লক্ষ্য বেধে দিয়েছিল কেন্দ্রীয় ব্যাংক। গত ২০১৩-১৪ অর্থবছরে যার পরিমাণ ছিল ১৪ হাজার ৫৯৫ কোটি টাকা।

ইতোমধ্যে কৃষি ঋণ পাওয়ার ক্ষেত্রে হয়রানি এড়াতে কৃষকদের জন্য ১০ টাকায় ব্যাংক হিসাব খোলার সুযোগ করে দেওয়া হয়েছে।

বাংলাদেশ ব্যাংক কৃষকদের এই ১০ টাকা ব্যাংক হিসাবের বিপরীতে প্রান্তিক কৃষকদের ঋণ প্রাপ্তি নিশ্চিত করতে ২০০ কোটি টাকার একটি পুনঃঅর্থায়ন তহবিল গঠন করেছে।

 

শেয়ারবাজারনিউজ/অ/মু

আপনার মন্তব্য

*

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Top