আজ: বুধবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২১ইং, ১৬ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৪শে রবিউস সানি, ১৪৪৩ হিজরি

সর্বশেষ আপডেট:

২৪ নভেম্বর ২০২১, বুধবার |



kidarkar

চট্টগ্রামের পথে ২৫৭ জন রোহিঙ্গা  

জাতীয় ডেস্ক: কক্সবাজারের উখিয়া থেকে পর্যায়ক্রমে দেড় থেকে দুই হাজার রোহিঙ্গা ভাসানচরে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। এরই অংশ হিসেবে বুধবার (২৪ নভেম্বর) সকাল ১১টার দিকে ৭টি বাসে করে ২৫৭ জন রোহিঙ্গাকে ভাসানচরে নিয়ে যেতে চট্টগ্রামে পাঠানো হয়েছে।

উখিয়া ডিগ্রী কলেজ মাঠ থেকে এসব রোহিঙ্গাদের নিয়ে চট্টগ্রামের উদ্দেশ্যে ছেড়ে গেছে বাসগুলো। সেখান থেকে বৃহস্পতিবার (২৫ নভেম্বর) রোহিঙ্গাদের নৌ-বাহিনীর বিশেষ জাহাজে করে ভাসানচরে পাঠানোর কথা রয়েছে।

অতিরিক্ত শরণার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার (উপসচিব) মোহাম্মদ সামছু-দ্দৌজা বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে মঙ্গলবার (২৩ নভেম্বর) বিকেলে দেড় থেকে দুই হাজার রোহিঙ্গা নারী-পুরুষ ও শিশুদের উখিয়া ডিগ্রি কলেজ মাঠে জমায়েত করা হয় বলে জানিয়েছে শরণার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনারের কার্যালয়।

স্থানীয় একাধিক সূত্র জানিয়েছেন, এবার উখিয়াসহ বিভিন্ন ক্যাম্প থেকে ভাসানচরে যেতে স্বেচ্ছায় রাজি হওয়া রোহিঙ্গাদের তালিকা অনুযায়ী স্থানান্তর করা হচ্ছে। এসব রোহিঙ্গাদের দায়িত্বে দুটি আইনশৃংখলা বাহিনীর গাড়ি ও একটি এ্যাম্বুলেন্স রয়েছে। তাদেরকে চট্টগ্রামে বিএফ শাহীন কলেজে অবস্থিত নৌবাহিনীর ট্রানজিট ক্যাম্পে রাতে রাখা হবে। সেখানে তাদের স্বাস্থ্য পরীক্ষা ও খাবার দাবারের আয়োজন করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার (২৫ নভেম্বর) সকাল ৮টার দিকে রোহিঙ্গাদের নৌ-বাহিনীর বিশেষ জাহাজে ভাসানচরে নিয়ে যাওয়া হবে।

শরণার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনারের কার্যালয় থেকে জানা গেছে, ২০২০ সালের ৪ ডিসেম্বর প্রথম দফায় ১ হাজার ৬৪২ জন রোহিঙ্গাকে ভাসানচরে পাঠানো হয়। এছাড়া ভাসানচরে যেতে ইচ্ছুক ১ হাজার ৮০৪ জনকে দ্বিতীয় দফায় একই বছরের ২৯ ডিসেম্বর পাঠানো হয়।

এছাড়া চলতি বছরের ২৯ ও ৩০ জানুয়ারি তৃতীয় দফার ৩ হাজার ২৪২ জন, ১৪ ও ১৫ ফেব্রুয়ারি চতুর্থ দফায় ৩ হাজার ১৮ জন এবং পঞ্চম দফায় ৩ ও ৪ মার্চ ৪ হাজার ২১ জনকে ভাসানচরে পাঠানো হয়। ষষ্ঠ দফায় ১ ও ২ এপ্রিল ৪ হাজার ৩৭২ জন রোহিঙ্গাকে ভাসানচর স্থানান্তর করা হয়েছে।

আপনার মতামত দিন

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.