৫৫ কোম্পানির আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশ

Arthik Protibadon Reportশেয়ারবাজার রিপোর্ট:  প্রথম (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫), দ্বিতীয় (এপ্রিল-সেপ্টেম্বর ১৫) এবং প্রান্তিক তৃতীয় (জানুয়ারি-সেপ্টেম্বর ১৫) প্রান্তিকের অনিরিক্ষীত আর্থিক প্রতিবেদন  প্রকাশ করেছে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত ৫৫ কোম্পানি। রোববার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) ওয়েবসাইটে এ তথ্য প্রকাশ করা হয়।

যমুনা ব্যাংক:

তৃতীয় প্রান্তিকে যমুনা ব্যাংকের শেয়ার প্রতি সমন্বিত আয় (ইপিএস) হয়েছে ১.১৩ টাকা, শেয়ার প্রতি সমন্বিত কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ১.৪০ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সমন্বিত সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ২৩.৭১ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি সমন্বিত আয় (ইপিএস) ছিল ০.৫৩ টাকা, সমন্বিত এনওসিএফপিএস ছিল ২.৪৮ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ১৬.১৩ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস বেড়েছে ০.৬০ টাকা বা ১১৩.২১ শতাংশ।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি সমন্বিত আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৩৮ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে সমন্বিত আয় ছিল ০.০৮ টাকা।

জেনারেশন নেক্সট:

তৃতীয় প্রান্তিকে জেনারেশন নেক্সটের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৮৯ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ০.৫৪ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১৩.০৭ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ১.০০ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ০.৭২ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ১২.২১ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ০.১১ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.১৮ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে আয় ছিল ০.৩৩ টাকা।

এপেক্স স্পিনিং:

দ্বিতীয় প্রান্তিকে এপেক্স স্পিনিংয়ের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১.৯০ টাকা ও ইপিএস ১.১০ টাকা (without fair valuation surplus/(deficit) of investment), শেয়ার প্রতি কার্যকরী নগদ প্রবাহের পরিমাণ (এনওসিএফপিএস) হয়েছে ২৫.৪২ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ৪৯.৮৪ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিলো ০.৭১ টাকা ও ইপিএস ছিলো ১.০৩ টাকা (without fair valuation surplus/(deficit) of investment), এনওসিএফপিএস ১০.৫৫ টাকা এবং ৩১ মার্চ ২০১৫ পর্যন্ত এনএভিপিএস হয়েছিলো ৫০.০২ টাকা ।

এদিকে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) পর্যন্ত এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৪৭ টাকা (without fair valuation surplus/(deficit) of investment)। যা আগের বছরে একই সময়ে ছিলো ০.৪৩ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) (with fair valuation surplus/(deficit) of investment) হয়েছে ১.২০ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে আয় ছিল ০.১১ টাকা।

রহিম টেক্সটাইল:

প্রথম প্রান্তিকে রহিম টেক্সটাইলের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ২.৬৯ টাকা এবং শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ৯.৭৯ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ৫৭.৭৫ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ২.৭৫ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ৮.৩০ টাকা এবং ৩০ জুন ২০১৫ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ৫৫.০৫ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ০.০৬ টাকা।

নর্দার্ণ ইন্স্যুরেন্স:

তৃতীয় প্রান্তিকে নর্দার্ণ ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১.৯৩ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ১.৬৫ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ২০.৭৫ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ১.৮৯ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ০.৫৩ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ১২.৭৬ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস বেড়েছে ০.০৪ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৫৩ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে আয় ছিল ০.৪৮ টাকা।

সিএমসি কামাল:

তৃতীয় প্রান্তিকে সিএমসি কামালের শেয়ার প্রতি সমন্বিত আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৯৬ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ০.৯৫ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ০.০১ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.২৯ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে আয় ছিল ০.৩৩ টাকা।

সোনারবাংলা ইন্স্যুরেন্স:

তৃতীয় প্রান্তিকে সোনারবাংলা ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার প্রতি সমন্বিত আয় (ইপিএস) হয়েছে ১.৩১ টাকা, শেয়ার প্রতি সমন্বিত কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ০.৪৭ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সমন্বিত সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১৫.৪১ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি সমন্বিত আয় (ইপিএস) ছিল ১.৩৫ টাকা, সমন্বিত এনওসিএফপিএস ছিল ১.২৬ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ১৪.৯৩ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ০.০৪ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি সমন্বিত আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৪৫ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে সমন্বিত আয় ছিল ০.৪০ টাকা।

মালেক স্পিনিং:

প্রথম প্রান্তিকে মালেক স্পিনিংয়ের শেয়ার প্রতি সমন্বিত আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৩২ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকরী সমন্বিত নগদ প্রবাহের পরিমাণ (এনওসিএফপিএস) হয়েছে ০.৯০ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সমন্বিত সম্পদের পরিমাণ (এনএভিপিএস) হয়েছে ৪৫.০৫ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে সমন্বিত ইপিএস ছিল ০.৪৬ টাকা, সমন্বিত এনওসিএফপিএস ছিল ১.০৫ টাকা এবং ৩০ জনু ২০১৫ পর্যন্ত সমন্বিত এনএভিপিএস ছিল ৪৪.৮৩ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ০.১৪ টাকা।

আজিজ পাইপস:

তৃতীয় প্রান্তিকে আজিজ পাইপসের শেয়ার প্রতি লোকসান হয়েছে ১.৮৩ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ১.৭০ টাকা এবং শেয়ার প্রতি দায় হয়েছে ৫২.৭০ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি লোকসান ছিল ০.২৮ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ০.৯৭ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে দায় ছিল ৫০.৮৭ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির লোকসান বেড়েছে ১.৫৫ টাকা বা ৫৫৩.৫৭ শতাংশ।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি লোকসান হয়েছে ০.৭৭ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে লোকসান ছিল ০.৫১ টাকা।

এদিকে আলোচিত সময়ে কোম্পানিটির পুঁঞ্জিভূত লোকসানের পরিমাণ দাঁড়িয়েছে ৪৭ কোটি ৬৪ লাখ ৬০ হাজার টাকা এবং শেয়ারহোল্ডার ইক্যুইটির পরিমাণ হয়েছে ২৫ কোটি ৫৬ লাখ টাকা।

সামিট এলায়েন্স:

তৃতীয় প্রান্তিকে সামিট এলায়েন্সের শেয়ার প্রতি সমন্বিত আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৬২ টাকা, শেয়ার প্রতি সমন্বিত কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ০.৯৫ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সমন্বিত সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ২৮.৫৮ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি সমন্বিত আয় (ইপিএস) ছিল ০.৬১ টাকা, সমন্বিত এনওসিএফপিএস ছিল ১.৬০ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ৪০.২৭ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস বেড়েছে ০.০১ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি সমন্বিত আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.১৭ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে সমন্বিত আয় ছিল ০.১৯ টাকা।

ফেডারেল ইন্স্যুরেন্স:

তৃতীয় প্রান্তিকে ফেডারেল ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৫৭ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ২.৭০ টাকা (মাইনাস) এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১১.৬৩ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ০.৮৯ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ০.১০ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ১০.৯৬ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ০.৩২ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.১৭ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে আয় ছিল ০.৩৬ টাকা।

সাফকো স্পিনিং:

তৃতীয় প্রান্তিকে সাফকো স্পিনিংয়ের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৫৬ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ০.৯২ টাকা (মাইনাস) এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ২০.৫২ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ০.৯৩ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ১.১৬ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ২১.৭৩ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ০.৩৭ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.০৬ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে আয় ছিল ০.৪০ টাকা।

ন্যাশনাল ফিড:

তৃতীয় প্রান্তিকে ন্যাশনাল ফিডের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১.০১ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ০.১৮ টাকা (মাইনাস) এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১৩.৯২ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ০.৯২ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ০.২৩ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ১৪.৪১ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস বেড়েছে ০.০৯ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৩৮ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে আয় ছিল ০.৩৫ টাকা।

এপেক্স ফুড:

প্রথম প্রান্তিকে এপেক্স ফুডের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৮২ টাকা ও শেয়ার প্রতি লোকসান ১.৯০ টাকা (without fair valuation surplus/(deficit) of investment), শেয়ার প্রতি কার্যকরী নগদ প্রবাহের পরিমাণ (এনওসিএফপিএস) হয়েছে ১৩.৬৮ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১০৫.৭০ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি লোকসান ছিলো ০.৬৯ টাকা ও ইপিএস ছিলো ০.৯১ টাকা (without fair valuation surplus/(deficit) of investment), এনওসিএফপিএস ৬.৪৮ টাকা (মাইনাস) এবং ৩০ জুন ২০১৫ পর্যন্ত এনএভিপিএস হয়েছিলো ১০৯.১৬ টাকা ।

আরামিট সিমেন্ট:

তৃতীয় প্রান্তিকে আরামিট সিমেন্টের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৩৭ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ৫.০৩ টাকা (মাইনাস) এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১৪.৮৬ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ০.২৪ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ৬.৯৪ টাকা (মাইনাস) এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ১৫.৪৯ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস বেড়েছে ০.১৩ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি লোকসান হয়েছে ০.০৮ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে লোকসান ছিল ০.০৭ টাকা।

সালভো কেমিক্যাল:

তৃতীয় প্রান্তিকে সালভো কেমিক্যালের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৪২ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ০.৮৯ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১১.০৯ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ০.৭৮ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ০.৯৯ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ১১.৭৪ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ০.৩৬ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.১৬ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে আয় ছিল ০.২৮ টাকা।

হাক্কানি পাল্প:

প্রথম প্রান্তিকে হাক্কানি পাল্পের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.০৯ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকরী নগদ প্রবাহের পরিমাণ (এনওসিএফপিএস) হয়েছে ০.৩৬ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ৩০.১৪ টাকা (with revaluation reserve ) ও ১২.৪৬ টাকা (without revaluation reserve)। যা আগের বছরে একই সময়ে ইপিএস ছিলো ০.১৬ টাকা, এনওসিএফপিএস ২.৩৬ টাকা এবং এনএভিপিএস হয়েছিলো ২৯.৪৪ টাকা ও ১১.৫৯ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ০.০৭ টাকা ৪৩.৭৫ শতাংশ।

ইনটেক লিমিটেড:

তৃতীয় প্রান্তিকে ইনটেক লিমিটেডের শেয়ার প্রতি লোকসান হয়েছে ০.৪২ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ০.০০০০৪৬ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ৯.৬৯ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি লোকসান ছিল ০.৬০ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ০.২৮ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ১০.১১ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস লোকসানের পরিমাণ কোমেছে ০.১৮ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি লোকসান হয়েছে ০.১১ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে লোকসান ছিল ০.২০ টাকা।

জনতা ইন্স্যুরেন্স:

তৃতীয় প্রান্তিকে জনতা ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৪০ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকরী নগদ প্রবাহের পরিমাণ (এনওসিএফপিএস) হয়েছে ০.১০ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১৩.৫৬ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে ইপিএস ছিলো ০.২৫ টাকা, এনওসিএফপিএস ০.২৫ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ পর্যন্ত এনএভিপিএস হয়েছিলো ১৪.৪৭ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস বেড়েছে ০.১৫ টাকা ৬০ শতাংশ।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানিটির ইপিএস হয়েছে ০.০২ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি লোকসান ছিলো ০.২০ টাকা।

পূরবী জেনারেল ইন্স্যুরেন্স:

তৃতীয় প্রান্তিকে পূরবী জেনারেল ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১.২২ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ০.৪১ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১৩.০৭ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ১.২২ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ০.৫৩ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ১১.৮৭ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএসে কোন পরিবর্তণ হয়নি।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৭০ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে আয় ছিল ০.৮২ টাকা।

ওরিয়ন ফার্মা:

তৃতীয় প্রান্তিকে ওরিয়ন ফার্মার শেয়ার প্রতি সমন্বিত আয় (ইপিএস) হয়েছে ২.৮৮ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকরী নগদ প্রবাহের সমন্বিত পরিমাণ (এনওসিএফপিএস) হয়েছে ৫.৪০ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সমন্বিত সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ৬৯.৪৮ টাকা (including revaluation surplus)। যা আগের বছরে একই সময়ে ইপিএস ছিলো ৩.৮০ টাকা, এনওসিএফপিএস ৮.৪৫ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ পর্যন্ত এনএভিপিএস হয়েছিলো ৬৭.৫০ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ০.৯২ টাকা ২৪.২১ শতাংশ।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানিটির ইপিএস হয়েছে ০.৭৩ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে ছিলো ০.৭৭ টাকা।

কন্টিনেন্টাল ইন্স্যুরেন্স:

তৃতীয় প্রান্তিকে কন্টিনেন্টাল ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১.৬৫ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ০.৯৬ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১৮.১৬ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ১.৭০ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ২.০৯ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ১৭.৫১ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ০.০৫ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.১৪ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে আয় ছিল ০.১৫ টাকা।

ইসলামী ইন্স্যুরেন্স:

তৃতীয় প্রান্তিকে ইসলামী ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৯৩ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকরী নগদ প্রবাহের পরিমাণ (এনওসিএফপিএস) হয়েছে ০.৪৫ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১৩.১৬ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে ইপিএস ছিলো ১.০১ টাকা, এনওসিএফপিএস ১.৩০ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ পর্যন্ত এনএভিপিএস হয়েছিলো ১২.৬৯ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ০.০৮ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানিটির ইপিএস হয়েছে ০.৩০ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে ছিলো ০.২৩ টাকা।

ইনফরমেশন সার্ভিস:

তৃতীয় প্রান্তিকে ইনফরমেশন সার্ভিসের শেয়ার প্রতি লোকসান হয়েছে ০.১৬ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ০.৬৭ টাকা (মাইনাস) এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১৫.০১ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ০.১০ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ০.৩০ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ১৫.৮৯ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ০.২৬ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি লোকসান হয়েছে ০.১৬ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে আয় ছিল ০.০১ টাকা।

এদিকে আলোচিত সময়ে কোম্পানিটির পুঁঞ্জিভূত লোকসানের পরিমাণ দাঁড়িয়েছে ৪৫ লাখ ২০ হাজার টাকা।

প্যারামাউন্ট ইন্স্যুরেন্স:

তৃতীয় প্রান্তিকে প্যারামাউন্ট ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৭৩ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকরী নগদ প্রবাহের পরিমাণ (এনওসিএফপিএস) হয়েছে ০.১৯ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১৩.৫৭ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে ইপিএস ছিলো ০.৭৭ টাকা, এনওসিএফপিএস ১.০১ টাকা এবং এনএভিপিএস হয়েছিলো ১৩.৬৫ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ০.০৪ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানিটির ইপিএস হয়েছে ০.২৪ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে ছিলো ০.২৬ টাকা।

একটিভ ফাইন:

তৃতীয় প্রান্তিকে একটিভ ফাইনের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ২.৫৭ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ২.৫৪ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ২৪.৮৪ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ১.৭৭ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ২.৮৯ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ২৭.০৯ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস বেড়েছে ০.৮০ টাকা বা ৪৫.২০ শতাংশ।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৯৭ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে আয় ছিল ০.৬৬ টাকা।

প্রাইম ফাইন্যান্স:

তৃতীয় প্রান্তিকে প্রাইম ফাইন্যান্সের শেয়ার প্রতি সমন্বিত লোকসান হয়েছে ০.৮৯ টাকা, শেয়ার প্রতি সমন্বিত কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ৩.৮২ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সমন্বিত সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১৪.৩৩ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি সমন্বিত আয় (ইপিএস) ছিল ০.৮৪ টাকা, সমন্বিত এনওসিএফপিএস ছিল ০.৭৭ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ১৬.৪৭ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ১.৭৩ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি সমন্বিত লোকসান হয়েছে ০.০৩ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে সমন্বিত আয় ছিল ০.৩৩ টাকা।

প্রাইম ইন্স্যুরেন্স:

তৃতীয় প্রান্তিকে প্রাইম ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৯৪ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ১.৫৭ টাকা (মাইনাস) এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১৬.২২ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ১.৩৬ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ০.৬৬ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ১৭.০৪ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ০.৪২ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.০৪ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে আয় ছিল ০.৭২ টাকা।

তসরিফা ইন্ডাস্ট্রিজ:

তৃতীয় প্রান্তিকে তসরিফা ইন্ডাস্ট্রিজের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১.৪৮ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ৪.১২ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ৩১.৫৬ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে ইপিএস ছিল ১.৪৯ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ৪.৮৭ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ পর্যন্ত এনএভিপিএস ছিল ৩৭.৪৪ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির এনএভিপিএস কমেছে ৫.৮৮ টাকা ।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৩৭ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে ছিল ০.৫৬  টাকা।

ওয়াটা কেমিক্যাল:

তৃতীয় প্রান্তিকে ওয়াটা কেমিক্যালের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ৩.০৬ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ০.৪৪ টাকা (মাইনাস) এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ৮০.৫১ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ৩.২২ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ৪.২৭ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ৭৬.৪৪ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ০.১৬ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৫৮ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে আয় ছিল ০.৭৫ টাকা।

ফিনিক্স ফাইন্যান্স:

তৃতীয় প্রান্তিকে ফিনিক্স ফাইন্যান্সের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১.৩০ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ৩.৪৭ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১৯.৮৮ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ১.৯৯ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ৫.৮৫ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ২০.৯৪ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ০.৬৯ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৫৩ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে আয় ছিল ০.৪৩ টাকা।

বিআইএফসি লিমিটেড:

তৃতীয় প্রান্তিকে বিআইএফসি লিমিটেডের শেয়ার প্রতি লোকসান হয়েছে ৩.৯৭ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ১৪.১১ টাকা (মাইনাস) এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১২.১৬ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ০.৫৬ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ১০.১৫ টাকা (মাইনাস) এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ১৬.১৩ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ৪.৫৩ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি লোকসান হয়েছে ৩.০৮ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে আয় ছিল ০.২৩ টাকা।

এদিকে আলোচিত সময় পর্যন্ত কোম্পানিটির পুঞ্জিভূত লোকসানের পরিমাণ দাঁড়িয়েছে ৩৫ কোটি ১০ লাখ ৭০ হাজার টাকা।

মোজাফফর হোসেন স্পিনিং:

প্রথম প্রান্তিকে মোজাফফর হোসেন স্পিনিংয়ের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৯৩ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকরী নগদ প্রবাহের পরিমাণ (এনওসিএফপিএস) হয়েছে ০.৫২ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদের পরিমাণ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১৭.৭৬ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে ইপিএস ছিল ০.৮৮ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ০.৫১ টাকা এবং ৩০ জনু ২০১৫ পর্যন্ত এনএভিপিএস ছিল ১৯.১০ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস বেড়েছে ০.০৫ টাকা।

গোল্ডেন সন:

তৃতীয় প্রান্তিকে গোল্ডেন সনের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১.১২ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ০.৪৬ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ২৫.২২ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে ইপিএস ছিল ১.৬৪ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ০.৯৮ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ পর্যন্ত এনএভিপিএস ছিল ২৪.০৮ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ০.৫২ টাকা বা ৩১.৭১ শতাংশ।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৪৫ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে ছিল ০.১৩ টাকা।

আরামিট লিমিটেড:

তৃতীয় প্রান্তিকে আরামিট লিমিটেডের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ৯.৯৬ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ১১.১০ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১৫০.৭৬ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ১০.৫৯ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ৫.২০ টাকা (মাইনাস) এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ১৪০.৩২ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ০.৬৩ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ২.৫৩ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে আয় ছিল ৩.৩৮ টাকা।

নাভানা সিএনজি:

দ্বিতীয় প্রান্তিকে নাভানা সিএনজির শেয়ার প্রতি সমন্বিত আয় (ইপিএস) হয়েছে ১.৫৭ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের সমন্বিত পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ১.১১ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ২৯.৬৭ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে ইপিএস ছিল ১.৮৫ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ১.০৪ টাকা এবং ৩১ মার্চ ২০১৫ সমাপ্ত পর্যন্ত এনএভিপিএস ছিল ২৮.০৯ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ০.২৮ টাকা বা ১৫.১৩ শতাংশ।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৭৫ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে ছিল ০.৮২ টাকা।

জিকিউ বলপেন:

তৃতীয় প্রান্তিকে জিকিউ বলপেনের শেয়ার প্রতি লোকসান হয়েছে ২.০৫ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ০.৫৬ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১৮৭.৫১ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ১.৬৬ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ১.৯৯ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত পর্যন্ত এনএভিপিএস ছিল ১৯০.৮০ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ৩.৭১ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি লোকসান হয়েছে ১.২১ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে ইপিএস ছিল ০.৪৯ টাকা।

রেনেটা:

তৃতীয় প্রান্তিকে রেনেটার শেয়ার প্রতি সমন্বিত আয় (ইপিএস) হয়েছে ২৯.৩৯ টাকা, শেয়ার প্রতি সমন্বিত কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ৪৪.৯৭ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সমন্বিত সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১৭৩.৫২ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি সমন্বিত আয় (ইপিএস) ছিল ২৩.৬৩ টাকা, সমন্বিত এনওসিএফপিএস ছিল ২৮.৫৬ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ১৫০.৮৬ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস বেড়েছে ৫.৭৬ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি সমন্বিত আয় (ইপিএস) হয়েছে ৯.৯৩ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে সমন্বিত আয় ছিল ৮.২১ টাকা।

মুন্নু জুট স্টাফলার্স:

তৃতীয় প্রান্তিকে মুন্নু জুট স্টাফলার্সের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৮০ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ৫.৫০ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ৫০.২৬ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ০.৮৮ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ৪.৪৮ টাকা (মাইনাস) এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ৪৯.৪৬ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ০.০৮ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৪২ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে আয় ছিল ০.৪৮ টাকা।

অ্যাম্বি ফার্মা:

তৃতীয় প্রান্তিকে অ্যাম্বি ফার্মার শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ৩.১০ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ৩.২৫ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ২৪.৫১ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে ইপিএস ছিল ৩.৫১ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ৩.১৩ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত পর্যন্ত এনএভিপিএস ছিল ২৪.২১ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ০.৪১ টাকা বা ১১.৬৮ শতাংশ।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১.৩৮ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে সমন্বিত আয় ছিল ১.৯২ টাকা।

জাহিন স্পিনিং:

তৃতীয় প্রান্তিকে জাহিন স্পিনিংয়ের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১.৫৮ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ০.১১ টাকা (মাইনাস) এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১২.৪০ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ০.৮৬ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ০.১৬ টাকা (মাইনাস) এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ১২.৯৮ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস বেড়েছে ০.৭২ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৬২ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে আয় ছিল ০.১৫ টাকা।

জেএমআই সিরিঞ্জ:

তৃতীয় প্রান্তিকে জেএমআই রিরিঞ্জের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ৩.৬২ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ০.২৯ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ৫০.৪১ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ৩.৩৬ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ১৪.৩৪ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সমাপ্ত অর্থবছরে এনএভিপিএস ছিল ৪৮.৮৬ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস বেড়েছে ০.২৬ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১.১৭ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে আয় ছিল ১.১৩ টাকা।

ফারইস্ট ইসলামী লাইফ ইন্স্যুরেন্স:

তৃতীয় প্রান্তিকে কোম্পানিটির লাইফ ফান্ড আগের বছরের একই সময়ের তুলনায় ২৬৩ কোটি ২৬ লাখ ৯৬ হাজার ৭৬০ টাকা বেড়ে ফান্ডের আকার সর্বমোট ২ হাজার ৯৪৩ কোটি ৫৮ লাখ ২২ হাজার ৮২১ টাকা হয়েছে। যা আগের বছর একই সময়ে লাইফ ফান্ড বেড়ে ফান্ডের আকার হয়েছিল ২ হাজার ৬৮০ কোটি ৩১ লাখ ২৬ হাজার ৬১ টাকা।

এদিকে গত তিন মাসে (জুলাই’১৫-সেপ্টেম্বর’১৫) এ কোম্পানির নীট প্রিমিয়াম হয়েছে ১৮২ কোটি ৪০ লাখ ৩৪ হাজার টাকা। আগের বছরের একই সময়ে  ১৫৪ কোটি ৯৫ লাখ ৩০ হাজার টাকা ছিল।

ইষ্টল্যান্ড ইন্স্যুরেন্স:

তৃতীয় প্রান্তিকে ইষ্টল্যান্ড ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১.২৯ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ০.৩৭ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১৯.৯৮ টাকা।

যা আগের বছরে একই সময়ে ইপিএস ছিল ২.২৭ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ০.৯৯ টাকা এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ পর্যন্ত এনএভিপিএস ছিল ১৯.৫৯ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস কমেছে ০.৯৮ টাকা বা ৪৩.১৭ শতাংশ।

আইপিডিসি:

তৃতীয় প্রান্তিকের ৯ মাসে এএফসি এগ্রো কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা করেছে ১৫ কোটি ৯৩ লাখ ৪৭ হাজার ৬৮০ টাকা। এসময় শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১.২৬ টাকা, শেয়ার প্রতি নীট কার্যকর নগদ প্রবাহ (এনওসিএফপিএস) হয়েছে ৬.৫৯ টাকা এবং শেয়ার প্রতি নীট সম্পদমূল্য (এনএভি) হয়েছে ১৮.৯৬ টাকা। আগের বছরে একই সময়ে কোম্পানিটি কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা করেছিল ১০ কোটি এক লাখ ৭৬ হাজার ৪৭৯ টাকা, ইপিএস ছিল ০.৭৯ টাকা এবং এনওসিএফপিএস ছিল ২.০৮ টাকা।

এদিকে তৃতীয় প্রান্তিকের শেষ তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর’১৫) কোম্পানিটি কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা করেছে ৭ কোটি ৫৭ লাখ ৪ হাজার টাকা এবং শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৬০ টাকা। আগের বছরে একই সময়ে কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা ছিল ৪ কোটি ৬৯ লাখ ৮৪ হাজার টাকা এবং ইপিএস ছিল ০.৩৭ টাকা।

সেন্ট্রাল ইন্স্যুরেন্স:

তৃতীয় প্রান্তিকের ৯ মাসে সেন্ট্রাল ইন্স্যুরেন্সের কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা করেছে ৫ কোটি ১৭ লাখ ৮০ হাজার ৩৬১ টাকা। এসময় শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১.৫২ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ১.২০ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ২২.০৮ টাকা। আগের বছরে একই সময়ে কোম্পানিটি কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা করেছিল ৭ কোটি ৪৪ লাখ ৫৮ হাজার ৮২৬ টাকা, ইপিএস ছিল ২.২২ টাকা এবং এনওসিএফপিএস ছিল ২.২৮ টাকা।

এদিকে গত তিন মাসে (জুলাই’১৫-সেপ্টেম্বর’১৫) কোম্পানির কর প্রদানের পর মুনাফা হয়েছে ১ কোটি ৭০ লাখ ৫৭ হাজার ৬৬৫ টাকা এবং শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৪৭ টাকা। আগের বছরে একই সময়ে তা যথাক্রমে ২ কোটি ২৮ লাখ ২৪ হাজার ৭১১ টাকা এবং ইপিএস ছিল ০.৬৫ টাকা।

ইস্টার্ন ইন্স্যুরেন্স:

তৃতীয় প্রান্তিকের ৯ মাসে ইস্টার্ন ইন্স্যুরেন্স কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা করেছে ৭ কোটি ৯১ লাখ ৪৭ হাজার ৪৯২ টাকা। এসময় শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১.৮৪ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ৩.০৬ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ৩৫.১০ টাকা। আগের বছরে একই সময়ে কোম্পানিটি কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা করেছিল ৭ কোটি ৪৬ লাখ ৬৪ হাজার ৩৬৫ টাকা, ইপিএস ছিল ১.৭৩ টাকা এবং এনওসিএফপিএস ছিল ৩.৫১ টাকা।

এদিকে তৃতীয় প্রান্তিকের শেষ তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর’১৫) কোম্পানিটির ইপিএস ১২ শতাংশ কমেছে। এসময় কোম্পানিটি কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা করেছে এক কোটি ৯৬ লাখ ৯৮ হাজার ৭৭৪ টাকা, শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৪৬ টাকা। আগের বছরে একই সময়ে কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা ছিল ২ কোটি ২৫ লাখ ৮০ হাজার ৪৮৬ টাকা এবং ইপিএস ছিল ০.৫২ টাকা।

কর্নফুলী ইন্স্যুরেন্স:

তৃতীয় প্রান্তিকের ৯ মাসে কর্নফুলী ইন্স্যুরেন্স কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা করেছে ১ কোটি ৭৭ লাখ ১৩ হাজার ৫৭১ টাকা। এ সময় শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৪৪ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ০.০৭ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ২১.৮৯ টাকা।

আগের বছরে একই সময়ে কোম্পানিটি কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা করেছিল ৪ কোটি ৭ লাখ ৭০ হাজার ৬৫১ টাকা, ইপিএস ছিল ১.০০ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ০.৮২ টাকা।

তৃতীয় প্রান্তিকের ৯ মাসে কোম্পানির মুনাফায় এমন ধ্বসের কারণ, সর্বশেষ প্রান্তিকের (জুলাই’১৫-সেপ্টেম্বর’১৫) বড় ধরনের লোকসান। এ প্রান্তিকে কোম্পানি প্রায় ৭৭ লাখ ৭৬ হাজার ৪৫১ টাকা লোকসান করেছে। এ সময় শেয়ার প্রতি লোকসান (ইপিএস) হয়েছে ০.১৯ টাকা। আগের বছরের একই সময়ে মুনাফা হয়েছিল ১ কোটি ৪০ লাখ ৯৩ হাজার ১৪৯ টাকা এবং শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছিল ০.৩৫ টাকা ছিল।

বার্জার পেইন্টস:

তৃতীয় প্রান্তিকের ৯ মাসে বার্জার পেইন্টস কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা করেছে ১০৫ কোটি ১৫ লাখ ১৪ হাজার টাকা। এসময় শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ৪৫.৩৫ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (ওসিএফপিএস) ৬০.২৩ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১৬৭.৩৯ টাকা। আগের বছরে একই সময়ে কোম্পানিটি কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা করেছিল ৮৫ কোটি ৬৬ লাখ ২৯ হাজার টাকা, ইপিএস ছিল ৩৬.৯৪ টাকা, ওসিএফপিএস ছিল ৩১.০৬ টাকা।

এদিকে তৃতীয় প্রান্তিকের শেষ তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর’১৫) কোম্পানিটি কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা করেছে ২৪ কোটি ৪১ লাখ ৫৫ হাজার টাকা, শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১০.৫৩ টাকা। আগের বছরে একই সময়ে কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা ছিল ২৩ কোটি ২৬ লাখ ৭১ হাজার টাকা এবং ইপিএস ছিল ১০.০৩ টাকা।

মার্কেন্টাইল ইন্স্যুরেন্স:

তৃতীয় প্রান্তিকের ৯ মাসে মার্কেন্টাইল ইন্স্যুরেন্স কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা করেছে ৪ কোটি ৭১ লাখ টাকা। এ সময় শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১.০৯ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ১.৮৫ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ২৯.১৭ টাকা।

আগের বছরে একই সময়ে কোম্পানিটি কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা করেছিল ৪ কোটি ১৭ লাখ টাকা, ইপিএস ছিল ১.১১ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ৩.৭৮ টাকা।

এদিকে গত তিন মাসে (জুলাই’১৫-সেপ্টেম্বর’১৫) কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১.১০ টাকা। আগের বছরে একই সময়ে ইপিএস ছিল ১.১৫ টাকা।

ঢাকা ইন্স্যুরেন্স:

তৃতীয় প্রান্তিকের ৯ মাসে ঢাকা ইন্স্যুরেন্সের কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা করেছে ৮ কোটি ৩৮ লাখ ১৬ হাজার ৩৮৯ টাকা। এসময় শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ১.৫০ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ০.৮৮ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১৭.৪৭ টাকা। আগের বছরে একই সময়ে কোম্পানিটি কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা করেছিল ১০ কোটি ৭৬ লাখ ৭২ হাজার ৯৬৩ টাকা, ইপিএস ছিল ১.৭১ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ০.৬০ টাকা।

এদিকে গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর’১৫) কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৫০ টাকা। আগের বছরে একই সময়ে ইপিএস ছিল ০.৫০ টাকা।

বিডি সার্ভিস:

তৃতীয় প্রান্তিকে বিডি সার্ভিসের শেয়ার প্রতি লোকসান হয়েছে ২.৮৬ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ২.৯৮ টাকা (মাইনাস) এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ১৩.১৬ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) ছিল ০.২৫ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ১.৫৩ টাকা এবং এনএভিপিএস ছিল ১৬.১৪ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি আয় কমেছে ৩.১১ টাকা।

গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর ১৫) এ কোম্পানির শেয়ার প্রতি লোকসান হয়েছে ১.০৮ টাকা। যা আগের বছরে একই সময়ে ছিল ০.৮৩ টাকা।

উত্তরা ফাইন্যান্স:

তৃতীয় প্রান্তিকে উত্তরা ফাইন্যান্সের শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ৬.৪৯ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ১৪.৪৭ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ৪৩.৯৫ টাকা।

যা আগের বছরে একই সময়ে ইপিএস ছিল ৬.৪৩ টাকা, এনওসিএফপিএস ছিল ২৭.০৪ টাকা এবং এনএভিপিএস ছিল ৫৩.১১ টাকা। সে হিসেবে কোম্পানিটির ইপিএস বেড়েছে ০.০৬ টাকা।

প্রগতি ইন্স্যুরেন্স:

তৃতীয় প্রান্তিকের ৯ মাসে প্রগতি ইন্স্যুরেন্সের কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা করেছে ৪ কোটি ৫৭ লাখ ২৫ হাজার ৩১২ টাকা। এসময় শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৮২ টাকা, শেয়ার প্রতি কার্যকারী নগদ প্রবাহের পরিমাণ হয়েছে (এনওসিএফপিএস) ০.৬২ টাকা এবং শেয়ার প্রতি সম্পদ (এনএভিপিএস) হয়েছে ৫০.১৬ টাকা। আগের বছরে একই সময়ে কোম্পানিটি কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা করেছিল ১০ কোটি ২৮ লাখ ৭২ হাজার ৮৭১ টাকা, ইপিএস ছিল ১.৮৫ টাকা।

এদিকে গত তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর’১৫) কোম্পানিটির ইপিএস ৮৩ শতাংশ কমেছে। এসময় কোম্পানিটি কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা করেছে ৫৯ লাখ ২৫ হাজার ৮২৭ টাকা, শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.১১ টাকা। আগের বছরে একই সময়ে নীট মুনাফা করেছিল ৩ কোটি ৪৯ লাখ ৬৪ হাজার ৮৭৮ টাকা এবং ইপিএস ছিল ০.৬৩ টাকা।

জিএসপি ফাইন্যান্স:

তৃতীয় প্রান্তিকের ৯ মাসে কোম্পানিটি কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা করেছে ৯ কোটি ৭ লাখ ৪৮ হাজার ৮৭৫ টাকা। এসময় শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৮৭ টাকা, শেয়ার প্রতি নীট সম্পদমূল্য (এনএভিএস) হয়েছে ১৫.৬৪ টাকা এবং শেয়ার প্রতি কার্যকর নগদ প্রবাহ (এনওসিএফপিএস) হয়েছে ১.৩০ টাকা। আগের বছর একই সময়ে কোম্পানিটি কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা করেছিল ৮ কোটি ৬ লাখ ৩৭ হাজার ৩৮৭ টাকা। এসময় শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছিল ১.১৯ টাকা, শেয়ার প্রতি নীট সম্পদমূল্য (এনএভিএস) হয়েছিল ২২.৯০ টাকা এবং শেয়ার প্রতি কার্যকর নগদ প্রবাহ (এনওসিএফপিএস) হয়েছিল (২.৮৩) টাকা।

এদিকে গত তিন মাসে অর্থাৎ জুলাই ২০১৫ থেকে সেপ্টেম্বর ২০১৫ পর্যন্ত কোম্পানিটি কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা করেছে ৩ কোটি ৩৬ লাখ ৬৭ হাজার ৯৯৩ টাকা। এসময় শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ০.৩২ টাকা। আগের বছর একই সময়ে কোম্পানিটি কর পরিশোধের পর নীট মুনাফা করেছিল ২ কোটি ৫৬ লাখ ২৫ হাজার ৩২৫ টাকা। এসময় শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছিল ০.৩৮ টাকা।

 

শেয়ারবাজারনিউজ/মু

আপনার মন্তব্য

*

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Top