পুঁজিবাজারের জন্য এ বাজেটে কিছুই নেই

parliamentশেয়ারবাজার রিপোর্ট : বাজেট বক্তৃতায় অর্থমন্ত্রী পুঁজিবাজার জেগে উঠার আশার কথা শোনালেও হতাশা প্রকাশ করেছেন শেয়ারবাজার সংশ্লিষ্টরা।

বৃহস্পতিবার জাতীয় সংসদে আবুল মাল আবদুল মুহিত ২০১৬-১৭ অর্থবছরের বাজেট প্রস্তাবের পর ডিএসইর জ্যেষ্ঠ ভাইস প্রেসিডেন্ট আহমেদ রশীদ লালী এক প্রতিক্রিয়ায় বলেন, তারা কিছুই পাননি।

তিনি বলেন, “পুঁজিবাজারের এই অবস্থায় ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই), চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) কোনো চাহিদার প্রতিফলন এই বাজেটে হয়নি। বলা যায়, পুঁজিবাজারের জন্য এই বাজেটে কিছু নেই।”

ডিমিউচুয়ালাইজেশনের পর পুঁজিবাজারের প্রাতিষ্ঠানিক সক্ষমতা বাড়াতে আরও তিন বছর শতভাগ কর অবকাশ সুবিধা চেয়ে আসছিল ডিএসই সিএসই।

আইডিএলসি ইনভেস্টমেন্ট লিমিটেডের ব্যাবস্থাপনা পরিচালক মো. মুনিরুজ্জামান শেয়ারবাজারনিউজ ডটকমকে বলেন, “একটি ছোট বিষয় পুঁজিবাজারে বিনিয়োগকারীদের জন্য দেওয়া হয়েছে। তবে তার কোনো প্রভাব পুঁজিবাজারে পড়বে বলে মনে হয় না।”

পুঁজিবাজারের মার্জিন ঋণের সুদ মওকুফ হলে তাকে মুনাফা হিসেবে ধরা হত, এখন এই সুবিধা থেকে প্রাপ্ত অর্থ ১০ লাখ টাকা পর্যন্ত কর মুক্ত রাখার প্রস্তাব করেছেন অর্থমন্ত্রী।

বাজেট বক্তৃতায় মুহিত পুঁজিবাজারের উন্নয়নে এর আগে নেওয়া পদেক্ষপের ফিরিস্তি দিয়ে বলেছেন, “গত কয়েক বছরে পুঁজিবাজারে আইন-কানুনের ব্যাপক পরিবর্তন হয়েছে।

পুঁজিবাজারের সার্বিক উন্নয়ন ও সংস্কারের লক্ষ্যে এডিবির সহায়তায় একটি প্রকল্প চলমান রয়েছে বলে জানান তিনি।

“পুঁজিবাজার আর্থিক খাতের একটি স্তম্ভ হিসেবে বিকশিত হবার জন্য প্রস্তুত। আশা করা যায়, ফটকাবাজির অবসান ও নির্মূলের ফলে বাজারটি এবারে জেগে উঠবে,” বলেন মুহিত।

শেয়ারবাজারনিউজ/আ

আপনার মন্তব্য

Top