টিন নম্বর নিয়ে ভোগান্তিতে বিনিয়োগকারীরা

nbrশেয়ারবাজার রিপোর্ট: ডিভিডেন্ড ঘোষণার পর অনেক কোম্পানি বিনিয়োগকারীদের ১২ ডিজিটের ট্যাক্স আইডেন্টটিফিকেশন নম্বর ( টিআইএন) জমা করতে আহ্বান জানায়। ঘোষিত লভ্যাংশের ওপর ৫ শতাংশ কর অব্যাহতির জন্য রেকর্ড ডেটের আগে নিজ প্রতিষ্ঠানের শেয়ার হোল্ডারদের বেনিফিশিয়ারি ওনার্স (বিও) অ্যাকাউন্টের সাথে ১২ ডিজিটের টিআইএন হালনাগাদ করার অনুরোধ করেন কোম্পানিগুলো। তবে টিআইএন নম্বর কোথায় এবং কিভাবে জমা দিতে হবে সে সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য উল্লেখ করেনি। ফলে টিআইএন জমা সক্রান্ত বিষয়ে ভোগান্তিতে পরেছেন বিনিয়োগকারীরা।

জানা যায়, সোশ্যাল ইসলামী ব্যাংক লিমিটেড (এসআইবিএল) ডিভিডেন্ড ঘোষণার পর বিনিয়োগকারীদের কাছে টিআইএন জমা দেওয়ার আহবান করে। কোথায় জমা দিবে তা উল্লেখ না করায় শেয়ার হোল্ডাররা তাদের প্রধান অফিসে যোগাযোগ করেন।

টিআইএন সংক্রান্ত সম্পর্কে জানতে ব্যাংকটির প্রধান নিরীক্ষা কর্মকর্তা (সিএফও) মো: হুমায়ন কবির বলেন, এটা ব্যাংক বা আমাদের সাথে সম্পৃক্ত না। বিনিয়োগকারীদের ৫ শতাংশ কর অব্যাহতির সুবিধা পাওয়ার জন্য নিজ নিজ ব্রোকারেজ হাইজে ১২ ডিজিটের টিন নম্বার দিতে হবে।

আইন অনুযায়ী, নির্ধারিত সময়ের মধ্যে কোনো বিনিয়োগকারী টিআইএন হালনাগাদ করতে ব্যর্থ হলে, ১৯৮৪ সালের আয়কর অধ্যাদেশের সেকশন ৫৪ অনুযায়ী, তাদের লভ্যাংশের উপর ১৫ শতাংশ কর দিতে হবে। আর যাদের ১২ সংখ্যার টিআইএন আপডেট রয়েছে তাদের ১০ শতাংশ লভ্যাংশ দিতে হব।

শেয়ারবাজার/মু

আপনার মন্তব্য

Top