বছরের ব্যবধানে বেড়েছে লেনদেন ও বাজার মূলধন

DSE_ডিএসইশেয়ারবাজার রিপোর্ট: বছরজুড়ে অস্থির থাকলেও শেষ সময়ে আস্থায় ফিরে এসেছে পুঁজিবাজার। এ সময়ে সবধরনের সূচকের পাশাপাশি লেনদেন হওয়া বেশিরভাগ প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও মিউচুয়াল ফান্ডের দর বেড়েছে। একই সাথে বেড়েছে টাকার অংকে লেনদেনের পরিমান ও বাজার মূলধন। বছরের শুরুতে ৩ থেকে সাড়ে তিনশ কোটি টাকা লেনদেন হলেও শেষ সময়ে তা ছাড়িয়েছে হাজার কোটি টাকা।

ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) সূত্রে জানা যায়, বছরের ব্যবধানে সূচক বেড়েছে ৪০০ পয়েন্ট এবং বাজার মূলধন বেড়েছে ২৫ হাজার ২৬৮ কোটি ৩০ লাখ টাকা। এর পাশাপাশি লেনদেনও বেড়েছে ১৬ হাজার কোটি টাকা।

বিশ্লেষকরা বলছেন, সরকারের ইতিবাচক মনোভাব ও স্টেকহোল্ডারদের তৎপরতায় স্বাভাবিক ধারায় ফিরেছে দেশের শেয়ার বাজার। বাজারের প্রতি বিনিয়োগকারীদের আস্থা ও অংশগ্রহণ বাড়ছে।

প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী, ২০১৬ সালের লেনদেনের প্রথম কার্যদিবসে (৩ জানুয়ারী) ডিএসই’র বাজার মূলধন ছিল ৩ লাখ ১৫ হাজার ৯৭৫ কোটি ৭০ লাখ টাকা। বছর শেষে যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩ লাখ ৪১ হাজার ২৪৪ কোটি ১০ লাখ টাকা। সেই হিসেবে এক বছরের ব্যবধানে ডিএসইতে মূলধন বেড়েছে ২৫ হাজার ২৬৮ কোটি ৩০ লাখ টাকা।

উল্লেখ্য, ২০১৬ সালে সর্বোচ্চ বাজার মূলধন ছিল ২৮ ডিসেম্বর। যার পরিমাণ ছিল ৩ লাখ ৪১ হাজার ২৬১ কোটি ২০ লাখ টাকা। আর সর্বনিম্ন বাজার মূলধন ছিল ২ মে। যার পরিমাণ ছিল ২ লাখ ৯৮ হাজার ৫৩৪ কোটি ৯০ লাখ টাকা।

এছাড়া বছরের ব্যবধানে ডিএসই ব্রড ইনডেক্স (ডিএসইএক্স) ২০১৬ সালে ৪ হাজার ৬২৯ পয়েন্ট থেকে ৪০৬ পয়েন্ট বা ৮ দশমিক ৮৮ শতাংশ বেড়ে ৫ হাজার ৩৬ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে।

ডিএসই ৩০ সূচক ১ হাজার ৭৫০ পয়েন্ট থেকে ৬০ পয়েন্ট বা ৩ দশমিক ৪৫ শতাংশ বেড়ে বছর শেষে ১ হাজার ৮১০ পয়েন্টে এবং শরিয়াহ্ সূচক ডিএসইএস ১ হাজার ১০৭ পয়েন্ট থেকে ৮৪ পয়েন্ট বা ৭ দশমিক ৬৬ শতাংশ বেড়ে দাঁড়ায় ১ হাজার ১৯১ পয়েন্টে।

বিশ্লেষনে দেখা গেছে, এ বছর ডিএসইতে ৩ হাজার ৪৯১ কোটি ২০ লাখ শেয়ারের লেনদেন হয়েছে। যার বাজার মূল্য ১ লাখ ১৯ হাজার ১৫৭ কোটি ১০ লাখ টাকা৷ এর আগের বছর (২০১৫) ২ হাজার ৬১০ কোটি ৬০ লাখ শেয়ারের লেনদেন হয়েছিল। যার বাজারমূল্য ১ লাখ ৩ হাজার ১৩৯ কোটি ৮০ লাখ টাকা৷ অর্থাৎ আগের বছরের তুলনায় ২০১৬ সালে ১৬ হাজার ১৭ কোটি ৩ লাখ টাকা বেশি লেনদেন হয়েছে।

শেয়ারবাজারনিউজ/রু

আপনার মন্তব্য

Top