সূচক বিপর্যয়: বেড়েছে লেনদেন

price-up-downশেয়ারবাজার রিপোর্ট: সপ্তাহের তৃতীয় কার্যদিবসে দেশের উভয় শেয়ারবাজারে সূচকের বিপর্যয়ে শেষ হয় লেনদেন। এদিন শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত সূচকে ভরাডুবি প্রবণতা লক্ষ্য করা গেছে। মঙ্গলবার সূচকের পাশাপাশি কমেছে বেশীরভাগ কোম্পানি শেয়ার দর। তবে টাকার অংকে উভয় বাজারে কিছুটা বেড়েছে লেনদেন। চলমান রাজনৈতিক সংকটের মধ্যে ধারাবাহিক দর পতনে মূল্যসূচক অনেক নিচে নেমে এসেছে। এ অনিশ্চয়তা বজায় থাকলে অর্থনীতির স্বাস্থ্য ভালো হবে না। আর অর্থনীতি ভালো না হলে পুঁজিবাজারও ভালো থাকার সুযোগ নেই। এমন আশংকায় বাজারে বিনিয়োগকারীদের অংশগ্রহণ কমে গেছে। তাই রাজনৈতিক স্থিতি না ফিরলে বাজারের অবস্থা আরও নাজুক হতে পারে বলে মনে করছেন বাজার সংশ্লিষ্টরা।

দিনশেষে ডিএসইর ব্রড ইনডেক্স ৫২ পয়েন্ট কমে অবস্থান করছে ৪৩৪৫ পয়েন্টে। দিনভর ডিএসইতে মোট ৩০৮টি কোম্পানি ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের লেনদেন হয়। এর মধ্যে দর বেড়েছে ৪৯টির, কমেছে ২৩৬টির আর অপরিবর্তিত রয়েছে ২৩টি কোম্পানির শেয়ার দর। যা টাকার অংকে লেনদেন হয়েছে ৩২৫ কোটি ৭৬ লাখ ৭২ হাজার টাকা।

এর আগে সোমবার ডিএসইতে ব্রড ইনডেক্স অবস্থান করে ৪৩৯৭ পয়েন্টে। ওই দিন লেনদেন হয়েছিল ৩০৫ কোটি ৭ লাখ ১৫ হাজার টাকা। সে হিসেবে মঙ্গলবার ডিএসইতে লেনদেন বেড়েছে ২০ কোটি ৬৯ লাখ ৫৭ হাজার টাকা।

এদিকে দিনশেষে চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) সিএসসিএক্স সূচক ৮১ পয়েন্ট কমে অবস্থান করছে ৮০৯২পয়েন্টে। দিনভর সিএসইতে মোট ২৩২টি কোম্পানি ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের লেনদেন হয়েছে। এর মধ্যে দর বেড়েছে ৩৩টির, কমেছে ১৭৭টির আর অপরিবর্তিত রয়েছে ২২টি কোম্পানির শেয়ার দর। যা টাকার অংকে লেনদেন হয়েছে ৩২ কোটি ৫৪ লাখ ৫৮ হাজার টাকা।

এর আগে সোমবার সিএসই’র সিএসইএক্স অবস্থান করে ৮১৭৪ পয়েন্ট। ওই দিন লেনদেন সিএসইতে লেনদেন হয়েছিল ২৮ কোটি ৯৬ লাখ ৫১ হাজার টাকা। সে হিসেবে আজ সিএসইতে লেনদেন বেড়েছে ৩ কোটি ৫৮ লাখ ৭ হাজার টাকা।

শেয়ারবাজার/অ

আপনার মন্তব্য

Top