ইউনিক্যাপ ইনভেস্টমেন্টের ২৫ কোটি টাকা প্রভিশনিং ঘাটতি

union_capital_sharebazar_newsশেয়ারবাজার রিপোর্ট: পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত আর্থিক খাতের ইউনিয়ন ক্যাপিটালের সাবসিডিয়ারি ইউনিক্যাপ ইনভেস্টমেন্টের (মার্চেন্ট ব্যাংক) মার্জিন ঋণের বিপরীতে ২৫ কোটি ৬১ লাখ ৯৭ হাজার ৪১৩ টাকা ঘাটতি রয়েছে।

গ্রস নেগেটিভ ইক্যুইটির পরিবর্তে নীট নেগেটিভ ইক্যুইটির ওপর ২৩ শতাংশ প্রভিশনিং করায় এ ঘাটতি তৈরি হয়েছে বলে প্রতিষ্ঠানটির নিরীক্ষক জানিয়েছে।

জানা যায়, প্রতিষ্ঠানটির বার্ষিক আর্থিক বিবরণীতে নিরীক্ষকের মতামতে বলা হয়েছে, ইউনিয়ন ক্যাপিটালের সহযোগী মার্চেন্ট ব্যাংক ইউনিক্যাপ ইনভেস্টমেন্টের বর্তমান নীট নেগেটিভ ইক্যুইটি রয়েছে ৭১ কোটি ৭৫ লাখ ৫১ হাজার ৬৫১ টাকা। এ অর্থের ওপর প্রতিষ্ঠানটি ১৬ কোটি ৫০ লাখ টাকা প্রভিশন সংরক্ষণ করেছে। যা প্রতিষ্ঠানটির বিতরণকৃত মোট মার্জিন ঋণের ২৩ শতাংশ।

কিন্তু এ বিষয়ে নিরীক্ষক প্রতিষ্ঠানটি জানায়, আগে মার্চেন্ট ব্যাংকগুলোকে গ্রস নেগেটিভ ইক্যুইটির ওপর প্রভিশনিং করতে হতো। কিন্তু প্রতিষ্ঠানটি গ্রস নেগেটিভ ইক্যুইটির ওপর না করে নীট নেগেটিভ ইক্যুইটির ওপর প্রভিশনিং করায় ২৫ কোটি ৬১ লাখ ৯৭ হাজার ৪১৩ টাকা ঘাটতি হয়েছে।

তবে নিরীক্ষক প্রতিষ্ঠানটি ইউনিক্যাপ ইনভেস্টমেন্ট মার্চেন্ট ব্যাংকটির নেগেটিভ এবং পজিটিভ ইক্যুইটি ব্যালেন্স সমন্বয়ে গঠিত মোট মার্জিন ঋণ পোর্টফোলিও থেকে প্রাপ্ত সুদ আয়কে স্বীকৃতি দিয়েছে।

এ বিষয়ে ইউনিক্যাপের ব্যবস্থাপনা পরিচালকের সাথে দেখা করতে চাইলে তিনি ছুটিতে আছেন বলে জানা যায়। পরবর্তীতে তার মোবাইল ফোন নাম্বারে যোগাযোগ করা হলে তিনি ফোন ধরেননি।

প্রসঙ্গত, পুঁজিবাজারের সূচকের অব্যাহত পতনের কারণে মার্চেন্ট ব্যাংকগুলোকে নেগেটিভ ইক্যুইটিতে থাকা মার্জিন ঋণের বিপরীতে প্রভিশনিং করতে নির্দেশনা দেয়া হয়। এ প্রভিশনিং ২৫ শতাংশ করে বছরে চারটি সংরক্ষণ করতে হবে।

 

শেয়ারবাজারনিউজ/তু/সা/ও

আপনার মন্তব্য

*

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Top