টিআইএন ধারী কর দাতাদের যেসব সুবিধা দেওয়া হলো

NBR_SharebazarNewsশেয়ারবাজার রিপোর্ট: টিআইএন এর জন্য নিয়মিত রিটার্ন জমা দিতে হয়। রিটার্নে কর হিসাবে ভুল আসলে অনেক ঝামেলা পোহান টিআইএন ধারীরা। তাই এমন করদাতার জন্য এবারের বাজেটে কিছুটা সুবিধা দেওয়া হয়েছে। এ জন্য আয়কর অধ্যাদেশের ৮২ বিবি ধারা সংশোধন করার প্রস্তাব করা হয়েছে।

পুঁজিবাজারে ডিভিডেন্ড আয় থেকে কর অব্যাহতি পেতে অনেকে ১২ অঙ্কের টিআইএন ব্যবহার করেন। কারণ টিআইএন ধারীরা ডিভিডেন্ড আয়ের উপর ১৫ শতাংশ কর থেকে ৫ শতাংশ রেয়াত পান। অর্থাৎ করদাতারা ডিভিডেন্ড আয়ের উপর ১০শতাংশ কর দেন। তাছাড়া কোম্পানির পরিচালক, স্পন্সর শেয়ারহোল্ডারদের বাধ্যতামূলক টিআইএন থাকতে হবে।

বাজেটে এই ধারাটি সংশোধন করায় করদাতারা স্বস্তি পাবেন। যেমন আপনি রিটার্ন জমা দিয়ে ফেলেছেন। এরপর কর কর্মকর্তা খুঁজে পেলেন আপনার রিটার্নে কিছু ভুল আছে। এমন পরিস্থিতিতে কর কর্মকর্তা ওই করদাতাকে এই ভুলটি জানিয়ে চিঠি দেবেন। ওই করদাতা ভুল সংশোধন করে পুনরায় রিটার্ন জমার সুযোগ পাবেন।

কর কর্মকর্তা রিটার্ন বিবরণী নিরীক্ষা করে কিছু না পেলে কর পরিমাণ পুনর্মূল্যায়ন করতে পারবেন না। যদি নিরীক্ষায় কর পাওনা হয়, তবে ওই করদাতাকে চিঠি দিয়ে কর দেওয়ার সুযোগ দিতে হবে। ওই করদাতা পুনরায় সংশোধিত রিটার্ন দাখিল করে কর দিতে পারবেন।

কোনো করদাতা যদি আগের বছরের চেয়ে ১৫ শতাংশ বেশি কর দেন; তবে ওই করদাতার কর নথি নিরীক্ষায় ফেলা যাবে না। এত দিন ২০ শতাংশের বেশি কর দিলে এই সুবিধা ভোগ করতেন করদাতারা।

শেয়ারবাজারনিউজ/আ

আপনার মন্তব্য

Top