লো-প্রাইসের শেয়ার কেনার টিপস

Financial-Litaracy-1শেয়ারবাজার রিপোর্ট: পুঁজিবাজারে কম দামি শেয়ার কি কি রয়েছে এমন তথ্যের জন্য মুখিয়ে থাকেন বিনিয়োগকারীরা। কম দামি শেয়ার কেনা মানেই বেশি লাভ এমনটা মনে করেই সাধারণত বিনিয়োগকারীদের ঝোঁক বাড়ে। তবে এই কম দামি শেয়ার বা লো-প্রাইসের শেয়ার অথবা প্যানি স্টকস কিনতে হলেও সাবধানতা অবলম্বন করতে হয়। না হলে কম দামি আরো কম দামি হয়ে লোকসানের কবলে পড়তে হয়। আজ শেয়ারবাজারনিউজ ডটকম পত্রিকার এই বিভাগে আমরা তুলে ধরছি লো-প্রাইসের শেয়ার কেনার ১০টি টিপস। আশা করছি এসব টিপস বিনিয়োগকারীরা অনুসরণ করলে বিনিয়োগকারীদের উপকার হবে।

০১. নিম্নমানের বাজার এড়িয়ে চলুন: প্রথমেই দেখুন বাজারের হাল-চাল কি। কারণ বাজার যদি ধারাবাহিক পতনের বাজার হয় তাহলে যে শেয়ারটি কেনার চিন্তা-ভাবনা করছেন সেটির দর আরো পড়বে। তাই ধৈর্য্য ধরুন। নিম্নমানের বাজার এড়িয়ে চলুন।

০২. ঋণ খেলাপী ও অস্তিত্ব সংকটের কোম্পানি এড়িয়ে চলুন: সাধারণত কোম্পানির শেয়ার দর পড়ে যায় তার আর্থিক অবস্থার ওপর। কোম্পানিটি ঋণ খেলাপী কিনা, অস্তিত্ব সংকটে রয়েছে কিনা এগুলো বিবেচনা করা খুবই গুরুত্বপূর্ণ  বিষয়। কারণ আমাদের পুঁজিবাজারে কিছু লো-প্রাইসের কোম্পানি রয়েছে যেগুলো ঋণ খেলাপীতে জর্জরিত। কিছুদিন পর ব্যাংক কোম্পানিটি বাজেয়াপ্ত করে অন্য কারো কাছে বিক্রি করে দেবে এটাই স্বাভাবিক। তাই কোম্পানির ভেতরের কিছু খবর নিয়ে বিনিয়োগের সিদ্ধান্ত নিন।

০৩. যে আপনাকে শেয়ার কিনতে বলছে সে বিক্রি করছে কিনা দেখুন: সে শেয়ার কিনে অনেকদিন ধরে লোকসান নিয়ে বসে আছে বা লাভ করার জন্য বাজারে গুজব ছড়িয়ে দিয়েছে এমন অবস্থায় সতর্ক থাকুন। কেউ আপনাকে লো-প্রাইসের ওমুক শেয়ার ভালো হবে এটা শুনেই সিদ্ধান্ত নিয়েন না। পরামর্শে কোনো স্বার্থ রয়েছে কিনা আগে দেখুন।  সে কি নিজের হাতে থাকা শেয়ার বিক্রি করার জন্য আপনাকে কিনতে বলছে কিনা তার গ্যারান্টি নিয়ে বিনিয়োগ করুন।

শেয়ারবাজারনিউজ/ম.সা

আপনার মন্তব্য

One Comment;

*

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Top