ঈদের ছুটির মধ্যেও কিছু ব্রাঞ্চে নেওয়া হবে আইএফআইসি ব্যাংকের রাইট আবেদন

IFIC copyশেয়ারবাজার রিপোর্ট: পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত ব্যাংক খাতের কোম্পানি আইএফআইসি ব্যাংকের রাইট শেয়ারের আবেদন ঈদ ছুটির মধ্যেও কিছু ব্রাঞ্চে নেওয়া হবে। তবে এলাকাভিত্তিক দিন ঠিক করেছে কোম্পানিটি।  ব্রাঞ্চগুলো হলো- ঢাকার মধ্যে উত্তরা শাখায়, চট্টগ্রামের আগ্রাবাদ, টঙ্গী, গুলশান, আশুলিয়া, মূল শাখা, গাজীপুর, সাভার, চট্টগ্রামের খাতুনগঞ্জ, নারায়ণগঞ্জ, সিলেটের প্রধান শাখা, আম্বারখানা, মৌলভী বজার, হবিগঞ্জ, সিলেট উপশহর শাখা এবং কক্সবাজার শাখা খোলা থাকবে।  ডিএসই সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

সূত্র মতে, আগামী ২৩ জুন থেকে ২৫ জুন ৯টা ৩০ মিনিট থেকে ১২টা ৩০ মিনিটে পর্যন্ত সংশ্লিষ্ট শাখাগুলোয় এই আবেদন গ্রহণ করা হবে। এর মধ্যে চট্টগ্রামের আগ্রাবাদ শাখায় নেওয়া হবে ২৩ থেকে ২৫ জুন পর্যন্ত; টঙ্গী, গুলশান, আশুলিয়া, মূল শাখা, গাজীপুর, সাভার, চট্টগ্রামের খাতুনগঞ্জ, নারায়ণগঞ্জ, উত্তরা শাখায় নেওয়া হবে ২৩ ও ২৪ জুন। আর সিলেটের প্রধান শাখা, আম্বারখানা, মৌলভী বজার, হবিগঞ্জ, সিলেট উপশহর শাখা এবং কক্সবাজার শাখায় নেওয়া হবে ২৪ জুন।

এর আগে গত ১৫ মার্চ বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) কোম্পানিটির রাইট শেয়ার ইস্যুর অনুমোদন দেয়। আইএফআইসি ব্যাংক ১:১ ভিত্তিতে (বিদ্যমান ১টি সাধারণ শেয়ারের বিপরীতে ১টি) রাইট শেয়ার ছাড়ে। প্রতিটি রাইট শেয়ারের অভিহিত মূল্য হবে ১০ টাকা।

এর আগের নির্দেশনা অনুযায়ী ৩১ মে থেকে আগামী ২৯ জুন পর্যন্ত আবেদন গ্রহণ করার কথা ছিল। কোম্পানিটির রাইট শেয়ার সংক্রান্ত রেকর্ড তারিখ ছিল গত ১২ এপ্রিল।

জানা গেছে,  ১০ টাকা মূল্যে কোম্পানিটি ৫৬ কোটি ৩৮ লাখ ২১ হাজার ৯০৭টি সাধারণ শেয়ার ছেড়ে বাজার থেকে ৫৬৩ কোটি ৮২ লাখ ১৯ হাজার ৭০ টাকা উত্তোলন করবে। এর মাধ্যমে কোম্পানিটি মূলধনের পর্যাপ্ততা এবং ব্যাসেল ৩-র আলোকে মূলধন ভিত্তি শক্তিশালী করবে।

৩০ জুন ২০১৬ সমাপ্ত অর্ধ-বার্ষিক আর্থিক বিবরণী অনুযায়ী কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি সম্পদ মূল্য (এনএভিপিএস) ছিল ২৪.৩৮ টাকা এবং শেয়ার প্রতি আয় ১.৬১ টাকা। এ রাইট ইস্যুর জন্য ইস্যু ম্যানেজার হিসেবে কাজ করেছে আইসিবি ক্যাপিটাল ম্যানেজমেন্ট লিমিটেড।

রাইট শেয়ার সংক্রান্ত ইস্যু ব্যবস্থাপনার দায়িত্বে রয়েছে আইসিবি ক্যাপিটাল ম্যানেজমেন্ট লিমিটেড।

শেয়ারবাজারনিউজ/এম.আর

আপনার মন্তব্য

*

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Top