আশ্বাসে আস্থা নেই: চাই বাস্তবায়্ন

চলতি বছরের শুরু থেকে এখন পর্যন্ত ৩৯ কার্যদিবস লেনদেন হয়েছে। এর মধ্যে ২২ কার্যদিবস সূচকের পতন হয়েছে। দৈনিক লেনদেন হয়েছে সর্বোচ্চ ৬২১ কোটি টাকা এবং সর্বনিম্ন ২৮৯ কোটি টাকা। সূচক ৬৩০০ পয়েন্ট থেকে ৫৮০০ পয়েন্টে নেমে এসেছে। গুজবের খপ্পরে এমনভাবেই বিনিয়োগকারীদের বেঁধে ফেলা হয়েছে যে এর থেকে বের হতে কোনো আশ্বাস আর কাজ করছে না। ব্যাংকগুলোর এডি রেশিও কমানো এবং দেশের রাজনৈতিক পরিস্থিতির কারণে গেল মাসে পুঁজিবাজারের ওপর যে ধকল গেছে সেটি কাটিয়ে উঠতে নতুন ওষুধ প্রয়োগ করা হয়েছে। এডি রেশিও কমিয়ে আনতে সময় দেয়া এবং ভারতকে বাদ দিয়ে চীনকে স্ট্যাট্রেজিক পার্টনার করতে ডিএসইর সাহসী ভূমিকা পালন করা বাজারের জন্য ইতিবাচক বার্তা নিয়ে এসেছে। অবশ্য স্ট্যাট্রেজিক পার্টনার ইস্যুতে ডিএসই’র ব্যবস্থাপনা পরিচালক কতিপয় ভারত প্রেমীদের কাছ থেকে তিক্ত ব্যবহার পেয়েও তার শক্ত অবস্থান বিনিয়োগকারীদের প্রশংসা কুড়িয়েছে।

এখন বাজারের বিভিন্ন স্তর থেকে বিনিয়োগকারীদের সুখবর দেয়া হচ্ছে যে পুঁজিবাজারে ব্যাংকগুলোর এক্সপোজার গণনায় পরিবর্তন আনা হবে। ব্যাংকগুলোর পুঁজিবাজার এক্সপোজার গণনায় যেন শেয়ারের ক্রয়মূল্যে হিসেব করা হয় সেজন্য বিভিন্ন মহলের তোড়জোড় চলছে। এছাড়া তালিকাভুক্ত নয় এমন খাতে বা কোম্পানিতে বিনিয়োগ এক্সপোজারের বাইরে রাখার চিন্তা-ভাবনা চলছে। বাংলাদেশ ব্যাংকও এ বিষয়ে ইতিবাচক অবস্থানে রয়েছে। এ ইস্যুটি বাস্তবায়ন হলে পুঁজিবাজারে ব্যাংকগুলোর প্রচুর পরিমাণ অর্থ বিনিয়োগের সুযোগ ঘটবে যা বাজারের তারল্য সংকট কাটাতে সহায়ক ভূমিকা পালন করবে।

কিন্তু বরাবরের মতোই অদৃশ্য শক্তির কাছে পরাজিত হতে হয় বিনিয়োগকারীদের। দৈনন্দিন টক শো থেকে শুরু করে ফিন্যান্সিয়াল লিটারেসির বিভিন্ন কার্যক্রমে যতই তোতা পাখির মতো বুঝানো হোক না কেন, ফান্ডামেন্টাল শেয়ারে বিনিয়োগ করে আজ অনেকের ফান্ড হারিয়ে মেন্টাল হওয়ার অবস্থা তৈরি হয়েছে। অ্যানালাইসিসে ব্যর্থ হয়ে তাইতো কেউ কেউ আবার মু’বলা মামুদের আখড়ায় ভীড় জমায় নিজের ক্ষতিটা পুষিয়ে নেয়া কিংবা ডিম থেকে বাচ্চা বের করার জন্য। সবাই চায় পুঁজিবাজার নিজ গতিতে চলুক। কিন্তু যতদিন গুজবের কানাকানি থাকবে ততদিন এ মার্কেট নিজ গতিতে চলতে পারবে না। এখন যত শিগগির এক্সপোজার ইস্যু নিয়ে বাংলাদেশ ব্যাংকের নতুন নির্দেশনা চলে আসবে তত তাড়াতাড়ি মার্কেট দোলাচল থেকে বেরিয়ে একটি অবস্থানে চলে আসবে।

 

শেয়ারবাজারনিউজ/ম.সা

আপনার মন্তব্য

*

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Top