ঝাল খাবার ক্যান্সার ঝুঁকি কমায়!

শেয়ারবাজার ডেস্ক: ঝাল খাবার ক্যান্সার ঝুঁকি কমায়! এটা কি আসলেই সত্য? এই প্রশ্ন সবার মনে জাগতে পারে। এখন যারা কম ঝাল খান তারা হয়তো ভাবছেন। কেন ঝাল খেতে পারি না। অন্যদিকে যারা বেশি ঝাল খেতে পারেন তাদের জন্য ভালো সংবাদ। কেননা, ঝাল খাবার খেলে শারীরিক সুবিধা পাওয়া যায়। অনেক রোগ থেকে বাঁচা যায়। আর হ্যাঁ, যাদের ঝাল খাওয়ার অভ্যাস নেই, তারা এখন থেকে ঝাল খাওয়ার অভ্যাস শুরু করে দিন।

এ ব্যাপারে গবেষকরা বলছেন, প্রত্যেক দিন মসলা জাতীয় খাবার, এর মধ্যে বিশেষ করে কাঁচা বা শুকনো মরিচ ক্যান্সার, ফুঁসফুসের অসুখ, হৃদযন্ত্রের অসুস্থতা বা ডায়াবেটিসের মতো কঠিন রোগ থেকে মানুষের মৃত্যু ঝুঁকি অনেকাংশে কমায়।

চীনের একটি গবেষণায় দেখা গেছে, দৈনিক যারা মসলা জাতীয় খাবার খান, তাদের মৃত্যু ঝুঁকি আর যারা সপ্তাহে এক বারেরও কম মসলা জাতীয় খাবার খান, তাদের তুলনায় চেয়ে ১৪ শতাংশ কম।

এই গবেষণায় নারী এবং পুরুষ উভয়ের ক্ষেত্রে একই ফল পাওয়া গেছে। এমনকি যারা অ্যালকোহল পান করেনি তাদের ক্ষেত্রে আরো বেশি ইতিবাচক ফল এসেছে।

গবেষকদের দাবি, বেশি বেশি মসলাদার খাবার খেলে ক্যান্সার, হৃদরোগ ও শ্বাসযন্ত্র রোগে মৃত্যুর ঝুঁকি অনেকাংশে কমে।

চীনা একাডেমি অব মেডিকেল সায়েন্সের নেতৃত্বে আন্তর্জাতিক একটি গবেষকদল ৩০-৭৯ বছর বয়সী ৪ লাখ ৮৭ হাজার ৩৭৫ জনের ওপর গবেষণাটি পরিচালনা করেন।

ওই গবেষকদল প্রত্যেক দিন মসলা জাতীয় খাবার খাওয়ার সঙ্গে মানুষের মৃত্যুর কারণ ও ঝুঁকির বিষয়টি ভারো ভাবে খতিয়ে দেখেন। গবেষকরা জানিয়েছেন, যারা বেশি করে ঝাল খান, তাদের ক্ষেত্রে এটা বেশ স্পষ্ট।

তারা বলেন, এক্ষেত্রে মরিচের উপাদান সহায়ক হয়। কেননা, মরিচের প্রধান উপাদান ‘ক্যাপসাইসিনের’ মধ্যে প্রচুর পরিমাণ ভিটামিন সি ও অন্যান্য আরো বহু পুষ্টিগুণ আছে। যা অনেক রোগ প্রতিরোধ করতে সাহায্য করে।

এ কারণে বেশি পরিমাণে ঝাল খান নিজেকে এই রোগগুলোর হাত থেকে সুরক্ষিত রাখুন।

শেয়ারবাজারনিউজ/মু

আপনার মন্তব্য

*

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Top