Tag Archives: বিদেশি বিনিয়োগ

শেয়ার ছেড়ে দিচ্ছেন বিদেশিরা

শেয়ার ছেড়ে দিচ্ছেন বিদেশিরা

শেয়ারবাজার রিপোর্ট: চলতি বছরের মে মাসে শেয়ারবাজারে বিদেশি বিনিয়োগকারীরা শেয়ার কেনার চেয়ে বিক্রি বেশি করেছেন। আর এ বিক্রির পরিমাণ এক মাসের হিসাবে সর্বোচ্চ। ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) সূত্রে এই তথ্য জানা গেছে। এর আগে ২০১৭ এর নভেম্বরে বিদেশিরা সর্বোচ্চ ৬১৭ কোটি টাকার শেয়ার বিক্রি করেছিল। সেই মাসে যদিও ৬৩৫ কোটি টাকার শেয়ার কিনেও ছিল ‍বিদেশিরা। তথ্যানুযায়ী, মে

এপ্রিলে বিদেশিদের বিনিয়োগ কমেছে

শেয়ারবাজার রিপোর্ট: চলতি বছরের এপ্রিল মাসে শেয়ারবাজারে বিদেশি বিনিয়োগকারীরা শেয়ার কেনার চেয়ে বিক্রি বেশি করেছেন। ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) সূত্রে এই তথ্য জানা গেছে। তথ্যানুযায়ী, এপ্রিল মাসে বিদেশি পোর্টফোলিওতে শেয়ার কেনা হয়েছে ৫০৩ কোটি টাকার। আর বিক্রি করেছে ৫২৮ কোটি টাকার শেয়ার। সেই হিসাবে পোর্টফোলিওতে প্রকৃত বিনিয়োগ কমেছে ২৫ কোটি টাকা। গত মার্চ মাসে বিদেশি

লেনদেনে ফিরছে বিদেশি বিনিয়োগকারী

শেয়ারবাজার রিপোর্ট: চলতি বছরের শুরুতে দেশের শেয়ারবাজারে যে আস্থার সংকট দেখা দিয়েছিলো বর্তমানে তা কাটিয়ে উঠেছে। প্রতিদিনই বাড়ছে সূচক ও লেনদেন। এমনকি অনেক ভালো কোম্পানির শেয়ারের মূল্য আকর্ষণীয় পর্যায়ে নেমে এসেছে। ফলে বিদেশিরা বিনিয়োগ বাড়াচ্ছে। যার প্রতিফলন দেখা গেছে শেয়ারবাজারে। চলতি মাসের (১-১৫ মার্চ ) প্রথম পক্ষে শেয়ারবাজারে বিদেশিদের নিট বিনিয়োগ বেড়েছে ২০.০১ শতাংশ। এ বিষয়ে একাধিক

বিদেশিরা শেয়ার বিক্রয়ের চেয়ে কিনেছেন বেশি

শেয়ারবাজার রিপোর্ট: চলতি বছরের প্রথম মাসে শেয়ারবাজারে বিদেশি বিনিয়োগকারীরা শেয়ার বিক্রয়ের চেয়ে কিনেছেন বেশি। জানুয়ারি মাসে বিদেশি বিনিয়োগকারীদের শেয়ার কেনার হার বেড়েছে ৩৯ শতাংশ। ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) সূত্রে এই তথ্য জানা গেছে। তথ্যানুযায়ী, জানুয়ারি মাসে বিদেশি পোর্টফোলিওতে শেয়ার কেনা হয়েছে ৬৬৭ কোটি ৪৩ লাখ ৫৯ হাাজর ৭২১ টাকার শেয়ার। আর পোর্টফোলিওতে শেয়ার বিক্রি হয়েছে

নভেম্বরে বিদেশিদের লেনদেন বেড়েছে

শেয়ারবাজার রিপোর্ট: নভেম্বর মাসে পুঁজিবাজারে বিদেশি ও প্রবাসী বিনিয়োগকারীদের শেয়ার কেনা-বেচা বেড়েছে। তবে প্রকৃত বিদেশি বিনিয়োগ কমেছে। ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই)র তথ্য মতে, নভেম্বর মাসে বিদেশিরা মোট ১ হাজার ২৫৩ কোটি ৪৩ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন করেছেন। এর আগের মাস অক্টোবরে লেনদেন হয়েছিলো ৬৪২ কোটি টাকার। যা আগের মাসের চেয়ে ৬১১ কোটি ৩৪ লাখ টাকা বেশি। লেনদেনের

শেয়ার বিক্রি বেড়েছে বিদেশিদের

শেয়ারবাজার রিপোর্ট: দেশের প্রধান এক্সচেঞ্জ ডিএসই’র প্রধান সূচক রেকর্ড অবস্থানে রয়েছে। জুলাই মাসেই সূচক বেড়েছে ২০৬ পয়েন্ট। আর এসময়ে বিদেশিরা শেয়ার বিক্রি করেছেন বেশি। অপরদিকে সূচকের উত্থানের সময় তারা প্রকৃত বিনিয়োগ কম করেছেন। ডিএসই সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে। বাজার সংশ্লিষ্টরা বলছেন, মে ও জুন মাসে সূচক নিচের দিকে ছিল। সেই সময় বিদেশিদের প্রকৃত বিনিয়োগ বেড়েছে। জুলাই

ব্যাংকে বিদেশি ও প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ বেড়েছে

শেয়ারবাজার রিপোর্ট: পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত ১২ ব্যাংকের শেয়ারে বিদেশি বিনিয়োগ বেড়েছে, কমেছে ৫ ব্যাংকে। অপরদিকে ১১ ব্যাংকে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ বেড়েছে, কমেছে ১০ ব্যাংকে। চলতি বছরের জুন মাসে ব্যাংকগুলোর শেয়ারে বিনিয়োগের তথ্য পর্যালোচনায় এমনটি জানা গেছে। ডিএসই সূত্রে জানা যায়, জুন মাসে বিদেশি বিনিয়োগ সবচেয়ে বেশি বেড়েছে ব্র্যাক ব্যাংকে। মে মাসে ব্যাংকটির শেয়ারে বিদেশিদের বিনিয়োগ ছিল ৪১.৮৭ শতাংশ। জুন মাসে বিনিয়োগ ০.৯১ শতাংশ বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৪২.৭৮ শতাংশে। এছাড়া মে

বস্ত্র খাতের যেসব কোম্পানিতে প্রাতিষ্ঠানিক ও বিদেশি বিনিয়োগ বেড়েছে

শেয়ারবাজার রিপোর্ট: পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত বস্ত্র খাতের ৫ কোম্পানির শেয়ারে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ বেড়েছে, কমেছে ২০ কোম্পানিতে। অপরদিকে ৪ কোম্পানিতে বিদেশী বিনিয়োগ বেড়েছে আর কমেছে ১ কোম্পানিতে। চলতি বছরের মে মাসে কোম্পানিগুলোর শেয়ারে বিনিয়োগের তথ্য পর্যালোচনায় এমন তথ্য জানা গেছে। ডিএসই সূত্রে জানা যায়, প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ সবচেয়ে বেশি বেড়েছে আলহাজ্ব টেক্সটাইলে। এপ্রিল মাসে কোম্পানির শেয়ারে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগ ছিল

মার্চে ৭১১ কোটি টাকার শেয়ার কিনেছেন বিদেশিরা

শেয়ারবাজার রিপোর্ট: দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) বিদেশি বিনিয়োগকারীদের (বিদেশী ও প্রবাসী) ৪৫৯ কোটি ৩১ লাখ টাকার বা ৭৩ শতাংশ আর্থিক লেনদেন বেড়েছে। চলতি বছরের ফেব্রুয়ারি মাসের তুলনায় মার্চ মাসে এই লেনদেন বেড়েছে। ডিএসই সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে। মার্চ মাসে ডিএসইতে বিদেশী ও প্রবাসী বিনিয়োগকারীরা ১ হাজার ৯২ কোটি ২০ লাখ টাকার

শেয়ারে বিদেশিদের সরাসরি বিনিয়োগের সুযোগ দিল বাংলাদেশ ব্যাংক

শেয়ারবাজার রিপোর্ট: বিদেশি বিনিয়োগকারীরা নিজেদের হিসাব থেকে বাংলাদেশি টাকায় সরাসরি দেশীয় কোম্পানির শেয়ারে বিনিয়োগ করতে পারবেন। তাই এখন থেকে মুদ্রার মান পরিবর্তনজনিত কোন ঝুঁকিতে পড়তে হবে না বিদেশিদের জানিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক। গতকাল প্রজ্ঞাপনের মাধ্যমে বিষয়টি স্পষ্ট করে সকল ব্যাংককে (টাকার অথোরাইজড ডিলার) ব্যাখ্যা দিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। প্রজ্ঞাপনে,  ফরেইন এক্সচেঞ্জ ট্রাঞ্জেকশন-২০০৯ বিধিমালার চ্যাপ্টার ৯ এর পরিচ্ছদ

Top