তুং হাই নিটিংয়ের ব্যবস্থা নিতে বিএসইসিতে চিঠি

শেয়ারবাজার রিপোর্ট: পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত তুং হাই নিটিং অ্যান্ড ডাইং লিমিটেড বিনিয়োগকারীদের কোনো ডিভিডেন্ড দিচ্ছে না। কোম্পানিটি ৩০ জুন ২০১৭ সমাপ্ত অর্থবছরের তৃতীয় প্রান্তিক আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশ করার পর এখন পর্যন্ত কোনো আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশ করেনি। ২০১৭ অর্থবছরের ডিভিডেন্ড সংক্রান্ত কোনো সিদ্ধান্ত না নেওয়া, বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) না করার কারণে তুং হাই নিটিংয়ের অবস্থান ‘জেড’ ক্যাটাগরিতে। অন্যদিকে দিনের পর কোম্পানির শেয়ার দর তলানিতে নামায় ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছেন সাধারণ বিনিয়োগকারীরা।

আর এ বিষয়ে জরুরি ভিত্তিতে ব্যবস্থা নিতে বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনে (বিএসইসি) চিঠি দিয়েছেন কোম্পানির একজন শেয়ারহোল্ডার। তার নাম মো: মনোয়ারুল ইসলাম (বিও নং: ১২০১৯০০০৪৯৯৩৩২০৭)। চিঠিতে উল্লেখ করা হয়, তুং হাই নিটিংয়ের চেয়ারম্যান, পরিচালক উদ্দেশ্য প্রণোদিতভাবে কোম্পানি পরিচালনা করতে গড়িমসি করছে ও উৎপাদন বন্ধ রেখেছে। কোম্পানিটি বিনিয়োগকারীদের কোনো লভ্যাংশ করছে না এবং সঠিক সময়ে এজিএম সম্পন্ন করছে না।

তাই বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের মাধ্যমে সুষ্ঠু তদন্ত করে কোম্পানির পরিচালনা পর্ষদ ভেঁঙ্গে নতুন পরিচালনা পর্ষদ গঠন ও পুনরায় কোম্পানির উৎপাদন চালু রাখার জন্য আহবান জানিয়েছেন কোম্পানির শেয়ারহোল্ডার মো: মনোয়ারুল ইসলাম।

উল্লেখ্য, ২০১৪ সালে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত হওয়া তুংহাই নিটিংয়ের অনুমোদিত মূলধন ১৫০ কোটি টাকা ও পরিশোধিত মূলধন ১০৬ কোটি ৬৫ লাখ ৩০ হাজার টাকা। এর রিজার্ভ ও সারপ্লাসের পরিমাণ ২১ কোটি ৭২ লাখ টাকা। পুঁজিবাজার থেকে অর্থ নিয়ে এখনো পর্যন্ত কোম্পানিটি কোনো প্রকার ক্যাশ ডিভিডেন্ড প্রদান করেনি। ২০১৫-১৬ অর্থবছরে কোম্পানিটি সর্বশেষ ১০ শতাংশ স্টক ডিভিডেন্ড প্রদান করে। ১০ টাকা ফেসভ্যালুর এ কোম্পানির বর্তমান শেয়ার দর ৫.১০ টাকা। এর মোট ১০ কোটি ৬৬ লাখ ৫৩ হাজার ৩০টি শেয়ারের মধ্যে পরিচালনা পর্ষদের কাছে রয়েছে ৩০.০৪ শতাংশ, প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারী ৫.৬২ শতাংশ এবং সাধারণ বিনিয়োগকারীদের কাছে রয়েছে ৬৪.৩৪ শতাংশ শেয়ার।

 

শেয়ারবাজারনিউজ/ম.সা

আপনার মন্তব্য

*

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Top