আজ: মঙ্গলবার, ১১ মে ২০২১ইং, ২৯শে বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৮শে রমজান, ১৪৪২ হিজরি

সর্বশেষ আপডেট:

২৩ মার্চ ২০২১, মঙ্গলবার |


সুনামগঞ্জে মাইকে ঘোষণা দিয়ে গ্রামবাসীর সংঘর্ষে আহত অর্ধ শতাধিক

জাতীয় ডেস্ক: সুনামগঞ্জের ছাতকে মাইকে ঘোষণা দিয়ে হাসনাবাদ ও করছখালী দুই গ্রামবাসীর মধ্যে সংঘর্ষে অর্ধশতেরও বেশি লোক আহত হয়েছেন।

আজ মঙ্গলবার বেলা ১২ টায় উপজেলার কালারুকা ইউনিয়নের হাসনাবাদ গ্রামের মাঠে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

সংঘর্ষে গুরুতর আহতাবস্থায় হাসনাবাদ গ্রামের কদরুল ইসলাম, সদরুল ইসলাম, আরশ আলী, শামছু মিয়া, সাগর আহমদ এবং করছখালী গ্রামের শামসুল হক, সফির উদ্দিন সাদ্দাম, বিলাল আহমদ, নুমান আহমদ ওয়ারিছ আলী, সফিকুল হক, সাহাব উদ্দিনসহ ২০ জনকে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

স্থানীয়রা জানান, গতকাল সোমবার সন্ধ্যায় হাসনাবাদ বাজারে গাড়ি পার্কিং নিয়ে করছখালী গ্রামের ওলিউর রহমান ও হাসনাবাদ গ্রামের রুহুল আমিনের মধ্যে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। এ ঘটনার জের ধরে মঙ্গলবার সকালে মাইকে ঘোষণা দিয়ে দুই গ্রামবাসী সংঘর্ষে লিপ্ত হয়। দুই ঘণ্টা সংঘর্ষের পর স্থানীয় লোকজন ও পুলিশের চেষ্টায় পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে।

এ ঘটনায় নুরুল ইসলাম, সুজন মিয়া, রইছ আলী, বাহা উদ্দিন শাহী, খালিদ মিয়া, আব্দুল হাই, আরকান আলী, হাবিবুর রহমান হবীল, জয়নাল মিয়া, নুর আলম, আব্দুর রহিম, আব্দুল আউয়াল, কবির আহমদ, আব্দুল আলীম, জাহির আলী, ছোরাব আলী, মামুন আহমদ, হাফিজুর রহমান, ওলিউর রহমান, লোকমান আহমদ, আব্দুল বাসিত, দুলাল আহমদ, সাইদুল মিয়া, খছরু মিয়া, আজাদ মিয়া, আব্দুস সবুর, খালেদ মিয়াসহ অর্ধশতেরও বেশি লোক আহত হয়েছেন। আহতদের ছাতক হাসপাতালে ভর্তি ও চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

ছাতক থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নাজিম উদ্দিন মঙ্গলবার দুপুরে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

ওসি জানান, এ ঘটনায় বেশ কিছু লোক আহত হয়েছেন। ঘটনাস্থলে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। বর্তমানে পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে।

আপনার মতামত দিন

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.