আজ: শুক্রবার, ৩০ জুলাই ২০২১ইং, ১৫ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৮ই জিলহজ, ১৪৪২ হিজরি

সর্বশেষ আপডেট:

০৭ জুলাই ২০২১, বুধবার |



kidarkar

ব্লক মার্কেটে ৯৩ কোটি টাকার লেনদেন

শেয়ারবাজার ডেস্ক: সপ্তাহের তৃতীয় কার্যদিবস বুধবার (৭ জুলাই) ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) ব্লক মার্কেটে ৪০টি কোম্পানির ৯৩ কোটি ৭৪ লাখ ৩৭ হাজার টাকার লেনদেন হয়েছে। ডিএসই সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

জানা গেছে, কোম্পানিগুলোর ৯৫ লাখ ২০ হাজার ৭০২টি শেয়ার ৭৩ বার হাত বদল হয়েছে। এর মাধ্যমে কোম্পানিগুলোর ৯৩ কোটি ৭৪ লাখ ৩৭ টাকার লেনদেন হয়েছে।

কোম্পানিগুলোর মধ্যে ৭ কোম্পানির বড় লেনদেন হয়েছে। এরমধ্যে সবচেয়ে বেশি শেয়ার লেনদেন হয়েছে ব্রিটিশ আমেরিকান টোবাকোর। কোম্পানিটির শেয়ার লেনদেন হয়েছে ২৭ কোটি ৭৭ লক্ষ ৪৬ হাজার টাকার।

দ্বিতীয় সর্বোচ্চ সোনালী পেপারের ২৩ কোটি ৩০ লক্ষ ১৬ হাজার টাকার, তৃতীয় সর্বোচ্চ সফকো স্পিনিংয়ের ৬ কোটি টাকার, চতুর্থ সর্বোচ্চ বেক্সিমকোর ৫ কোটি ২০ লক্ষ ৬৫ হাজার টাকার, পঞ্চম সর্বোচ্চ এশিয়া ইন্স্যুরেন্সের ৪ কোটি ৬০ লক্ষ ৭২ হাজার টাকার, ষষ্ঠ সর্বোচ্চ ইস্টার্ন ইন্সুরেন্সের ৪ কোটি ২০ লক্ষ ২৩ হাজার টাকার, সপ্তম সর্বোচ্চ ফরচুন সুজের ৪ কোটি ৬ লক্ষ ৫৫ হাজার টাকার লেনদেন হয়েছে।

তাছাড়া, জেনেক্স ইনফোসিসের ৩ কোটি ১২ লক্ষ ৮০ হাজার টাকার, স্কয়ার ফার্মার ২ কোটি ১৬ লক্ষ ৮৭ হাজার টাকার, গ্রামীণফোনের ১ কোটি ৭০ লক্ষ ৫২ হাজার টাকার, সিঙ্গার বিডির ১ কোটি ৫০ লক্ষ ৬৩ হাজার টাকার, ডেল্টা লাইফের ১ কোটি ৯ লক্ষ ৫২ হাজার টাকার, গ্রীন ডেল্টার ৯৩ লক্ষ ৬৯ হাজার টাকার, ডাচ বাংলা ব্যাংকের ৭৪ লক্ষ ৭০ হাজার টাকার, বিকন ফার্মার ৬৫ লক্ষ ৫০ হাজার টাকার, কাশেম ইন্ডাস্ট্রিজের ৬৪ লক্ষ ৯৯ হাজার টাকার, ফুয়াং সিরামিকের ৫৬ লক্ষ ৭০ হাজার টাকার, ইস্টার্ন হাউজিংয়ের ৫৩ লক্ষ ৯৮ হাজার টাকার, সালভো কেমিক্যালের ৫৩ লক্ষ ২৯ হাজার টাকার, পাওয়ার গ্রিডের ৪৬ লক্ষ টাকার, আলিফ ইন্ডাস্ট্রিজের ৪১ লক্ষ ৩৮ হাজার টাকার, আরডি ফুডের ৩৯ লক্ষ ৫৩ হাজার টাকার, ম্যাকসন স্পিনিংয়ের ৩৬ লক্ষ ২৪ হাজার টাকার, ব্র্যাক ব্যাংকের ৩৫ লক্ষ ৭৮ হাজার টাকার, এনআরবিসি ব্যাংকের ২৯ লক্ষ ৩২ হাজার টাকার, আমান ফিডের ২৭ লক্ষ ৭১ হাজার টাকার, ন্যাশনাল ফিড মিলের ২৪ লক্ষ ৬০ হাজার টাকার, সিলকো ফার্মার ২১ লক্ষ ৪৭ হাজার টাকার, বাংলাদেশ শিপিং কর্পোরেশনের ২১ লক্ষ ৩৯ হাজার টাকার, আইসিবিআই ব্যাংকের ২১ লক্ষ ১৫ হাজার টাকার, ভিএফএস থ্রেডের ১৩ লক্ষ ৭৫ হাজার টাকার, গ্রামীন টু-এর ১০ লক্ষ ৮০ হাজার টাকার, ইসলামিক ইন্স্যুরেন্সের ১০ লক্ষ ৭৪ হাজার টাকার, জিবিবি পাওয়ারের ১০ লক্ষ ৩২ হাজার টাকার, এস আলমের ৯ লক্ষ টাকার, সি-পার্লের ৮ লক্ষ ২৮ হাজার টাকার, ইন্টার্নেশনাল লিজিংয়ের ৮ লক্ষ ২০ হাজার টাকার, নর্দান ইন্স্যুরেন্সের ৭ লক্ষ ৪৮ হাজার টাকার, গ্লোবাল ইন্স্যুরেন্সের ৬ লক্ষ ৬০ হাজার টাকার, এবি ব্যাংকের ৫ লক্ষ ৬৮ হাজার টাকার লেনদেন হয়েছে।

আপনার মতামত দিন

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.