আজ: বুধবার, ১৭ অগাস্ট ২০২২ইং, ২রা ভাদ্র, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ১৭ই মহর্‌রম, ১৪৪৪ হিজরি

সর্বশেষ আপডেট:

২৭ অগাস্ট ২০২১, শুক্রবার |



kidarkar

বিশ্বে করোনায় একদিনে ১০ হাজারের ও বেশি মৃত্যু

শেয়ারবাজার ডেস্ক: বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ও প্রাণহানির সংখ্যা কমেছে। গত ২৪ ঘণ্টায় সারা বিশ্বে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ১০ হাজার ৭১০ জন। অর্থাৎ আগের দিনের তুলনায় মৃত্যু কমেছে প্রায় সাড়ে চারশ। এতে বিশ্বজুড়ে মৃতের সংখ্যা পৌঁছেছে ৪৪ লাখ ৮৮ হাজার ৮০১ জনে।

একই সময়ের মধ্যে ভাইরাসটিতে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৭ লাখ ৭ হাজার ৯৭৯ জন। অর্থাৎ আগের দিনের তুলনায় নতুন শনাক্ত রোগীর সংখ্যা কমেছে প্রায় ৮ হাজার। এতে মহামারির শুরু থেকে ভাইরাসে আক্রান্ত মোট রোগীর সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২১ কোটি ৫৪ লাখ ৮৮ হাজার ৮৮০ জনে। সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ১৯ কোটি ২৬ লাখ ৭৪ হাজার ৬৮৭ জন।

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ও প্রাণহানির পরিসংখ্যান রাখা ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডওমিটার থেকে শুক্রবার (২৭ আগস্ট) সকালে এই তথ্য জানা গেছে।

ওয়ার্ল্ডওমিটারের সবশেষ তথ্য অনুযায়ী, করোনায় এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি সংক্রমণ ও মৃত্যু হয়েছে বিশ্বের ক্ষমতাধর দেশ যুক্তরাষ্ট্রে। তালিকায় শীর্ষে থাকা দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনা সংক্রমিত হয়েছেন ৩ কোটি ৯৩ লাখ ৪২ হাজার ১৫৩ জন এবং মারা গেছেন ৬ লাখ ৫১ হাজার ৯৫৬ জন।

করোনায় আক্রান্তের তালিকায় দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে প্রতিবেশি দেশ ভারত। তবে ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃতের তালিকায় দেশটির অবস্থান চতুর্থ। দেশটিতে মোট আক্রান্ত ৩ কোটি ২৬ লাখ ২ হাজার ৩২৫ জন এবং মারা গেছেন ৪ লাখ ৩৬ হাজার ৮৮৯ জন।

লাতিন আমেরিকার দেশ ব্রাজিল করোনায় আক্রান্তের দিক থেকে তৃতীয় ও মৃত্যুর সংখ্যায় তালিকায় দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে। দেশটিতে মোট শনাক্ত রোগী ২ কোটি ৬ লাখ ৭৬ হাজার ৫৩১ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ৫ লাখ ৭৭ হাজার ৬০৫ জনের।

অন্যদিকে গত ২৪ ঘণ্টায় দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার দেশ ইন্দোনেশিয়ায় করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ৮৮৯ জন এবং নতুন করে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ১৬ হাজার ৮৯৯ জন। এছাড়া মহামারির শুরু থেকে দেশটিতে মোট শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ৪০ লাখ ৪৩ হাজার ৭৩৬ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ১ লাখ ৩০ হাজার ১৮২ জনের।

এছাড়া এখন পর্যন্ত ফ্রান্সে ৬৬ লাখ ৯৩ হাজার ১৯ জন, রাশিয়ায় ৬৮ লাখ ২৪ হাজার ৫৪০ জন, যুক্তরাজ্যে ৬৬ লাখ ২৮ হাজার ৭০৯ জন, ইতালিতে ৪৫ লাখ ৯ হাজার ৬১১ জন, তুরস্কে ৬২ লাখ ৯৩ হাজার ২৯৭ জন, স্পেনে ৪৮ লাখ ২২ হাজার ৩২০ জন, জার্মানিতে ৩৯ লাখ ১৩ হাজার ৯৪৫ জন এবং মেক্সিকোতে ৩২ লাখ ৭১ হাজার ১২৮ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন।

অন্যদিকে করোনায় আক্রান্ত হয়ে এখন পর্যন্ত ফ্রান্সে এক লাখ ১৩ হাজার ৭৭৫ জন, রাশিয়ায় এক লাখ ৭৯ হাজার ২৪৩ জন, যুক্তরাজ্যে এক লাখ ৩২ হাজার ১৪৩ জন, ইতালিতে এক লাখ ২৮ হাজার ৯৫৭ জন, তুরস্কে ৫৫ হাজার ৪৬৯ জন, স্পেনে ৮৩ হাজার ৮৬১ জন, জার্মানিতে ৯২ হাজার ৫৯৭ জন এবং মেক্সিকোতে ২ লাখ ৫৫ হাজার ৪৫২ জন মারা গেছেন।

প্রসঙ্গত, ২০১৯ সালের ডিসেম্বরে চীন থেকে সংক্রমণ শুরু হওয়ার পর বিশ্বব্যাপী ছড়িয়েছে প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস। গত বছরের ১১ মার্চ করোনাভাইরাস সংকটকে মহামারি ঘোষণা করে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও)।

আপনার মতামত দিন

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.