আজ: সোমবার, ০৪ জুলাই ২০২২ইং, ২০শে আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৩রা জিলহজ, ১৪৪৩ হিজরি

সর্বশেষ আপডেট:

০৯ সেপ্টেম্বর ২০২১, বৃহস্পতিবার |



kidarkar

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের জন্য বাংলাদেশের জন্য দল ঘোষণা

স্পোর্টস ডেস্ক: আগামী মাসে পর্দা উঠবে ক্রিকেটের মেগা আসর টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ। এই টুর্নামেন্টের জন্য মাহমুদউল্লাহর নেতৃত্বে ১৫ সদস্যের দল ঘোষণা করেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)।

আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে আনুষ্ঠানিক সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত হয়ে দল ঘোষণা করেছেন বিসিবির তিন নির্বাচক—মিনহাজুল আবেদীন নান্নু, হাবিবুল বাশার ও আব্দুল রাজ্জাক।

আগামী ১৭ অক্টোবর থেকে ওমান-পর্ব দিয়ে মাঠে গড়াবে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ। এর জন্য চলতি মাসের ১০ তারিখের মধ্যে স্কোয়াড জমা দেওয়ার সময়সীমা বেঁধে দিয়েছে ক্রিকেটের নিয়ন্ত্রক সংস্থা-আইসিসি। সময়সীমা শেষ হওয়ার আগের দিন আজ দল ঘোষণা করল বিসিবি।

বিশ্বকাপের আগে অস্ট্রেলিয়া ও নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজ নিয়ে ব্যস্ত সময় পার করছে বাংলাদেশ। ধারণা করা হচ্ছিল, এই দুই সিরিজের দলে থাকা ক্রিকেটারেরাই কাটবেন ওমান ও দুবাইয়ের টিকেট। ব্যতিক্রম হয়নি। ঘুরেফিরে এই দুই সিরিজের ক্রিকেটারেরাই আছেন বিশ্বকাপের স্কোয়াডে।

অনুমিতভাবেই বিশ্বকাপের দলে নেই দেশসেরা ওপেনার তামিম ইকবাল। লম্বা সময় ধরে এই ফরম্যাটে খেলছেন না বলে নিজে থেকেই সরে দাঁড়িয়েছেন বাঁ-হাতি এই ওপেনার। তামিম না থাকায় ভাগ্য খুলেছে সৌম্য সরকারের। ডানহাতি ওপেনার লিটন দাস ও মোহাম্মদ নাঈমের সঙ্গে বাড়তি ওপেনার হিসেবে টিকে গেছেন তিনি।

ওপেনারের পরেই আসেন তিন নম্বর পজিশন। এই পজিশনে যাঁরাই ব্যাট করেন, তাঁদের প্রায়ই রাখতে হয় ওপেনারের ভূমিকা। খেলতে হয় নতুন বলে। এ ক্ষেত্রে সাকিব আল হাসানে বাংলাদেশের আস্থা। চার নম্বর পজিশনে আছেন ‘মিস্টার ডিপেন্ডেবল’ মুশফিকুর রহিম। আর, পাঁচ নাম্বার পজিশনে অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ।

এরপর আছেন তরুণ আফিফ হোসেন ধ্রুব। মুশফিক টি-টোয়েন্টিতে উইকেটকিপিং ছেড়ে দেওয়া কপাল খুলেছে নুরুল হাসান সোহানের। কিপার হিসেবে দলে আছেন সোহান। বাড়তি ব্যাটসম্যান হিসেবে আছেন শামীম হোসেন। জিম্বাবুয়ে সিরিজ থেকেই দলের সঙ্গে রাখা হয়েছে তাঁকে।

বোলিংয়ে সেরা পেসার মুস্তাফিজুর রহমানের সঙ্গে আছেন তাসকিন আহমেদ, মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন ও শরিফুল ইসলাম। আর, স্পিনে ভূমিকা রাখার জন্য রাখা হয়েছে নাসুম আহমেদ, শেখ মেহেদী হাসানকে।

বাড়তি খেলোয়াড় (স্ট্যান্ডবাই) হিসেবে আছেন রুবেল হোসেন ও আমিনুল ইসলাম বিপ্লব।

বিশ্বকাপে দুই রাউন্ডে চারটি গ্রুপে ভাগ হয়ে লড়াই করবে দলগুলো। রাউন্ড ওয়ান ও সুপার টুয়েলভে মোট চারটি গ্রুপে ভাগ হয়ে লড়াই করবে দলগুলো। সুপার টুয়েলভে সরাসরি আটটি দল খেলবে। আর রাউন্ড ওয়ানের গ্রুপ ‘এ’ ও গ্রুপ ‘বি’ থেকে চারটি দল সুপার টুয়েলভে যুক্ত হবে। বাংলাদেশকেও গ্রুপ ‘এ’ খেলে দ্বিতীয় রাউন্ডে যেতে হবে।

আগামী ১৭ অক্টোবর বিশ্বকাপের প্রথম রাউন্ডের উদ্‌বোধনী দিনেই মাঠে নামবে বাংলাদেশ। প্রথম দিনে বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ স্কটল্যান্ড। বাংলাদেশের দ্বিতীয় ম্যাচ ১৯ অক্টোবর, প্রতিপক্ষ ওমান। প্রথম পর্বে  বাংলাদেশের তৃতীয় ও শেষ ম্যাচ ২১ অক্টোবর, ওমানের বিপক্ষে।

দ্বিতীয় রাউন্ড গড়াবে ২৩ অক্টোবর থেকে। ২৩ অক্টোবর অস্ট্রেলিয়া-দক্ষিণ আফ্রিকার লড়াই দিয়ে শুরু হবে দ্বিতীয় পর্ব।

বাংলাদেশের বিশ্বকাপ স্কোয়াড

মাহমুদউল্লাহ (অধিনায়ক), সাকিব আল হাসান, মুশফিকুর রহিম, সৌম্য সরকার, লিটন কুমার, নাঈম শেখ, আফিফ হোসেন, কাজী নুরুল হাসান সোহান, শেখ মেহেদী হাসান, শামীম হোসেন পাটোয়ারী, মুস্তাফিজুর রহমান, তাসকিন আহমেদ, মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন, শরিফুল ইসলাম ও নাসুম আহমেদ।

স্ট্যান্ডবাই

আমিনুল ইসলাম বিপ্লব ও রুবেল হোসেন।

আপনার মতামত দিন

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.