আজ: শনিবার, ০২ জুলাই ২০২২ইং, ১৮ই আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ১লা জিলহজ, ১৪৪৩ হিজরি

সর্বশেষ আপডেট:

১৫ ফেব্রুয়ারী ২০২২, মঙ্গলবার |



kidarkar

রামেক হাসপাতালে রোগী ধর্ষণের চেষ্টায় পরিচ্ছন্নতাকর্মী গ্রেপ্তার

জাতীয় ডেস্ক: রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালের এক্সরে কক্ষে চিকিৎসাধীন এক কিশোরীকে ধর্ষণের চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে এক পরিচ্ছন্নতাকর্মীর বিরুদ্ধে।

সোমবার (১৫ ফেব্রুয়ারি) রাতে মহানগরীর রাজপাড়া থানা পুলিশের দল অভিযান চালিয়ে সেই পরিচ্ছন্নতা কর্মীকে গ্রেপ্তার করেছে। ওই পরিচ্ছন্নতা কর্মীর নাম আনিছুর রহমান (৪০)। তার বাড়ি বাঘা উপজেলায়।

ভুক্তভোগী কিশোরীর বাবা বাদী হয়ে আনিছুরের বিরুদ্ধে রাতে রাজপাড়া থানায় ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে মামলা করেন। এরপরই পুলিশ অভিযান চালিয়ে আনিছুরকে গ্রেপ্তার করে।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা গেছে, ভুক্তভোগী কিশোরীর বাড়ি রাজশাহীর চারঘাট উপজেলায়। ওই কিশোরী ষষ্ঠ শ্রেণীর ছাত্রী। সম্প্রতি সে অপহরণের শিকার হয় এবং তাকে গাজীপুর থেকে উদ্ধার করে পুলিশ। এরপর কিশোরীর সঠিক বয়স নির্ধারণের জন্য, ধর্ষণ কিংবা ধর্ষণের ফলে সে অন্তঃসত্ত্বা হয়েছে কি না, সেই তথ্য জানতে তাকে গত ৬ ফেব্রুয়ারি রামেক হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে (ওসিসি) ভর্তি করে পুলিশ। তার শারীরিক পরীক্ষা শেষে ৯ ফেব্রুয়ারি হাসপাতাল থেকে ছাড়পত্র দেয়া হয়।

বাড়ি ফিরে ওই কিশোরী পরিবারের সদস্যদের জানায়, গত ৮ ফেব্রুয়ারি দুপুরে আল্ট্রাসনোগ্রাফি করতে তাকে ৩ নম্বর এক্স-রে কক্ষে ঢোকানো হয়। এরপর সেখানে এক পরিচ্ছন্নতাকর্মী তাকে ধর্ষণের চেষ্টা করে। এরপর তার পরিবারের পক্ষ থেকে আনিছুরের বিরুদ্ধে ধর্ষণের চেষ্টার মামলা করা হয়।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে রাজপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাইদুল ইসলাম বলেন, ‘কিশোরীর বাবা থানায় মামলা দায়েরের পর বিশেষ অভিযান চালানো হয়। এরপর পরিচ্ছন্নতাকর্মী আনিছুরকে গ্রেপ্তার করা হয়। মঙ্গলবার (১৫ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে তাকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।’

আপনার মতামত দিন

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.