আজ: বুধবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২ইং, ১৩ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৩০শে সফর, ১৪৪৪ হিজরি

সর্বশেষ আপডেট:

১১ অগাস্ট ২০২২, বৃহস্পতিবার |



kidarkar

দেশের শেয়ারবাজারের সম্ভাবনা অনেক: বিএসইসির চেয়ারম্যান

নিজস্ব প্রতিবেদক: দেশের শেয়ারবাজারের সম্ভাবনা অনেক। ইউরোপের দেশগুলো যদি ৫-৭ কোটির জনবল নিয়ে এতো এগিয়ে যেতে পারে, তাহলে ১৭ কোটি নিয়ে আমরাও পারব বলে মন্তব্য করেছেন বিএসইসির চেয়ারম্যান অধ্যাপক শিবলী রুবায়াত-উল-ইসলাম।

বৃহস্পতিবার (১১ আগস্ট) চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) ২০২১-২২ অর্থবছরে শীর্ষ ব্রোকারদের পুরস্কার বিতরন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

তিনি বলেন, শুধু ইকুইটি মার্কেট দিয়ে ক্যাপিটাল মার্কেটের উন্নয়ন হবেনা। তিনি বলেন, খুব শীঘ্রই সরকারি সিকিউরিটিজের সেকেন্ডারি মার্কেটে লেনদেন স্টক এক্সচেঞ্জের প্লাটফর্মে চালু হবে। এর মাধ্যমে জিডিপিতে ক্যাপিটাল মার্কেটের অবদান আরো অনেক বেড়ে যাবে।

বিএসইসির চেয়ারম্যান তার বক্তব্যে ইনোভেশনের উপর গুরুত্বারূপ করেন। তিনি বলেন, আমাদের সব কাজের সাথে আমাদের সরকারের পূর্ণ সহায়তা রয়েছে। এক দুই বছরের মধ্যে বিশ্বের যে কোনো প্রান্ত থেকে যে কেউ ২৪ ঘন্টা লেনদেন করতে পারবে।

স্বাগত বক্তব্যে সিএসইর পরিচালক মেজর এমদাদুল ইসলাম, বিএসইসির মাননীয় চেয়ারম্যান অধ্যাপক শিবলী রুবায়াত-উল-ইসলাম এর প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন সিএসইকে স্বতঃস্ফূর্তভাবে সব ধরণের সহায়তা প্রদানের জন্য । তিনি বলেন, বিএসইসির মাননীয় চেয়ারম্যান এর নির্দেশনা অনুযায়ী কমোডিটি এক্সচেঞ্জ এর কাজ দ্রুত এগিয়ে যাচ্ছে। তিনি এই শোকের মাসে শ্রদ্ধা ভরে স্মরণ করেন হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর কথা।

শোক দিবস উপলক্ষ্যে ১ মিনিট নিরবতা পালন করে বিশেষ সম্মান প্রদর্শন করা হয়।

সমাপনী বক্তব্যে সিএসইর চেয়ারম্যন জনাব আসিফ ইব্রাহীম বলেন, বাংলাদেশ আজ উন্নয়নের মহাসড়ক বেয়ে দুর্বার গতিতে ধাবিত হচ্ছে। তিনি আরো বলেন, বিএসইসির মাননীয় চেয়ারম্যান অধ্যাপক শিবলী রুবায়াত-উল-ইসলামের গতিশীল নেতৃত্বে বর্তমান কমিশন পুঁজিবাজারের উন্নয়নে অনেক কাজ করেছেন। বর্তমান কমিশন তাদের প্রজ্ঞা, মেধা ও দূরদর্শী চিন্তার মাধ্যমে স্বল্পতম সময়ে পুঁজিবাজারের উন্নয়ন, নিয়ন্ত্রণ ও বিভিন্ন সংস্কারে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখেছেন।

বাজারে গতিশীলতা বৃদ্ধি এবং মার্কেট পার্টিসিপেন্টদের উৎসাহ দেয়ার জন্য সিএসই Top Performing TREC হোল্ডারদের পুরস্কৃত করে আসছে। এরই ধারাবাহিকতায় সিএসই আজকের এই পুরষ্কার প্রদান অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছে। যারা আজকে পুরস্কার পেয়েছেন, তিনি তাদের সবাইকে সিএসই-র পক্ষ থেকে অভিনন্দন জানান। তিনি আশা করেন ভবিষ্যতে তারা আরো ভালো করবেন এবং এই ধারাবাহিকতা বজায় রাখবেন। তিনি এরই সাথে আশা করেন, যে সমস্ত ট্রেক হোল্ডার আজকে পুরস্কার পাননি, তারা যাতে পরবর্তীতে পুরস্কার পান, সেজন্য আন্তরিক প্রচেষ্ঠা এবং সিএসইতে অধিকতর অংশগ্রহণ চালিয়ে যাবেন।

উল্লেখ্য, ২০২১-২০২২ বছরের জন্য ডিলার এবং ব্রোকার এই দুই ক্যাটাগরিতে প্রথম ১০ টি ট্রেক হোল্ডারদেকে সিএসই পুরষ্কার প্রদান করেছে । ডিলার ক্যাটাগরিতে পুরষ্কার প্রাপ্তরা হলোঃ

গালাক্সি ক্যাপিটাল লিমিটেড, লঙ্কাবাংলা সিকিউরিটিজ লিমিটেড,পুডেনসিয়াল ক্যাপিটাল লিমিটেড, সোহেল সিকিউরিটিজ লিমিটেড, ইসলামী ব্যাংক সিকিউরিটিজ লিমিটেড, ইস্টার্ন শেয়ারস এন্ড সিকিউরিটিজ লিমিটেড, ইবিএল সিকিউরিটিজ লিমিটেড, এনবিএল সিকিউরিটিজ লিমিটেড,আরএকে সিকিউরিটিজ লিমিটেড এবং ফারইস্ট শেয়ারস এন্ড সিকিউরিটিজ লিমিটেড।

ব্রোকার ক্যাটাগরিতে পুরষ্কার প্রাপ্তরা হলোঃ

লঙ্কাবাংলা সিকিউরিটিজ লিমিটেড, বি রিচ লিমিটেড, কবির সিকিউরিটিজ লিমিটেড, মালটি সিকিউরিটিজ এন্ড সার্ভিসেস লিমিটেড, মিনহার সিকিউরিটিজ লিমিটেড, ইস্টার্ন শেয়ারস এন্ড সিকিউরিটিজ লিমিটেড,আইসিবি সিকিউরিটিজ ট্রেডিং কো লি, আইল্যান্ড সিকিউরিটিজ লিমিটেড , ইবিএল সিকিউরিটিজ লিমিটেড এবং মোনা ফিনান্সিয়াল কনসালটেন্সি এন্ড সিকিউরিটিজ লিমিটেড ।

১ টি মতামত “দেশের শেয়ারবাজারের সম্ভাবনা অনেক: বিএসইসির চেয়ারম্যান”

আপনার মতামত দিন

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.