ডিএসইতে চলতি বছরের সর্বনিম্ম লেনদেন

Topten-Looser_thereport24.comশেয়ারবাজার রিপোর্ট: সপ্তাহের দ্বিতীয় কার্যদিবসে দেশের উভয় শেয়ারবাজারে সূচকের উত্থানে শুরু হলেও পতনে শেষ হয় লেনদেন। সোমবার লেনদেন শুরুর পৌনে দুই ঘন্টা পর ধীরে ধীরে পড়তে শুরু করে সূচক। এদিন সূচকের পাশাপাশি কমেছে বেশীরভাগ কোম্পানি শেয়ার দর। আর টাকার অংকে লেনদেনে লেগেছে ভাটা। এদিকে সোমবার ডিএসইতে চলতি বছরের সর্বনিম্ম লেনদেন হয়েছে। ফলে আবারও রাহুর গ্রাসে পুঁজিবাজার।

দিনশেষে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) ব্রড ইনডেক্স আগের দিনের চেয়ে ৮ পয়েন্ট কমে অবস্থান করছে ৪৭০৮ পয়েন্টে। দিনভর লেনদেন হওয়া ৩০৭টি কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে ১২৯টির, কমেছে ১৩১টির আর অপরিবর্তিত রয়েছে ৪৭টি কোম্পানির শেয়ার দর। যা টাকার অংকে লেনদেন হয়েছে ২০৪ কোটি ৩৬ লাখ ৪৩ হাজার টাকা।

এর আগে রোববার ডিএসইর ব্রড ইনডেক্স অবস্থান করে ৪৭১৬ পয়েন্টে। ওই দিন লেনদেন হয়েছিল ২২৩ কোটি ২৪ লাখ ৪৯ হাজার টাকা। সে হিসেবে সোমবার ডিএসইতে লেনদেন কমেছে ১৮ কোটি ৮৮ লাখ ৬ হাজার টাকা।

বিশ্লেষণে দেখা গেছে, ২০১৫ সালের ৫ জানুয়ারি ডিএসইতে লেনদেন হয়েছিল ২০৪ কোটি ৪২ লাখ ৬৫ হাজার টাকা। এদিকে আজ ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে ২০৪ কোটি ৩৬ লাখ ৪৩ হাজার টাকা। ওই দিনের তুলনায় সোমবার ডিএসইতে লেনদেন কমেছে ৬ লাখ ২২ হাজার টাকা। আর এটাই এখন পর্যন্ত এ বছরের সর্বনিম্ম লেনদেন।

গত বছরের ডিসেম্বর নতুন স্বয়ংক্রিয় লেনদেন ব্যবস্থা (অটোমেশন ট্রেডিং সিস্টেম) চালু হবার পর থেকেই ডিএসইতে লেনদেনে পড়ছে ভাটা। এছড়াও চলমান রাজনৈতিক পরিস্থিতি লেনদেন কমার পেছনে দায়ি বলে মনে করছেন বাজার সংশ্লিষ্টরা।

এদিকে দিনশেষে চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) সাধারণ মূল্য সূচক ২২ পয়েন্ট কমে অবস্থান করছে ৮৭৪৫ পয়েন্টে। দিনভর লেনদেন হওয়া ২৩১টি কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে ৮৩টির, কমেছে ১১৯টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ২৯টি কোম্পানির শেয়ার দর। যা টাকার অংকে লেনদেন হয়েছে ২০ কোটি ২৮ লাখ টাকা।

এর আগে রোববার সিএসইর সাধারণ মূল্য সূচক অবস্থান করে ৮৭৬৮ পয়েন্টে। ওইদিন লেনদেন হয় ২৩ কোটি ৬৬ লাখ টাকা। সে হিসেবে আজ সিএসইতে লেনদেন কমেছে ৩ কোটি ৩৮ লাখ টাকা।

 

শেয়ারবাজার/অ

 

আপনার মন্তব্য

Top