আজ: সোমবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২ইং, ১১ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২৮শে সফর, ১৪৪৪ হিজরি

সর্বশেষ আপডেট:

১৬ অক্টোবর ২০১৬, রবিবার |



kidarkar

ডিএসই’তে লেনদেনের শীর্ষে তিতাস গ্যাস, সিএসই’তে বিএসআরএম লিমিটেড

লেনদেনের শীর্ষে_Turn overশেয়ারবাজার ডেস্ক: সপ্তাহের প্রথম কার্যদিবসে (১৬ অক্টোবর) দেশের প্রধাণ শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) লেনদেনের শীর্ষে উঠে এসেছে বিদ্যুৎ ও জালানি খাতের কোম্পানি তিতাস গ্যাস। সিএসই’তে একই অবস্থানে রয়েছে প্রকৌশল খাতের বিএসআরএম। ডিএসই ও সিএসই সূত্রে এই তথ্য জানা যায়।

ডিএসই: রোববার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) তিতাস গ্যাসের ৫২ লাখ ৯২ হাজার ৬৫৮টি শেয়ার মোট ২ হাজার ৯১৮ বার হাতবদল হয়। যার বাজার মূল্য ২৬ কোটি ৮১ লাখ ১৫ হাজার টাকা।

আজ ডিএসইতে লেনদেনের শীর্ষে থাকা অন্যান্য কোম্পানির মধ্যে ন্যাশনাল ব্যাংকের শেয়ার লেনদেন হয়েছে ১৭ কোটি ৮৮ লাখ ৮৯ হাজার টাকা, বিএসআরএম লিমিটেডের ১৬ কোটি ৪ লাখ ৭৯ হাজার টাকা, বাংলাদেশ বিল্ড্রিংসের ১২ কোটি ৩২ লাখ ১১ হাজার টাকা, এমজেএল বিডির ১১ কোটি ১১ লাখ ১৩ হাজার টাকা, অরিম্পিক ইন্ডাস্ট্রিজের ৯ কোটি ৩০ লাখ ৭৫ হাজার টাকা, সামিট পাওয়ারের ৮ কোটি ৯৪ লাখ ৩৬ হাজার টাকা, স্কয়ার ফার্মার ৮ কোটি ৫০ লাখ ৬৫ হাজার টাকা, ডোরিন পাওয়ারের ৮ কোটি ৭ লাখ ৭৭ হাজার টাকা, লাফার্জ সুরমার ৭ কোটি ৯৭ লাখ ৫০ হাজার টাকা, স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংকের ৭ কোটি ৭২ লাখ ৯৪ হাজার টাকা, একমি ল্যাবের ৬ কোটি ৮১ লাখ ৬৩ হাজার টাকা, এসআইবিএল এর ৬ কোটি ৩৫ লাখ ১৮ হাজার টাকা, ন্যাশনাল ফিডের ৬ কোটি ২৪ লাখ ৪৮ হাজার টাকা, সিঙ্গার বিডির ৫ কোটি ৯৪ লাখ ২৬ হাজার টাকা, জিএসপি ফাইন্যান্সের ৫ কোটি ৬৭ লাখ ১৩ হাজার টাকা, পাওয়ার গ্রীডের ৫ কোটি ৬৩ লাখ ৩৯ হাজার টাকা, একটিভ ফাইন্যান্সের ৫ কোটি ৫৯ লাখ ৭৬ হাজার টাকা, এক্সিম ব্যাংকের ৫ কোটি ৪১ লাখ ৭৬ হাজার টাকা এবং ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামি ব্যাংকের শেয়ারে লেনদেন হয়েছে ৫ কোটি ৩৯ লাখ ৭৪ হাজার টাকা।

সিএসই: আজ সিএসই’তে বিএসআরএম লিমিটেডের ১ লাখ ৩৬ হাজার ৪৫৫টি শেয়ার ৫২৬ বার হাতবদল হয়ে লেনদেনের শীর্ষে অবস্থান করে। যার বাজারমূল্য ২ কোটি ২ লাখ ৯৮ হাজার টাকা।

সিএসই’তে শীর্ষ তালিকায় থাকা অন্যান্য কোম্পানির মধ্যে জমুনা ব্যাংকের শেয়ারে লেনদেন হয়েছে ১ কোটি ২৪ লাখ ২৬ হাজার টাকা, ন্যাশনাল ব্যাংকের ৯৬ লাখ ৬৬ হাজার টাকা, তিতাস গ্যাসের ৯৬ লাখ ৩৫ হাজার টাকা, স্কয়ার ফার্মার ৮৬ লাখ ৯৮ হাজার টাকা, একমি ল্যাবের ৮৩ লাখ ৭ হাজার টাকা, পাওয়ার গ্রীডের ৮১ লাখ ১৫ হাজার টাকা, সামিট পাওয়ারের ৮০ লাখ ৩ হাজার টাকা, গ্লোবাল হেবি কেমিক্যালসের ৭৬ লাখ ৩৮ হাজার টাকা, স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংকের ৭২ লাখ ৫৭ হাজার টাকা, এনসিসি ব্যাংকের ৬৬ লাখ ১৭ হাজার টাকা, শাহজিবাজার পাওয়ারের ৫৯ লাখ ৯৯ হাজার টাকা, এসিআই ফর্মুলেসনের ৫৯ লাখ ৯১ হাজার টাকা, ফার কেম্যিালসের ৫৩ লাখ ৩৫ হাজার টাকা, ডোরিন পাওয়ারের ৫২ লাখ ৮৭ হাজার টাকা, ইয়াকিন পলিমারের ৫১ লাখ ৭২ হাজার টাকা, কেয়া কসমেটিক্সের ৫০ লাখ ৩০ হাজার টাকা, লাফার্জ সুরমার ৪৭ লাখ ৮৪ হাজার টাকা, বেক্সিমকো ফার্মার ৪৪ লাখ ৬৭ হাজার টাকা, এবং হাক্কনী পাল্পের শেয়ারে লেনদেন হয়েছে ৪৩ লাখ ৮৩ হাজার টাকা।

শেয়ারবাজারনিউজ/সো

 

আপনার মতামত দিন

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.