আজ: শুক্রবার, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২ইং, ১৫ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৩রা রবিউল আউয়াল, ১৪৪৪ হিজরি

সর্বশেষ আপডেট:

১৭ অক্টোবর ২০১৬, সোমবার |



kidarkar

ডিবিএ নির্বাচন: চূড়ান্ত প্রার্থী তালিকা প্রকাশ, লড়বেন ১৯ জন

DSE_ডিএসইশেয়ারবাজার রিপোর্ট: ডিএসই ব্রোকার্স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (ডিবিএ) নির্বাচনের জন্য চূড়ান্ত প্রার্থী তালিকা প্রকাশ করেছে সংগঠনটি। এর আগে সেই নির্বাচনের উদ্দেশ্যে ২১ জন নমিনেশন পত্র নিয়েছিল আর তা জমা দেন ২০ জন। তারপর নমিনেশন প্রত্যাহার করেছেন আরও এক জন। যার ফলে ধরে নেয়া হচ্ছে চূড়ান্ত তালিকায় থাকছে বাকি ১৯ প্রার্থী। সংশ্লিষ্ট সূত্রে এ তথ্য পাওয়া গেছে।

সূত্রমতে, প্রথমবারের মতো নির্বাচন করতে যাচ্ছে ডিএসই ব্রোকার্স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (ডিবিএ)। আগামি ২০ নভেম্বর, ২০১৬ তারিখে সকাল সাড়ে ১০টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত এ নির্বাচন ডিএসই ভবনে অনুষ্ঠিত হবে। সেই নির্বাচনের উদ্দেশ্যে ২১ জন নমিনেশন পত্র নিলেও ২০ জন তা জমা দিয়েছিল। আর তারপর নমিনেশন পত্র প্রত্যাহারের বেধে দেয়া সময়ের মধ্যে নমিনেশন প্রত্যাহার করেছেন বুলবুল সিকিউরিটিজের ব্যবস্থাপনা পরিচালক এ এস শহুদুল হক বুলবুল।

উল্লেখ্য, ডিবিএ’র এ নির্বাচনে ডিবিএ’র ২৪১ জন সদস্য তাদের ভোট প্রদান করবেন। তাদের ভোটে ১৫ জন সদস্য নির্বাচিত হবেন। যে ১৫ জন নির্বাচিত হবেন তাদের ভোটে সভাপতি, সিনিয়র সহ-সভাপতি ও সহ-সভাপতি নির্বাচন করা হবে। সংগঠন হিসেবে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের অনুমোদন পাওয়ার পর প্রথম নির্বাচন হবে এটি।

এ নির্বাচনে অংশ গ্রহণের জন্য মনোনয়ন পত্র গ্রহণ করেন ডিবিএল সিকিউরিটিজের মোহাম্মদ আলী, বুলবুল সিকিউরিটিজের শাহুদুল হক বুলবুল, রাস্তি সিকিউরিটিজের সিড রিদওয়ানুল হক, আরিস সিকিউরিটিজের মাসুদুল হক, পিপলস ইক্যুইটিজ লিমিটেডের কবির আহম্মেদ, সাদ সিকিউরিটিজের দেলোয়ার হোসেন, সাইদুল সিকিউরিটিজের শরিফ আনোয়ার হোসেন, মডার্ন সিকিউরিটিজের খুজিস্তা নূর ই নাহরিন, প্রিংক লিংক সিকিউরিজের জহিরুল ইসলাম, ইনভেস্টমেন্ট প্রোমোশন সার্ভিসের মোসাদ্দেক আহমেদ সাদিক, গ্লোবাল সিকিউরিটিজের রিচার্ড ডি রোজারিও, কান্ট্রি স্টকের খাজা আসিফ আহমেদ, রশিদ ইনভেস্টমেন্টের আহমেদ রশিদ, শ্যামল ইক্যুইটি ম্যানেজমেন্টের সাজিদুল ইসলাম, ইউনিক্যাপ সিকিউরিটিজের ওয়ালি উল ইসলাম, রয়্যাল গ্রীণ সিকিউরিটিজের আব্দুল হক, থী সিকিউরিটিজের মাহবুবুর রহমান, ই সিকিউরিটিজের মোয়াজ্জেম হোসাইন, কে-সিকিউরিটিজের দিল আফরোজা কামাল, এম-সিকিউরিটিজের চৌধুরী মোহাম্মদ নুরুল আযম এবং শাহেদ সিকিউরিটিজের শাহেদ আব্দুল খালেক।

এর মধ্যে এম সিকিউরিটিজের চৌধুরী মোহাম্মদ নুরুল আযম বাদে সবাই নির্দিষ্ট সময়ে নিজ নিজ নমিনেশন পত্র নির্বাচন কমিশনের কাছে জমা দেন। এর পর বুলবুল সিকিউরিটিজের ব্যবস্থাপনা পরিচালক এ এস শহুদুল হক বুলবুল নিজের নমিনেশন পত্র প্রত্যাহার করেন। এর আগে নির্বাচনের জন্য চূড়ান্ত ভোটার তালিকা গত ৭ সেপ্টেম্বর প্রকাশ করা হয়। নির্বাচনে আগ্রহী প্রার্থীদের ৮ সেপ্টেম্বর থেকে ২৮ সেপ্টেম্বর বিকাল ৩টা পর্যন্ত মনোয়ন পত্র বিতরন ও জমা নেয়া হয়। তবে সর্বশেষ ২৯ সেপ্টেম্বর বিকাল ৪টা পর্যন্ত মনোয়ন পত্র জমা নেয়া হয়।

নির্বাচনে যোগ্য ভোটাররা তার পরিবর্তে অন্য কাউকে ভোট দেওয়ার ক্ষমতা অর্পন করতে পারবেন। তবে এ ক্ষেত্রে ১৫ নভেম্বর বিকাল ৪টার মধ্যে প্রক্সি ফরম জমা দিতে হবে। এর আগে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) ব্রোকার অ্যাসোসিয়েশনের নির্বাচনের জন্য কমিশন ও আপিল বোর্ড গঠন করা হয়েছে।

তিন সদস্য বিশিষ্ট নির্বাচন কমিশনের চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন হারুন সিকিউরিটিজের ব্যবস্থাপনা পরিচালক হারুনুর রশিদ। কমিশনের অন্য দুই সদস্য হলেন, গ্লোব সিকিউরিটিজের ব্যবস্থাপনা পরিচালক আজিজুর রহমান ও এম অ্যান্ড জেড সিকিউরিটিজের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মঞ্জুর উদ্দিন আহমেদ।

আপিল বোর্ডের চেয়ারম্যান করা হয়েছে আলী সিকিউরিটিজের চেয়ারম্যান এম আকবর আলীকে। তিন সদস্য বিশিষ্ট আপিল বোর্ডের বাকি দুই সদস্য হলেন, মার্চেন্ট সিকিউরিটিজের ব্যবস্থাপনা পরিচালক এম কামাল উদ্দিন ও ফনিক্স সিকিউরিটিজের ব্যবস্থাপনা পরিচালক এ কাদের চৌধুরী।

উল্লেখ্য, স্টক এক্সচেঞ্জের ডিমিউচ্যুয়ালাইজেশনের (ব্যবস্থাপনা থেকে মালিকানা পৃথকীকরণ) কিছুদিন পর ডিএসই ব্রোকার অ্যাসোসিয়েশন গঠিত হয়। তখন থেকে ডিএসইর সাবেক সভাপতি আহসানুল ইসলাম টিটু আহবায়ক হিসেবে দায়িত্ব পালন করে আসছেন।

শেয়ারবাজারনিউজ/রু

আপনার মতামত দিন

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.