আজ: শুক্রবার, ১৪ মে ২০২১ইং, ৩১শে বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ৩০শে রমজান, ১৪৪২ হিজরি

সর্বশেষ আপডেট:

১৯ এপ্রিল ২০১৫, রবিবার |


ডায়বেটিসের প্রাথমিক লক্ষণসমূহ!

93612772-617x416শেয়ারবাজার ডেস্ক: ডায়বেটিস হলো রক্তের উচ্চ গ্লুকোজ জনিত স্বাস্থ্য সমস্যা। মানুষ যে খাদ্য গ্রহন করছে তা থেকে তৈরি হচ্ছে গ্লুকোজ। আর এই গ্লুকোজের সবটুকু তার দেহে ব্যবহার হচ্ছে না, অর্থাৎ তার রক্তে মিশে থাকছে অতিরিক্ত গ্লুকোজ। এ থেকেই ডায়বেটিস নামক রোগটি মানুষের শরীরে বাসা বাঁধছে।
ডায়বেটিস যে শুধু বয়স্ক ব্যাক্তিদের হয় তা নয়। বিভিন্ন বয়সের মানুষ এমনকি শিশুদেরও হতে পারে ডায়বেটিস। ডায়বেটিস রোগে আক্রান্ত হওয়ার কিছু লক্ষণই বলে দিবে ডায়বেটিস আসে কিনা।

বারবার বাথরুমে যাওয়া: ডায়বেটিসের বাংলা অর্থই হল বহুমূত্র রোগ। ডায়বেটিস হলে আপনার রক্তে সুগারের পরিমাণ বেড়ে যায় আর এর ফলে আপনার বহুমূত্রের সমস্যা দেখা দিতে পারে। কখনও কখনও দেখা যায় যে প্রতি ঘন্টাতেই বাথরুমে যাওয়ার প্রয়োজনীয়তা পড়ে। এই লক্ষণটি যদি আপনার মাঝে হঠাৎ করেই দেখা দেয় তাহলে প্রাথমিকভাবে ভেবে নিন আপনার হয়ত ডায়বেটিস রোগটি হয়েছে।

অতিরিক্ত পানি পিপাসা লাগা: যেহেতু বারবার বাথরুমে যাওয়া লাগছে তাই স্বাভাবিকভাবেই আপনার প্রচুর পানি পিপাসা লাগতে পারে। বেশিরভাগ ক্ষেত্রে দেখা যায় এই অতিরিক্ত পানি পিপাসা দূর করতে অনেকে জুস, সোডা বা চকলেট মিল্ক খেয়ে থাকেন। এর ফলে তার শরীরে সুগারের পরিমাণ আরও বেড়ে যায়। আপনার এই লক্ষণটি দেখা দিলে দেরি না করে তাড়াতাড়ি ডাক্তারের শরণাপন্ন হন।
ওজন কমে যাওয়া: হঠাৎ করে ওজন কমে যাওয়াও ডায়বেটিসের একটি লক্ষণ। ডাক্তারদের মতে, এই ওজন ২ টি কারণে কমে যেতে পারে। প্রথমত প্রস্রাবের সাথে অতিরিক্ত পানি বের হয়ে যাওয়ার কারণে, দ্বিতীয়ত প্রস্রাবের সাথে শরীরের কিছু ক্যালরি বের হয়ে যাওয়ার কারণে। এই ধরনের সমস্যায় ডাক্তারের পরামর্শ নেওয়াই উত্তম।

ক্ষুধা বেশি পাওয়া: ক্ষুধা বেশি পাওয়া সাধারণ কোনো কারণেও হতে পারে। তবে এটিও একটি বড় লক্ষণ ডায়বেটিস রোগ হওয়ার। অতিরিক্ত প্রস্রাব বের হয়ে যাওয়ার কারণে এই ক্ষুধালাগা তৈরি হয়।

অল্পতে ক্লান্ত হয়ে যাওয়া: ডায়বেটিস হলে সবসময় শরীরে ক্লান্তিভাব এবং অবসন্নতা কাজ করে। কেননা যেহেতু প্রস্রাবের সাথে শরীরের যাবতীয় উপাদান বের হয়ে যাচ্ছে তাই এই অবসন্নতা আসাটা স্বাভাবিক। এমন ধরনের কোনো লক্ষণ যদি দেখা দেয় তাহলে আজই ডায়বেটিস পরীক্ষা করুন।

চোখে ঝাপসা দেখা: ডায়বেটিস হওয়ার প্রাথমিক অবস্থাতে রোগী চোখে ঝাপসা দেখতে থাকেন। কেননা রক্তে গ্লুকোজের মাত্রা বাড়ার ফলে তা চোখের ধমনীগুলোকে বাধার সৃষ্টি করে। তাই বলে এই না যে ডায়বেটিস রোগে অন্ধ হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। এই ধরনের লক্ষণেও সচেতন হওয়া অত্যন্ত জরুরি।

ক্ষত দেরিতে শুকানো: এটি ডায়বেটিস হওয়ার সবচেয়ে বড় লক্ষণ। ডায়বেটিস হলে কোনো কেটে যাওয়া অংশ খুব সহজে শুকাতে চায় না। এমন পরিস্থিতিতে আপনি নিশ্চিত থাকতে পারেন যে আপনার ডায়বেটিস হয়েছে।

শেয়ারবাজারনিউজ/রা

আপনার মতামত দিন

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.