আজ: বৃহস্পতিবার, ২৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ইং, ১৬ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ, ১৭ই শাবান, ১৪৪৫ হিজরি

সর্বশেষ আপডেট:

০১ সেপ্টেম্বর ২০২২, বৃহস্পতিবার |

kidarkar

১০ হাজারের বেশি ডলার থাকলে ৩০ সেপ্টেম্বরের মধ্যে বিক্রির নির্দেশ

নিজস্ব প্রতিবেদক : প্রবাসীদের সঙ্গে আনা ১০ হাজারের বেশি অননুমোদিত ডলার বা সমপরিমাণ বৈদেশিক মুদ্রা আগামী ৩০ সেপ্টেম্বরের মধ্যে বিক্রির নির্দেশ দিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক।

অর্থাৎ যেসব প্রবাসী দেশে আসার সময় ১০ হাজারের বেশি ডলার বা বিদেশি মুদ্রা সঙ্গে করে নিয়ে এসেছেন তাদের আগামী ৩০ সেপ্টেম্বরের মধ্যে অনুমোদিত ডিলার ব্যাংক অথবা লাইসেন্সধারী মানি চেঞ্জারের কাছে বিক্রি করতে হবে। তা না হলে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

গতকাল বুধবার বাংলাদেশ ব্যাংক এ বিষয়ে একটি বিজ্ঞপ্তি দিয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, প্রবাসী বাংলাদেশি বিদেশ থেকে আনা ১০ হাজার মার্কিন ডলার বা সমমূল্যমানের বৈদেশিক মুদ্রা নিজের কাছে বা অনুমোদিত ডিলার ব্যাংকে রেসিডেন্ট ফরেন কারেন্সি ডিপোজিট হিসাবে জমা রাখতে পারেন, পরবর্তী বিদেশ যাত্রায় ওই বৈদেশিক মুদ্রা সঙ্গে নিয়েও যেতে পারবেন। তবে ১০ হাজার মার্কিন ডলারের অতিরিক্ত পরিমাণ আনা বৈদেশিক মুদ্রা দেশে আসার এক মাসের মধ্যে অনুমোদিত ডিলার ব্যাংক বা লাইসেন্সধারী মানিচেঞ্জারের কাছে বিক্রি বা রেসিডেন্ট ফরেন কারেন্সি ডিপোজিট হিসাবে জমা রাখা বাধ্যতামূলক।

উপরিউক্ত প্রাধিকার বহির্ভূত বৈদেশিক মুদ্রা ধারণ করা ‘ফরেন এক্সচেঞ্জ রেগুলেশন অ্যাক্ট, ১৯৪৭’ এর আওতায় দণ্ডনীয় অপরাধ।

প্রাধিকারভুক্ত নয় এমন বৈদেশিক মুদ্রা প্রবাসী বাংলাদেশির কাছে থাকলে তা আগামী ৩০  সেপ্টেম্বরের মধ্যে অনুমোদিত ডিলার ব্যাংকে বা লাইসেন্সধারী মানিচেঞ্জারের কাছে বিক্রি করতে হবে। নির্দিষ্ট সময়ের পর অননুমোদিত বৈদেশিক মুদ্রা প্রবাসীর কাছে পাওয়া গেলে তার বিরুদ্ধে কঠোর আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

আপনার মতামত দিন

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.