আজ: রবিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১ইং, ৪ঠা আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১১ই সফর, ১৪৪৩ হিজরি

সর্বশেষ আপডেট:

০১ সেপ্টেম্বর ২০২১, বুধবার |



kidarkar

ইতিহাসের সর্বোচ্চ উচ্চতায় দেশের দুই স্টক এক্সচেঞ্জের সূচক

শেয়ারবাজার রিপোর্ট: দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) ও চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) সপ্তাহের চতুর্থ কার্যদিবস বুধবার (১ সেপ্টেম্বর) সূচকের বড় উত্থানে লেনদেন শেষ হয়েছে। এদিন ডিএসই ও সিএসইর সূচক সর্বোচ্চ উচ্চতায় পৌঁছে রেকর্ড গড়েছে।

ডিএসই’র ইতিহাসে প্রথমবারের মতো ডিএসইএক্স সূচক ৬ হাজার ৯০০ পয়েন্টের মাইলফলক স্পর্শ করে নতুন রেকর্ড গড়েছে। একইভাবে ডিএস-৩০ ও ডিএসই শরিয়াহ সূচকও সর্বোচ্চ স্থানে পৌঁছে অতীতের সব রেকর্ড ভেঙেছে। পাশাপাশি সিএসই’র সিএএসপিআই সূচকও নতুন রেকর্ড গড়েছে।

এদিন ডিএসইতে টাকার পরিমাণে লেনদেন কিছুটা কমলেও সিএসইতে বেড়েছে। একইসঙ্গে ডিএসই ও সিএসইতে লেনদেনে অংশ নেওয়া অধিকাংশ কোম্পানির শেয়ার ও ইউনিটের দাম বেড়েছে।

বুধবার ডিএসইর প্রধান ডিএসইএক্স সূচক ৪৭.১৪ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে ৬ হাজার ৯১৬.৩৮ পয়েন্টে, যা ডিএসইর ইতিহাসে সূচকটির সর্বোচ্চ অবস্থান। এর আগে ২৪ আগস্ট ডিএসইএক্স সূচক ৬ হাজার ৮৮৪.৬৭ পয়েন্টে পৌঁছে নতুন রেকর্ড গড়েছিল।

একইভাবে ডিএসই-৩০ সূচক ২০.৭৭ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে ২ হাজার ৪৭৪.৭২ পয়েন্টে, যা ডিএসইর ইতিহাসে সূচকটির সর্বোচ্চ অবস্থান। একইভাবে ডিএসই শরিয়াহ সূচক বেড়ে অবস্থান করছে ১ হাজার ৪৯৫.৬৭ পয়েন্টে, এটিও ডিএসইর ইতিহাসে সূচকটির সর্বোচ্চ অবস্থান।

 

দিন শেষে ডিএসইতে ৩৭৩টি কোম্পানির শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে। এর মধ্যে দর বেড়েছে ১৯২টির, কমেছে ১৪৯টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৩২টির। ডিএসইতে এদিন ২ হাজার ৩৪৯ কোটি ৮৯ লাখ টাকার লেনদেন হয়েছে, যা আগের দিনের চেয়ে ১০০ কোটি টাকা বেশি।

বুধবার অপর শেয়ারবাজার সিএসইর প্রধান সিএসইএক্স সূচক ১০৫.৫১ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে ১২ হাজার ৯১.২৩ পয়েন্টে, যা সিএসই ইতিহাসে সূচকটির সর্বোচ্চ অবস্থান। এর আগে ২৫ আগস্ট সিএসইএক্স সূচক ১২ হাজার ৮০.৮৫ পয়েন্টে পৌঁছে নতুন রেকর্ড গড়েছিল।

আর সার্বিক সিএএসপিআই সূচক ১৭৬.২২ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে ২০ হাজার ১৭৩.৬৮ পয়েন্টে, যা সিএসইর ইতিহাসে সূচকটির সর্বোচ্চ অবস্থান।

এদিন, সিএসইতে ৩২০টি কোম্পানির শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে। এর মধ্যে দর বেড়েছে ১৭১টির, কমেছে ১১৬টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৩৩টির। দিন শেষে সিএসইতে ৯৯ কোটি ২৮ লাখ টাকার শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে, যা আগের দিনের চেয়ে ২৮ কোটি টাকা বেশি।

আপনার মতামত দিন

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.