ইউরোজোনের ভবিষ্যত অন্ধকার

eurozoneশেয়ারবাজার ডেস্ক: ইউরোজোনের মধ্যে থাকা গ্রীসের অর্থনৈতিক সংকটের মাধ্যমে সরষের মধ্যে ভূত দেখছেন বিশ্ব অর্থনীতিবিদরা। অনেকেই ধারণা করছেন পুরো ইউরোজোনের ভবিষ্যত আলো থেকে অনেকটা দূরেই সরে যাচ্ছে। এরপর যেসব দেশ সংকটের মুখোমুখি পরবে তা হল পর্তুগাল, ইটালি এবং স্পেন। এমটাই বলছে অস্ট্রেলিয়ার সংবাদ মাধ্যম এএফআর উইকেন্ড।

অন্যএক মাধ্যমে জানা গেছে, ডেনমার্কের একটি ব্যাংক সুইদ ব্যাংকের (Sydbank) প্রধান ইকনমিস্ট জ্যাকব গ্রাভ্যান গ্রীসের অর্থনৈতিক সংকট নিয়ে কথা বলেন। ডেনমার্কের একটা স্থানীয় দৈনিকে আজ প্রকাশিত এক রিপোর্টে তিনি বলেন, ইউরো জোনে গ্রীসের পর পরবর্তী গ্রীস হচ্ছে পর্তুগাল, স্পেন, ইটালি এবং আয়ারল্যান্ড!

জ্যাকব আরো বলেন, গ্রিসের পরিস্থিতির সঙ্গে ইউরোপের দেশ স্পেন, পর্তুগাল, ইটালি আর আয়ারল্যান্ডের পরিস্থিতির অনেক মিল খুঁজে পাওয়া যায়। এতে ইউরো জোনের অর্থনীতিতে দুটিভাগের জন্ম হয়েছ। যার একটি ধনী ইউরোপ এবং এতে রয়েছে জার্মানি ও ফ্রান্স। অন্যদিকে রয়েছে গরীব ইউরোপ এবং এই দলে রয়েছে গ্রীস, স্পেন, পর্তুগাল, ইটালি এবং আয়ারল্যান্ড।

২০১৪ সালের অর্থনৈতিক রিপোর্ট অনুযায়ী ইউরো জোনে গ্রীসের পর সবচেয়ে বেশি দেনায় জর্জরিত দেশটি হচ্ছে ইটালি এবং দেশটির দেনার পরিমাণ গ্রস ডোমেস্টিক প্রোডাক্টের প্রায় ১৩২.১ শতাংশ। এ বছরের জুন মাসের পরিসংখ্যান অনুযায়ী ইটালির প্রতি ২ জনের একজন তরুণ যুবক বেকার এবং ইউরো জোনের তৃতীয় বৃহত্তম অর্থনীতি ইটালির শুধুমাত্র জুন মাসেই চাকুরী হারায় ২২ হাজার কর্মী।

উল্লেখ্য, ইউরোজোনের ২৮ দেশের মধ্যে ঋণ গ্রহণের ক্ষেত্রে ডেনমার্কের অবস্থান ৯ম স্থানে এবং দেশটির দেনার পরিমাণও কম নয়। ডেনমার্কের বর্তমান দেনার পরিমাণ গ্রস ডোমেস্টিক প্রোডাক্টের প্রায় ৪৫.২ শতাংশ।

 

শেয়ারবাজারনিউজ/রু

আপনার মন্তব্য

*

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Top