প্লাস্টিক খাতে প্রণোদনা দেওয়ার অঙ্গীকার বাণিজ্যমন্ত্রীর

BPGMEA1_thereport24শেয়ারবাজার রিপোর্ট : জেনারেলাইজড সিস্টেম অব প্রেফারেন্স (জিএসপি) বাতিলের ফলে প্লাস্টিক খাতে উদ্ভূত ক্ষতি লাঘবে নগদ প্রণোদনা দেওয়ার অঙ্গীকার করেছেন বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ। মঙ্গলবার বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে দশম আন্তর্জাতিক প্লাস্টিক মেলা উদ্বোধনকালে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি প্লাস্টিক খাতে নগদ প্রণোদনা দেওয়ার অঙ্গীকার করেন। চার দিনব্যাপী এ মেলা চলবে ৩০ জানুয়ারি পর্যন্ত।

প্লাস্টিক খাত জিডিপিতে অবদান রাখছে বলে জানান বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ। তিনি বলেন, এ খাতে ১২ লাখ মানুষের কর্মসংস্থান হয়েছে।

মন্ত্রী আরও বলেন, প্লাস্টিক খাতে ২০ শতাংশ হারে প্রবৃদ্ধি হচ্ছে। যার পরিমাণ আগের বছরে ছিল ৪৫ শতাংশ।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ প্লাস্টিক গুডস ম্যানুফেকচারার্স এ্যান্ড এক্সপোর্টার্স এ্যাসোসিয়েশন (বিপিজিএমইএ) এর সভাপতি জসিম উদ্দিন বলেন, চলমান রাজনৈতিক অবস্থায় স্বাভাবিকভাবে চলাচল করা যাচ্ছে না। ঝুঁকি নিয়ে পণ্য পরিবহন করতে হচ্ছে। এতে প্রতিদিন প্লাস্টিক খাতে ১০ থেকে ১২ কোটি টাকা ক্ষতি হচ্ছে।

জিএসপি সুবিধা বাতিলে সবচেয়ে বেশী প্লাস্টিক খাতের ক্ষতি হয়েছে বলে জানান জসিম উদ্দিন। আর ক্ষতি লাঘব ও উন্নয়নের জন্য নগদ প্রণোদনা দেওয়ার জন্য বাণিজ্যমন্ত্রীর কাছে আহ্বান জানান তিনি। এ ছাড়া প্লাষ্টিক খাতের জন্য শিল্প নগরী গঠন করারও আহ্বান করেন জসিম উদ্দিন।

বিপিজিএমইএ সভাপতি আরও বলেন, মেশিনারিজ, মোল্ড, কাঁচামাল, উৎপাদনকারী ও সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠানসহ বিভিন্ন ধরনের প্রতিষ্ঠান মেলায় অংশগ্রহণ করবে। মেলায় প্রায় ৩৫০টি স্টল থাকবে। তবে রাজনৈতিক অস্থিরতায় দেশী-বিদেশী স্টলের সংখ্যা কমেছে বলে জানান তিনি।

বিপিজিএমই ও তাইওয়ানের চাং চাও ইন্টারন্যাশনাল যৌথভাবে এ মেলার আয়োজন করেছে।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন অর্থ প্রতিমন্ত্রী এম এ মান্নান এমপি। এ ছাড়া এফবিসিসিআইয়ের সভাপতি কাজী আকরাম উদ্দিন আহমদসহ অন্যান্য ব্যবসায়ীরা উপস্থিত ছিলেন।

আপনার মন্তব্য

Top