নতুন রেকর্ড করলো ডিএসই

bazarশেয়ারবাজার রিপোর্ট: সপ্তাহের চতুর্থ কার্যদিবসে দেশের উভয় শেয়ারবাজারে সূচকের উর্ধ্বমুখী প্রবণতায় শেষ হয়েছে লেনদেন। এদিন লেনদেনের শুরুতে উত্থান-পতন থাকলেও ১ ঘন্টা পর ৫ খাতের ক্রয় প্রেসারে টানা সূচক। এরই ধারাবাহিকতায় নতুন রেকর্ড গড়লো ডিএসইর ব্রড ইনডেক্স।  বুধবার সূচকের পাশাপাশি বেড়েছে রেশিরভাগ কোম্পানির শেয়ার দর। তবে টাকার অংকে লেনদেন আগের দিনের তুলানায় কিছুটা কমেছে। আলোচিত সময় পর্যন্ত ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে ১ হাজার ১৬৪ কোটি টাকা।

এ প্রসঙ্গে একাধিক মার্চেন্ট ব্যাংক ও ব্রোকারেজ হাউজের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সাথে কথা বলে জানা যায়,  দীর্ঘ মেয়াদি বিনিয়োগকারীদের শেয়ার কিনছেন পাশাপাশি সাধারণরাও শেয়ার ক্রয়ে আগ্রহ দেখাচ্ছেন। যার কারণে পুঁজিবাজারে ক্রয় চাপ বাড়ছে। এর ফলে বেড়েছে চলেছে সূচক ও লেনদেন। এছাড়াও ডিএসইর বাজার মূলধনের পারিমাণও বেড়েছে। আর আগের যেকোন সময়ের ভাল অবস্থানে রয়েছে বর্তমান শেয়ারবাজার।

এদিকে নতুন রেকর্ড করলো ডিএসই। আজ ডিএসইর ব্রড ইনডেক্স ২২ পয়েন্ট বেড়ে ৫ হাজার ৭৮২ পয়েন্টে অবস্থান করছে। যা ডিএসইর সর্বোচ্চ। এর আগে গত ৪ এপ্রিল, ২০১৭ ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) ব্রড ইনডেক্স  ছিলো ৫ হাজার ৭৭৭ পয়েন্ট।

দিনশেষে ডিএসইর ব্রড ইনডেক্স আগের দিনের চেয়ে ২২ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে ৫৭৮২ পয়েন্টে। আর ডিএসই শরিয়াহ সূচক ৩ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে ১৩১৭ পয়েন্টে এবং ডিএসই-৩০ সূচক ৬ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করে ২১২০ পয়েন্টে। দিনভর লেনদেন হওয়া ৩২৯টি কোম্পানি ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে ১৪৮টির, কমেছে ১৩৬টির আর অপরিবর্তিত রয়েছে ৪৫টি কোম্পানির শেয়ার দর। যা টাকায় লেনদেন হয়েছে ১ হাজার ১৬৪ কোটি ৯২ লাখ ৫ হাজার টাকা।

এর আগে মঙ্গলবার ডিএসই ব্রড ইনডেক্স আগের দিনের চেয়ে ৩৪ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করে ৫৭৬০ পয়েন্টে। আর ডিএসই শরিয়াহ সূচক ৩ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করে ১৩১৪ পয়েন্টে এবং ডিএসই-৩০ সূচক ৯ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করে ২১১৪ পয়েন্টে। ওইদিন লেনদেন হয় ১ হাজার ২২৩ কোটি ৭৪ লাখ ১৬ হাজার টাকা। সে হিসেবে আজ ডিএসইতে লেনদেন কমেছে ৫৮ কোটি ৮২ লাখ ১১ হাজার টাকা।

এদিকে দিনশেষে চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই)ব্রড ইনডেক্স ২৮ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে ১০ হাজার ৮২৩ পয়েন্টে। দিনভর লেনদেন হওয়া ২৫৬টি কোম্পানি ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে ১২৪টির, কমেছে ১০৭টির ও দর অপরিবর্তিত রয়েছে ২৫টির। যা টাকায় লেনদেন হয়েছে ৬৯ কোটি ৩৯ লাখ ৬৯ হাজার টাকা।

শেয়ারবাজারনিউজ/মু

আপনার মন্তব্য

Top