ব্যাপক অনিয়মে চার সিকিউরিটিজ হাউজ: বিএসইসির জরিমানা

BSECশেয়ারবাজার রিপোর্ট: ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের চার সিকিউরিটিজ হাউজে ব্যাপক অনিয়ম পেয়েছে বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)। হাউজগুলো হলো: ইন্ডিকেট সিকিউরিটিজ, মো: ফখরুল ইসলাম সিকিউরিটিজ, আজম সিকিউরিটিজ এবং সায়া সিকিউরিটিজ লিমিটেড। অনিয়মের কারণে হাউজ চারটি আজ অনুষ্ঠিত কমিশনের ৬১১তম সভায় আর্থিক জরিমানা করেছে নিয়ন্ত্রক সংস্থা। বিএসইসি সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

জানা যায়, ডিএসইর ১৫৪ নং ট্রেকহোল্ডার ইন্ডিকেট সিকিউরিটিজ কনসালটেন্টস লিমিটেডে তাদের কনসোলিডেটেড কাষ্টমার অ্যাকাউন্ট এ ঘাটতির মাধ্যমে সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ রুলস,১৯৮৭ এর ‍রুলস,৮এ(১),(২) এবং ৩(আইএ) এবং সিকিউরিটিজ ও এক্সচেঞ্জ কমিশন (স্টক ডিলার, স্টক ব্রোকার ও অনুমোদিত প্রতিনিধি) বিধিমালা,২০০০ এর বিধি ১১ ও দ্বিতীয় তফসিলের আচরণ বিধি ১ ও ৬ ভঙ্গ করেছে। গ্রাহকদেরকে ঋণ চুক্তি ছাড়া ঋণ প্রদানের মাধ্যমে মার্জিন রুলস,১৯৯৯ এর রুলস, ৩(১) ও (২) লঙ্ঘন করেছে। একজন পরিচালককে ঋণ প্রদান করে কমিশনের নির্দেশনা SEC/CMRRC/2001-43/31 তারিখ মার্চ ২৩,২০১০ এর লঙ্ঘন করেছে। এছাড়া ইন্ডকেট সিকিউরিটিজ কনসালটেন্টেস লিমিটেড গ্রাহকের নিকট থেকে ৫ লক্ষ টাকার অতিরিক্ত নগদ গ্রহনের মাধ্যমে সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ রুলস,১৯৮৭ এর ‍রুল ৮(১),(সিসি)(আই) এবং কমিশনের নোটিফিকেশন নং- SEC/CMRRC/2008-183/Admin/03-31, তারিখ সেপ্টেম্বর ২৭,২০০৯ এর লঙ্ঘন করেছে। এসব অনিয়মের কারণে হাউজটিকে তিন লাখ টাকা জরিমানা করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিএসইসি।

ডিএসইর ৯০ নং ট্রেকহোল্ডার মো: ফখরুল ইসলাম সিকিউরিটিজ লিমিটেডে তাদের কনসোলিডেটেড কাষ্টমার অ্যাকাউন্ট এ ঘাটতির মাধ্যমে সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ রুলস,১৯৮৭ এর ‍রুলস,৮এ(১),(২) এবং  (২) ভঙ্গ করেছে। অনুমোদিত প্রতিনিধিদের নামে বিও হিসাব খুলে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ট্রেডিং রাইট এনটাইটেলমেন্ট সার্টিফিকেট) রেগুলেশন ২০১৩ এবং সিকিউরিটিজ ও এক্সচেঞ্জ কমিশন (স্টক ডিলার, স্টক ব্রোকার ও অনুমোদিত প্রতিনিধি) বিধিমালা,২০০০ এর বিধি ৪(২) (৪) এর ডিড অব এগ্রিমেন্ট ভঙ্গ করেছে। কর্মচারী ও তাদের আত্মীয়দের নামে ঋণ প্রদানের মাধ্যমে কমিশনের  নির্দেশনা নং SEC/CMRRC/2001-43/31 তারিখ মার্চ ২৩,২০১০ এর লঙ্ঘন করেছে। নগদ হিসাবে ঋণ প্রদান করে মার্জিন রুলস,১৯৯৯ এর ‍রুল ৩(১) এবং জেড ক্যাটাগরির শেয়ারে ঋণ প্রদান করে কমিশনের নির্দেশনা নং SEC/CMRRC/2001-43/169 তারিখ অক্টোবর ১,২০০৯ ভঙ্গ করেছে। এসব অনিয়মের কারণে হাউজটিকে ৫ লাখ টাকা জরিমানা করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিএসইসি।

ডিএসইর ১৯ নং ট্রেকহোল্ডার আজম সিকিউরিটিজ লিমিটেডে তাদের কনসোলিডেটেড কাষ্টমার অ্যাকাউন্ট এ ঘাটতির মাধ্যমে সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ রুলস,১৯৮৭ এর ‍রুলস,৮এ(আই) ভঙ্গ করেছে। অনুমোদিত প্রতিনিধিদের নামে বিও হিসাব খুলে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ট্রেডিং রাইট এনটাইটেলমেন্ট সার্টিফিকেট) রেগুলেশন ২০১৩ এবং সিকিউরিটিজ ও এক্সচেঞ্জ কমিশন (স্টক ডিলার, স্টক ব্রোকার ও অনুমোদিত প্রতিনিধি) বিধিমালা,২০০০ এর বিধি ৪(২) (৪) এর ডিড অব এগ্রিমেন্ট ভঙ্গ করেছে। পরিচালক ও তাদের আত্মীয়দের নামে ঋণ প্রদানের মাধ্যমে কমিশনের  নির্দেশনা ভঙ্গ করেছে। এছাড়া ৫ লক্ষ টাকার অতিরিক্ত নগদ গ্রহনের মাধ্যমে সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ রুলস,১৯৮৭ এর ‍রুল ৮(১),(সিসি)(আই) এর লঙ্ঘন করেছে। এসব অনিয়মের কারণে হাউজটিকে পাঁচ লাখ টাকা জরিমানা করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিএসইসি।

ডিএসইর ১০ নং ট্রেকহোল্ডার সায়া সিকিউরিটিজ লিমিটেড তাদের কনসোলিডেটেড কাষ্টমার অ্যাকাউন্ট এ ঘাটতির মাধ্যমে সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ রুলস,১৯৮৭ এর ‍রুলস,৮এ(আই) ভঙ্গ করেছে। এছাড়া হাউজটি ৩১ ডিসেম্বর ২০১৫ অর্থবছরের আর্থিক বিবরণীতে মিথ্যা তথ্য প্রদান করেছে। নগদ হিসাবে ঋণ প্রদান করে মার্জিন রুলস,১৯৯৯ এর রুল ৩(২) ভঙ্গ করেছে। এছাড়া জেড ক্যাটাগরির শেয়ারে ঋণ প্রদান করেছে সায়া সিকিউরিটিস। এসব অনিয়মের কারণে হাউজটিকে তিন লাখ টাকা জরিমানা করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে নিয়ন্ত্রক সংস্থা।

শেয়ারবাজারনিউজ/ম.সা

আপনার মন্তব্য

*

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Top