সূচকের ঝলকানি নিভিয়ে দিলো ব্যাংক

bazarশেয়ারবাজার রিপোর্ট: সপ্তাহের শেষ কার্যদিবসে দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) সূচকের নিম্নমুখী প্রবণতায় লেনদেন শেষ হয়েছে। এদিন শুরুতে সূচকে উত্থানে থাকলেও ২৭ মিনিট পর ব্যাংক খাতের সেল প্রেসারে টানা নামতে থাকে সূচক। শেষ দিকে একবার ঘুঁড়ে দাঁড়ানোর চেষ্টা করলেও ব্যহত হয় বাজার। বৃহস্পতিবার সূচকের পাশাপাশি কমেছে বেশিরভাগ কোম্পানির শেয়ার দর। আর আগের দিনের তুলনায় টাকার অংকে লেনদেন কিছুটা কমেছে। আজ দিন শেষে ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে ৫১৭ কোটি টাকা।

বর্তমান বাজার পরিস্থিতি নিয়ে একাধিক মার্চেন্ট ব্যাংক ও ব্রোকারেজ হাউজের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সাথে কথা বলে জানা যায়, ধারবাহিক উত্থানের কারণে দেশের শেয়ারবাজার অনেকটাই বিনিয়োগ উপযোগী হয়ে উঠেছে। গত কয়েক দিনের ধারবাহিক উত্থানের পর বিনিয়োগকারীদের মধ্যে মুনাফা তুলে নেয়ার ঝোঁক বিরাজ করে। বাজারের হেভিওয়েট কোম্পানি বলতে প্রথমেই রয়েছে ব্যাংক খাতের কোম্পানিগুলো। কারণ বাজার মূলধনের একটি বড় অংশ ব্যাংক সেক্টরের দখলে। ব্যাংক খাতে দরপতনের কারণে পুরো বাজারে নেতিবাচক পড়েছে। এছাড়া মাসের শেষে বিনিয়োগকারীদের শেয়ার কেনার চেয়ে বিক্রির প্রবণতা বেশি থাকে। ক্রয়ের চেয়ে বিক্রয়ের পরিমাণ বেশি হওয়ায় বাজারে নেতিবাচক প্রভাব পড়েছে। আবার কেউ কেউ বাজারে কারেকশনের অপেক্ষায় রয়েছেন বলে মনে করছেন বাজার সংশ্লিষ্টরা।

এদিকে আজ দিনশেষে ডিএসইর ব্রড ইনডেক্স আগের দিনের চেয়ে ১৮ পয়েন্ট কমে অবস্থান করছে ৬২৪৮ পয়েন্টে। আর ডিএসই শরিয়াহ সূচক ১ পয়েন্ট কমে অবস্থান করছে ১৩৮৯ পয়েন্টে এবং ডিএসই-৩০ সূচক ৭ পয়েন্ট কমে অবস্থান করে ২২৬৪ পয়েন্টে। দিনভর লেনদেন হওয়া ৩২৯টি কোম্পানি ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে ১৩৮টির, কমেছে ১৪৫টির আর অপরিবর্তিত রয়েছে ৪৬টি কোম্পানির শেয়ার দর। যা টাকায় লেনদেন হয়েছে ৫১৭ কোটি ১২ লাখ ২৯ হাজার টাকা।

এর আগে বুধবার ডিএসই ব্রড ইনডেক্স আগের দিনের চেয়ে ২০ পয়েন্ট কমে অবস্থান করে ৬২৬৬ পয়েন্টে। আর ডিএসই শরিয়াহ সূচক ০.০৬ পয়েন্ট কমে অবস্থান করে ১৩৯০ পয়েন্টে এবং ডিএসই-৩০ সূচক ৬ পয়েন্ট কমে অবস্থান করে ২২৭১ পয়েন্টে। ওইদিন লেনদেন হয় ৫৮৪ কোটি ৮০ লাখ ১৩ হাজার টাকা। সে হিসেবে আজ ডিএসইতে লেনদেন কমেছে ৬৭ কোটি ৬৭ লাখ ৮৪ হাজার টাকা।

এদিকে দিনশেষে চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) সিএসইএক্স ৪০ পয়েন্ট কমে অবস্থান করছে ১১ হাজার ৬৮৫ পয়েন্টে। দিনভর লেনদেন হওয়া ২৪২টি কোম্পানি ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে ১০০টির কমেছে ১০৬টির ও দর অপরিবর্তিত রয়েছে ৩৬টির। যা টাকায় লেনদেন হয়েছে ২৩ কোটি ৭ লাখ ৩৫ হাজার টাকা।

শেয়ারবাজারনিউজ/মু

আপনার মন্তব্য

*

*

Top