আজ: শনিবার, ৩১ জুলাই ২০২১ইং, ১৬ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৯শে জিলহজ, ১৪৪২ হিজরি

সর্বশেষ আপডেট:

১০ মার্চ ২০২১, বুধবার |



kidarkar

ভরিতে স্বর্ণের দাম কমলো ২ হাজার ৪১ টাকা

শেয়ারবাজার ডেস্ক: দেশের বাজারে সব ধরণের স্বর্ণের দাম ভরিতে দুই হাজার ৪১ দশমিক ২০ টাকা দাম কমেছে। ২২ ক্যারেটের প্রতি ভরির দাম পড়বে ৬৯ হাজার ১০৯ দশমিক ২০ টাকা।

চলতি বছরে একটানা তিনধাপে স্বর্ণের দাম মোট কমলো পাঁচ হাজার ৫৪০ টাকা।

বুধবার (১০ মার্চ) থেকে নতুন দামে বিক্রি হবে অলংকার তৈরির এই ধাতু।

মঙ্গলবার (৯ মার্চ) রাত সোয়া ১০টার দিকে বাংলাদেশ জুয়েলারি সমিতির প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে স্বর্ণের দাম কমানোর খবর গণমাধ্যমে জানানো হয়েছে।

সবশেষ স্বর্ণের দাম বাড়ানো হয়েছে চলতি বছরের ৩ মার্চ।

বাজুস নির্ধারিত নতুন মূল্য তালিকায় দেখা গেছে, ২২ ক্যারেটের প্রতি ভরির দাম নির্ধারণ করা হয়েছে ৬৯ হাজার ১০৯ দশমিক ২০ টাকা। মঙ্গলবার পর্যন্ত এই মানের স্বর্ণের দাম ছিল ৭১ হাজার ১৫০ দশমিক ৪০ টাকা। ভরিতে দাম কমেছে দুই হাজার ৪১ দশমিক ২০ টাকা।

২১ ক্যারেটের প্রতি ভরির দাম ধরা হয়েছে ৬৫ হাজার ৯৫৯ দশমিক ৯২ টাকা। মঙ্গলবার পর্যন্ত ২১ ক্যারেটের প্রতি ভরির দাম ৬৮ হাজার এক দশমিক ১২ টাকা। দাম কমেছে দুই হাজার ৪১ দশমিক ২০ টাকা।

একই ভাবে ১৮ ক্যারেটের প্রতি ভরির দাম পড়বে ৫৭ হাজার ২১১ দশমিক ৯২ টাকা। বর্তমান দাম রয়েছে ৫৯ হাজার ২৫৩ দশমিক ১২ টাকা। ভরিতে কমেছে দুই হাজার ৪১ দশমিক ২০ টাকা।

সনাতন পদ্ধতিতে স্বর্ণ প্রতি ভরির দাম ধরা হয়েছে ৪৬ হাজার ৮৮৯ দশমিক ২৮ টাকা। মঙ্গলবার পর্যন্ত দাম ছিল ৪৮ হাজার ৯৩০ দশমিক ৪৮ টাকা। প্রতি ভরিতে দাম কমেছে দুই হাজার ৪১ দশমিক ২০ টাকা।

অপরিবর্তিত রয়েছে রূপার দাম।

বাংলাদেশ জুয়েলারি সমিতি নির্ধারিত নতুন মূল্য তালিকায় ২২ ক্যারেটের প্রতি ভরির দাম এক হাজার ৫১৬ টাকা, ২১ ক্যারেটের প্রতি ভরি এক হাজার ৪৩৫ টাকা, ১৮ ক্যারেটের প্রতি ভরি এক হাজার ২২৫ টাকা ও সনাতন পদ্ধতিতে প্রতি ভরির দাম ৯৩৩ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে।

দেশের বাজারে এত দিন সনাতন পদ্ধতিতে রূপার ভরি বিক্রি হতো ৯৩৩ টাকায়। নতুন করে রূপার ক্যারেট শ্রেণি বিন্যাস করে দাম নির্ধারণ করে দিয়েছে বাজুস।

বাংলাদেশ জুয়েলারি সমিতির সাধারণ সম্পাদক দিলীপ কুমার আগরওয়ালা বলেন, করোনাকালীন বিশ্ব অর্থনীতির জটিল সমীকরণের মধ্যে অস্থির আর্ন্তজাতিক বাজারে স্বর্ণের দাম কিছুটা নিম্নমুখী হওয়ায় দেশের বাজারে অচলাবস্থা কাটাতে ও ভোক্তা সাধারণের কথা চিন্তা করে স্বর্ণের দাম কমানো হয়েছে। পরবর্তী নির্দেশনা না দেওয়া পর্যন্ত সকল জুয়েলারি ব্যবসায়ীকে বাজুস র্নিধারিত মূল্য তালিকায় বিক্রির অনুরোধ করা হয়েছে।

আপনার মতামত দিন

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.