আজ: বৃহস্পতিবার, ২৬ মে ২০২২ইং, ১২ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২৩শে শাওয়াল, ১৪৪৩ হিজরি

সর্বশেষ আপডেট:

১০ মার্চ ২০২২, বৃহস্পতিবার |



kidarkar

শেবাচিম হাসপাতালের ব্রাদারকে মারধরে নার্সদের কর্মবিরতি

জাতীয় ডেস্ক: বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিক্যাল কলেজ (শেবাচিম) হাসপাতালের এক ব্রাদারকে মারধরের অভিযোগ উঠেছে পুলিশের বিরুদ্ধে। এ ঘটনার বিচারের দাবিতে অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতি ঘোষণা করেছে নার্সরা। একই সঙ্গে তারা হাসপাতাল পরিচালকের কার্যালয় ঘেরাও করে বিক্ষোভ করছে।

বৃহস্পতিবার (১০ মার্চ) সকাল সাড়ে ৯টা থেকে কর্মবিরতি শুরু করেন তারা।

নার্সরা জানান, বুধবার (৯ মার্চ) গভীর রাতে বরিশাল নগরীর রুপাতলী উকিল বাড়ি সড়কে একটি অ্যাম্বুলেন্সের ধাক্কায় আহত হন মো. সালাউদ্দিন নামের এক পুলিশ পরিদর্শক। তাকে উদ্ধার করে অন্য পুলিশ সদস্যরা শেবাচিম হাসপাতালে ভর্তি করে। এ সময় হাসপাতালের জরুরী বিভাগে কর্মরত সিনিয়র স্টাফ ব্রাদার সাইফুল ইসলামের সঙ্গে পুলিশ সদস্যদের কথা কাটাকাটি হয়। এক পর্যায়ে উত্তেজিত পুলিশ সদস্য ও সালাউদ্দিনের স্বজনরা ব্রাদার সাইফুল ইসলামকে দুই দফা মারধর করে।

বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল নার্সেস অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, ‘আমরা আমাদের কর্মস্থলেও নিরাপদ নই। আমাদের উপর হামলা চালানো হচ্ছে। ব্রাদার সাইফুল ইসলামকে মারধর করেছে কয়েকজন পুলিশ সদস্য। আহত সাইফুল ইসলামকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।’

তিনি আরো বলেন, ‘আমরা সকাল থেকে কর্মবিরতি পালন শুরু করেছি। পরিচালকের কার্যালয় ঘেরাও করেছি। এই হামলার বিচার না হওয়া পর্যন্ত আমাদের আন্দোলন চলবে।’

বরিশাল কোতয়ালী মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) লোকমান হোসেন বলেন, ‘পুরো বিষয়টি সমাধানের চেষ্টা চলছে। সেখানে পুলিশ পাঠানো হয়েছে।’

শেবাচিম হাসপাতালের পরিচালক ডা. এইচ এম সাইফুল ইসলাম বলেন, ‘হাসপাতালের একজন সিনিয়র স্টাফ নার্সকে রাতে মারধরের ঘটনা শুনেছি। কারা করেছে বিষয়টি খোঁজ নিয়ে আমাদের পক্ষ থেকে যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়ার চেষ্টা চলছে।’

আপনার মতামত দিন

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.