আজ: রবিবার, ১৪ অগাস্ট ২০২২ইং, ৩০শে শ্রাবণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ১৫ই মহর্‌রম, ১৪৪৪ হিজরি

সর্বশেষ আপডেট:

০৩ জানুয়ারী ২০১৭, মঙ্গলবার |



kidarkar

যে কারণে ডিসিসি মার্কেটে আগুন…

88b7823f0a1a177305d5558008fff490-fireশেয়ারবাজার ডেস্ক: ১০ ঘণ্টার ও বেশি সময় পেরিয়ে গেলেও রাজধানীর গুলশান ১ নম্বর সার্কেলের ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন (ডিনসিসি) মার্কেটে লাগা আগুন এখনো পুরোপুরি নিয়ন্ত্রণে আসেনি।গতকাল সোমবার দিবাগত রাত আড়াইটার দিকে এই মার্কেটে আগুন লাগে।

ফায়ার সার্ভিসের ২২টি ইউনিট আগুন নেভাতে কাজ করছে। এই তথ্য জানিয়ে ফায়ার সার্ভিসের নিয়ন্ত্রণ কক্ষের দায়িত্বরত কর্মকর্তা এনায়েত হোসেন প্রথম আলোকে বলেন, আগুন নেভাতে কতটা সময় লাগতে পারে, তা এখনই বলা যাচ্ছে না।

আগুন নেভাতে নৌবাহিনীও কাজ করছে।

সকাল পৌনে ৯টার দিকে ডিএনসিসির মেয়র আনিসুল হক সংবাদমাধ্যমকে বলেন, এখানে ফায়ার সার্ভিসের ১৯টি গাড়ি ও ডিএনসিসির বেশ কয়েকটি গাড়ি কাজ করছে।

মঙ্গলবার সকালে ঘটনাস্থল ঘুরে দেখার পর তিনি বলেন, “স্বাভাবিকভাবে মনে হচ্ছে, আগুন ইলেকট্রিসিটি থেকেই লেগেছে। এখানে এতো বেশি ফ্লেইমেবল প্রোডাক্টস… খাবার, পারফিউম… আগুন দ্রুত ছড়িয়ে গেছে। আপনারা দেখেছেন দোতলার একটি অংশ ধসে গেছে। আমাদের জানা মতে কোনো জীবনহানি হয়নি।”

সোমবার রাত ২টার পর আগুন লাগার খবর পেয়ে মার্কেটে ছুটে আসেন ব‌্যবসায়ীরা। মার্কেটের পূর্ব অংশে আগুনের সূত্রপাত হওয়ার পর অন‌্যান‌্য অংশে তা ছড়িয়ে পড়ে। ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা রাত আড়াইটার দিকে কাজ শুরু করে। মঙ্গলবার বেলা সাড়ে ১২টার সময়ও ফায়ার সার্ভিসের ২২টি ইউনিট সেখানে কাজ করছিল।

সকাল সাড়ে ৮টার দিকে ঘটনাস্থলে এসে মেয়র আনিসুল হক সাংবাদিকদের বলেন, “আগুন আগের চেয়ে নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। সবাই আপ্রাণ চেষ্টা করেছেন যেন পাশের এবং সামনের ভবনে আগুন না ছড়াতে পারে। তবে কখন পুরোপুরি নিয়ন্ত্রণ হবে বলা যাচ্ছে না।”

মার্কেটের সামনের খোলা চত্বর সকালে ফায়ার সর্ভিসের কর্মীদের ব‌্যবহার করা পানিতে থৈ থৈ করতে দেখা যায়। তার মধ‌্যেই দোকানীদের দেখা যায় মালামাল সরিয়ে এনে স্তূপ করে রাখতে।

এক দোকানী জানান, ট্রান্সফর্মার বিস্ফোরণ থেকে আগুনের সূত্রপাত হয় বলে এক নিরাপত্তাকর্মীর কাছে শুনেছেন তিনি। আবার ব‌্যবসায়ীদের কেউ কেউ এ ঘটনাকে নাশকতা বলে মনে করছেন।

এ বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করলে আনিসুল হক বলেন, “নাশকতা কিনা, এটা মেয়রের পক্ষে বলা সম্ভাব না, মেয়র নাশকতা এক্সপার্ট না। পুলিশ ভালো বলতে পারবে। তবে মেয়র হিসেবে আমার মনে হয়, নাশকতা না হওয়ার সম্ভাবনা ৯৯ পারসেন্ট।”

মেয়র জানান, মার্কেটে পানির উৎসের স্বল্পতার কারণে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীদের বেগ পেতে হয়েছে। পেছনের লেক থেকে পানি এনে আগুন নেভানোর চেষ্টা হচ্ছে।

এ কাজে সবাইকে সহযোগিতা করতে অনুরোধ করেন তিনি।

শেয়ারবাজারনিউজ/মা

আপনার মতামত দিন

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.