নতুন ওয়েবসাইটে উপকৃত হবেন বিনিয়োগকারীরা

dseশেয়ারবাজার রিপোর্ট: তথ্য সেবার মান বাড়াতে নতুনরূপে সংস্করণ করা হয়েছে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) ওয়েবসাইট। নতুন এ সাইট অনেক বেশি তথ্যবহুল। আর এতে বিনিয়োগকারীরা উপকৃত হবেন বলে মন্তব্য করেছেন ডিএসই’র চেয়ারম্যান বিচারপতি সিদ্দিকুর রহমান মিয়া।

রোববার ডিএসইর প্রধান কার্যালয়ে  নতুন ওয়েবসাইটের উদ্ভোধনকালে এ কথা বলেন তিনি। ডিএসই’র জনসংযোগ কর্মকতা মো. শফিকুর রহমান কর্তৃক প্রেরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

সিদ্দিকুর রহমান মিয়া বলেন, ওয়েবসাইটের উন্নত সংস্করণে লেখচিত্রকে (গ্রাফ) আরও বেশী ডায়নামিক করা হয়েছে। এই লেখচিত্রের যে কোন বিন্দুতে গিয়ে বিনিয়োগকারী  তারিখ, সময় ও ভ্যালু জানতে পারবে। নতুন ওয়েবসাইটে লিস্টিং সম্পর্কে বিস্তারিতভাবে সংযোজন করা হয়েছে যা থেকে সাধারণ বিনিয়োগকারীগন উপকৃত হবেন।

তিনি বলেন, এই ওয়েবসাইটে বিভিন্ন ব্যানার ভিউ রয়েছে, যার মাধ্যমে এক্সচেঞ্জ যে কোন তথ্য-উপাত্ত ছবি আকারে বিনিয়োগকারীদের জন্য উপস্থাপন করা হয়েছে। এছাড়াও এ ওয়েবসাইটে একাধিক ট্যাব-উইন্ডো সংযোজন করা হয়েছে, যার মাধ্যমে অল্প পরিসরে অধিক তথ্য-উপাত্ত উপস্থাপন করা হয়েছে, যার ফলে যে কোনো বিনিয়োগকারী দেশ ও বিদেশ থেকে পুঁজিবাজার সম্পর্কে অতি অল্প সময়ের মধ্যে সঠিক তথ্য-উপাত্ত জানতে পারবে। ওয়েবসাইটের নিচের অংশে সুদৃশ্য ম্যানু সংযোজন করা হয়েছে যা সৌন্দর্য বর্ধণ করেছে।

তিনি আরও বলেন,  গত ১১ ডিসেম্বর ২০১৪ তারিখে ডিএসই বিশ্বের সর্বাধুনিক ট্রেডিং প্লাটফর্ম চালু করে। তারই ধারাবাহিকতায় ডিএসই’র ওয়েবসাইটের এই উন্নত সংস্কারণ চালু করেছে। ওয়েবসাইটের এই উন্নত সংস্করণ চালুর ফলে এর সাইজ ও ভিউ আগের চেয়ে উন্নত ও সুসজ্জিত করা হয়েছে। ‍

উদ্ভোধনী অনুষ্ঠানের পর ডিএসই’র ব্যবস্থাপনা পরিচালক অধ্যাপক ড. স্বপন কুমার বালা বলেন, ১৯৯৮ সালের ১০ আগষ্ট ডিএসইতে অটোমেশন চালু হওয়ার পর ১৯৯৯ সালের অক্টোবর মাসে প্রথম ওয়েবসাইট চালু করা হয়। এপর থেকে বিভিন্ন সময়ে ডিএসই’র অফিসিয়াল ওয়েবসাইটের উন্নয়ন করা হয়েছে । ২০০০ সালে ৩০ মিনিট অন্তর অন্তর ডাটা আপডেট প্রক্রিয়া শুরু হয়। ২০০৩ সালের ডিসেম্বর মাসে এটি ১৫ মিনিটে নামিয়ে আনা হয়। ২০০৫ সালের ২০ আগস্টে এটিকে ৩ মিনিটে নিয়ে আসা হয়।  ২০০৭ সালে ওয়েবসাইট আরও দ্রুততর করা জন্য জাভা সার্ভার পেইজ থেকে পার্সনাল হোম পেইজে কনভার্ট করা হয়। পরবর্তীতে বিনিয়োগকারীদের দীর্ঘদিনের দাবীর প্রেক্ষিতে ১৮ ফেব্রয়ারি ২০১৩ সালে ডিএসইতে ইংরেজি ওয়েবসাইটের পাশাপাশি বাংলা ওয়েবসাইট চালু করা হয় এবং ২০১৪ সালের ২২ মে ডিএসই’র অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে বাংলা সংস্করণ নতুন কিছু বিষয় সংযোজন করা হয়। এরই ধারবাহিকতায় আজ ওয়েবসাইটের উন্নত সংস্করণ ওয়েবে দেয়া হয়েছে।

তিনি বলেন, ওয়েবসাইটের নতুন এই সংস্করণে রেজুলেশন ৮০০ পিক্সেল থেকে ১০২৪ পিক্সেলে বৃদ্ধি করা হয়েছে। ওয়েবসাইটের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ উন্নয়ন হলো লেখচিত্রের সময়ভিত্তিক ভ্যালু মাউস পয়েন্ট দিয়ে ক্লিক করলে দেখা যাবে। এছাড়াও ব্যানার ভিউ রাখা হয়েছে, ভবিষ্যতে এখানে আরও কিছু চমৎকার ব্যানার ভিউ দেওয়া হবে।

তিনি আরও বলেন, ওয়েবসাইটের এডিশনাল ট্যাব উইন্ডো এবং ডেকোরেটেড ফুট মেনু রয়েছে।  ডিএসই ধারাবাহিকভাবে উন্নয়নের কাজ করছে। আশা করা যাচ্ছে আগামী জুলাই মাসে বর্তমান অটোমেশনের পূর্ণাঙ্গ বাস্তবায়ন হলে ওয়েবসাইটটিকে বিনিয়োগকারীদের জন্য আরও বেশী তথ্য বহুল করা হবে। একই সঙ্গে বিনিয়োগকারীরা মোবাইলের মাধ্যমে সহজেই ডিএসইর ওয়েবসাইট দেখতে পারেন সে জন্য নতুন মোবাইল এ্যাপস চালু করা হবে। এছাড়াও শিগগিরই অনলাইন পেমেন্ট গেটওয়ে সার্ভিস চালু করা হবে।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ডিএসই পরিচালক জনাব খাজা গোলাম রসূল, জনাব শরীফ আনোয়ার হোসেন, ডিএসই মহাব্যবস্থাপক ও কোম্পানি সচিব শেখ মোহাম্মদউল্লাহ, এফসিএস, উপ-মহাব্যবস্থাপক (হেড অব আইসিটি) জনাব মোঃ শাহীন সারওয়ার হোসেন এবং সহকারী মহাব্যবস্থাপক (ওয়েব ডেভলাপমেন্ট) জনাব মোহাম্মদ রেজাউর রহমান উপস্থিত ছিলেন।

 

শেয়ারবাজার/অ/মু

আপনার মন্তব্য

Top