আজ: সোমবার, ১০ মে ২০২১ইং, ২৭শে বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৬শে রমজান, ১৪৪২ হিজরি

সর্বশেষ আপডেট:

২৭ এপ্রিল ২০১৫, সোমবার |


নেপালে মৃত্যুর সংখ্যা ৩ হাজার ৩২৬ দাঁড়িয়েছে

nepal earthquakশেয়ারবাজার ডেস্ক: ২৬ এপ্রিল হয়ে যাওয়া ভয়াবহ ভূমিকম্পের পর নেপাল পরিনত হয়েছে এক ভূতুরে লাশের নগরে। নেপালের বাতাসে এখন শুধু লাশের গন্ধ। ৭ দশমিক ৮ মাত্রার ভূমিকম্পে নেপালে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৩ হাজার ৩২৬ জনে দাঁড়িয়েছে। আহত হয়েছেন সাড়ে ৬ হাজার গণমাধ্যমসূত্রে জানা গেছে। শনিবার সকালে রাজধানী কাঠমান্ডু থেকে ৮০ কিলোমিটার পূর্বে ওই ভূমিকম্পের উৎপত্তি হয়। নিহতের সংখ্যা আরো বাড়বে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। কারণ, ধ্বংসস্তুপের মাঝে এখনো অনেকেই আটকা পড়ে আছে। দেশটিতে জারি করা হয়েছে জরুরী অবস্হা।

নেপালের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ের জাতীয় দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা বিভাগের প্রধান রমেশ্বর দাঙ্গাল বার্তা সংস্থা এএফপিকে বলেছেন, মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৩ হাজার ২১৮ হয়েছে এবং সাড়ে ৬ হাজারের বেশি লোক আহত হয়েছেন।

এদিকে, হাজার হাজার নেপালী দ্বিতীয় দিনের মতো খোলা আকাশ ও অস্থায়ী তাঁবুতে রাত কাটিয়েছেন। শনিবারের বিপর্যয়ের পর রবিবার অল্প সময়ের ব্যবধানে ৬ দশমিক ৭ এবং ৫ দশমিক ৪ মাত্রার দুটি কম্পনের কারণে আতঙ্কে লোকজন ঘরে না থেকে উন্মুক্ত আকাশের নিচে রাত কাটান। এর মাঝে বৃষ্টি নেপালিদের কষ্ট আরও বাড়িয়ে দিয়েছে। বৃষ্টির কারণে ব্যাহত হচ্ছে উদ্ধার তৎপরতাও। আহতদের কাঠমান্ডু মেডিকেল কলেজের বিছানায় জায়গা না হওয়ায় হাসপাতালের বাইরে তাঁবুর নিচে চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হয়েছে। সেখানেই অপারেশন থিয়েটার খোলা হয়েছে।Nepal tabu

এদিকে, রবিবার দুই দফা কম্পন ও বৃষ্টির কারণে হিমালয়ের এভারেস্টে তুষার ধসের ঘটনা ঘটেছে। এতে মৃতের সংখ্যাও বেড়েছে। এছাড়া শনিবারের ভূমিকম্পে বিধ্বস্ত ভবনের ধ্বংসাবশেষ অপসারণের কাজ অব্যাহত রয়েছে। ফলে স্বাভাবিকভাবেই মৃতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

বিগত ৮০ বছরের মধ্যে ভয়াবহ এ ভূমিকম্পে নেপালের অনেক ঐতিহাসিক স্থাপনা ধ্বংস হয়ে গেছে। এর আগে ১৯৩৪ সালে দেশটিতে ভয়াবহ ভূমিকম্প আঘাত হানে। এতে সাড়ে ৮ হাজার লোক মারা যায়।

শেয়ারবাজারনিউজ/রা

 

আপনার মতামত দিন

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.