আজ: রবিবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২১ইং, ১১ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৮ই সফর, ১৪৪৩ হিজরি

সর্বশেষ আপডেট:

০৮ মার্চ ২০১৮, বৃহস্পতিবার |



kidarkar

নারী দিবসে তারকাদের ভাবনা

শেয়ারবাজার ডেস্ক: প্রতি বছর ৮ মার্চ ‘আন্তর্জাতিক নারী দিবস’ পালিত হয়। নারীদের জন্য আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃত দিবস এটি। অন্যান্য দিনের থেকে একটু আলাদা করেই দেখা হয় দিনটিকে কেননা এ দিন সব নারীদের একটু আলাদাভাবে মর্যাদা দেয়া হয়। নারীদের ওপর অনেক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়, অনেক লেখালেখি হয়, অনেক শুভেচ্ছা জানানো
হয়। কিন্তু, সারা বছর নারীরা আসলে কতটুকু সম্মান পায়?

নারী দিবসকে কেন্দ্র করে কয়েকজন তারকার জানালেন নারী দিবস নিয়ে নিজেদের অভিমত।

বিপাশা কবির:

শুধুমাত্র নারী দিবসে নারীদের সম্মান দেখিয়ে ফেসবুকে স্ট্যাটাস বা ভিন্ন কিছু আয়োজন করার মানে নেই কোন। বরং বছরের প্রতিটা দিন নারীদের সাথে ভালো ব্যবহার করা উচিত। সামাজিকভাবে মেয়েরা এখন সব দিক থেকেই এগিয়ে। নারীরা তার যথাযথ প্রাপ্য পেলেই হয়তো দেশ আরো সামনে দিকে এগিয়ে যেতে পারবে। আর নারীর প্রতি সম্মান নিজেদের ঘর থেকেই শুরু করতে হবে। তাহলে হয়তো কোনো নারীকে আর নির্যাতিত হতে হবে না।

তানহা তাসনিয়া:

নারী দিবস আসলে ঘটা করে পালন করার কিছু নেই বরঞ্চ আমরা যদি আমাদের পরিবারসহ সব নারীদের মন থেকে সম্মান করি, তাদেরকে মূল্য দেই তবে সেটাই হবে নারী দিবসের স্বার্থকতা। বিশ্বের সকল নারীদের প্রতি অনেক শুভেচ্ছা ও ভালোবাসা।

শিরিন শিলা:

যেহেতু ৮ মার্চ কে আন্তর্জাতিক ভাবে নারী দিবস হিসেবে ঘোষণা করা হয়েছে সেই জায়গা থেকে প্রথমেই সকল নারীদের প্রতি রইলো আমার ভালোবাসা ও শুভেচ্ছা। তবে আমার মনে হয় একটি দিনকে নির্দিষ্ট করে নারীদের সম্মান করা য়ায় না। বর্তমানে আমাদের সমাজে নারীরা সবার উর্ধে। সব জায়গাতেই তাদের সম্মান দেয়া হচ্ছে। তবে সম্মান পাওয়াটা নির্ভর করে ব্যক্তিত্বের উপর। আবার যদি আমরা নিজেরাই নিজেদের জায়গাটা নষ্ট করি তাহলে হয়তো আমরা সেই সম্মানও পাবো না। সুতরাং আমাদের তথা নারীদের উচিত নিজেদের ব্যক্তিত্ব বজায় রেখে চলা।

রাকা বিশ্বাস:

বিশ্ব নারী দিবস নিয়ে কিছু বলতে গেলে প্রথমেই বলতে হয়, আজ আমরা বাংলাদেশের নারীরা যে একশত ভাগ স্বাধীনতা ভোগ করছি তা শুধু সম্ভব হয়েছে আমাদের প্রাণ প্রিয় সবার মাথার মনি জননেত্রী শেখ হাসিনার আপার জন্য, আপা বলে সম্বোধন করলাম কারণ তিনিও একজন নারী এবং নারী হয়ে জন্ম নিলেও কি কি করা যায়, তিনি তার বড় প্রমাণ।

তিনি সুযোগ করে দিয়েছেন বলেই আমরা সর্বক্ষেত্রে সহজে পদার্পণ করতে পারি। যেমন- সংগ্রামে নারী, স্থাপত্যে নারী, চ্যালেঞ্জে নারী, সেবায় নারী, বিশ্বায়নে নারী।

নারী হয়ে জন্মেছি বলেই আমরা কোথাও ছোটো নই, সর্বক্ষেত্রে মাথা উঁচু করে দাঁড়াতে পারি। তাছাড়া আমি বিশ্বাস করি নারী না থাকলে কোনো কাজই সফলভাবে হতে পারতো না। আমি একজন নারী হয়ে অন্য অসহায় নারীকে সাহায্য সহযোগিতা করবো এটাই আমার দৃঢ় কাম্য। আমার সাধ্যের মধ্যে আমি তা করিও।

আসুন এই নারী দিবসে আমরা বিশ্বের সব নারী ঐক্যবদ্ধ হয়ে প্রতিজ্ঞা করি ‘যে সব নারীরা এখনও অসহায় এবং সমাজে ঘৃণিত, অবহেলিত তাদের পাশে দাঁড়াই, হাতে হাত রেখে কাজ করি।’ তাহলেই বিশ্ব নারী দিবস সফল হবে।

শেয়ারবাজারনিউজ/মু

আপনার মতামত দিন

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.